বাংলা নিউজ > ময়দান > শিশু হাসপাতাল তৈরিতে ১০ উইকেট নেওয়া জার্সি 'উপহার' মানবিক আজাজ প্যাটেলের
মানবিক আজাজ প্যাটেল। ছবি: ইনস্টাগ্রাম
মানবিক আজাজ প্যাটেল। ছবি: ইনস্টাগ্রাম

শিশু হাসপাতাল তৈরিতে ১০ উইকেট নেওয়া জার্সি 'উপহার' মানবিক আজাজ প্যাটেলের

  • ভারতীয় বংশোদ্ভূত এই ক্রিকেটারের স্পিনের বিষাক্ত ছোবলে সেদিন ঘায়েল হয়েছিলেন তাবড় তাবড় ভারতীয় ব্যাটার। তবে আজাজের এই অসাধারণ পারফরম্যান্সের পরেও সেই ম্যাচ জিততে ব্যর্থ হয়েছিল নিউজিল্যান্ড। তবে ক্রিকেট বিশেষজ্ঞদের সুনজরে চলে এসেছিলেন তিনি।

শুভব্রত মুখার্জি: ক্রিকেটে ইতিহাসে বা বলা ভাল টেস্ট ক্রিকেটের ইতিহাসে বিরলতম নজির স্পর্শ করেছিলেন নিউজিল্যান্ড সিনিয়র দলের বাঁহাতি স্পিনার আজাজ প্যাটেল। জিম লেকার এবং অনিল কুম্বলের পরে তিনি তৃতীয় ব্যক্তি যিনি এক ইনিংসে ১০ টি অর্থাৎ বিপক্ষের সবকটি উইকেট পুরেছিলেন তার ঝুলিতে। এবার সেই রেকর্ড সৃষ্টির দিনে তার পরিহিত জার্সি তিনি তুলে দিলেন এক সমাজ কল্যাণমূলক কাজের উদ্দেশ্যে। শিশু হাসপাতালের জন্য অর্থ সংগ্রহ অভিযানে নিজের এই যোগাদান দিয়ে তিনি তার মানবিক দিকটি তুলে ধরলেন জনসমক্ষে।

প্রসঙ্গত ২০২১ সালে মুম্বইয়ের ওয়াংখেড়েতে ভারতের বিরুদ্ধে সিরিজের দ্বিতীয় টেস্ট ম্যাচে এক ইনিংসে ১০ উইকেট নিতে সক্ষম হয়েছিলেন বাঁহাতি কিউয়ি স্পিনার আজাজ। জন্মসূত্রে ভারতীয় এই বোলার স্পর্শ করেছিলেন জিম লেকার এবং অনিল কুম্বলের বিরল নজিরকে। ভারতীয় বংশোদ্ভূত এই ক্রিকেটারের স্পিনের বিষাক্ত ছোবলে সেদিন ঘায়েল হয়েছিলেন তাবড় তাবড় ভারতীয় ব্যাটার। তবে আজাজের এই অসাধারণ পারফরম্যান্সের পরেও সেই ম্যাচ জিততে ব্যর্থ হয়েছিল নিউজিল্যান্ড। তবে ক্রিকেট বিশেষজ্ঞদের সুনজরে চলে এসেছিলেন তিনি।

জাতীয় দলের যে জার্সিটি পড়ে তিনি এই ১০ উইকেট নিয়ে রেকর্ড গড়েছিলেন সেই জার্সি এবার নিলামে তোলার সিদ্ধান্ত নিলেন আজাজ। উদ্দেশ্যে অত্যন্ত মহত নিঃসন্দেহে। জার্সি নিলামে বিক্রি হওয়ার পরে জার্সি বিক্রির সেই টাকা দিয়ে তিনি শিশু হাসপাতাল তৈরির কাজ করবেন। আজাজের এই উদ্যোগের ভূয়সী প্রশংসা করেছে নেটিজেনরা। উল্লেখ্য এই জার্সিতে নিউজিল্যান্ড দলের সব ক্রিকেটারদের সইও রয়েছে।

শিশু হাসপাতাল তৈরির জন্য নিজের ক্রিকেট কেরিয়ারের অন্যতম স্মরণীয় মেমোরেবিলিয়াকে যেভাবে বিনা বাক্যব্যয়ে নিলামে তুলছেন আজাজ তাতে করে মোহিত সকলেই। জার্সিটি মহৎ কাজে তুলে দেওয়ার সেই ছবি ইনস্টাগ্রামে পোস্ট করেছেন তিনি। ছবিতে তিনি লিখেছেন 'গত বছর আমাদের মেয়ে অসুস্থ হয়ে নিউজিল্যান্ডের এক হাসপাতালে ভর্তি ছিল। ওই সময়টায় আমি এবং আমার স্ত্রীওই হাসপাতালে ছিলাম। সেই সময় ওখানকার সমস্যাগুলি আমাদের চোখে পড়ে। মনে-মনে ঠিক করেছিলাম যে এই হাসপাতালের উন্নয়নের জন্য টাকা দান করব। সেই কারণেই এই জার্সিটা নিলাম করছি। এখান থেকে যে অর্থ পাব তার পুরোটাই হাসপাতালের উন্নয়নের কাজে দিয়ে দেব।'

বন্ধ করুন