বাংলা নিউজ > ময়দান > মজা করতে গিয়ে সচিনকে কোলে তুলে ফেলে দিয়েছিলেন আখতার! তারপর কী হল...
সচিন তেন্ডুলকর ও শোয়েব আখতার

মজা করতে গিয়ে সচিনকে কোলে তুলে ফেলে দিয়েছিলেন আখতার! তারপর কী হল...

  • মজা করতে গিয়ে সচিনকে কোলে তুলে ফেলে দিয়েছিলেন আখতার! তারপর কী হয়েছিল? ব্যাখ্যা করলেন শোয়েব নিজেই। 

সালটা ছিল ২০০৭। সেই সময় পাকিস্তান ভারত সফরে এসেছিল। সেই সময় একটা ভুল করে ভয় পেয়ে গিয়েছিলেন পাকিস্তানের পেস বোলার শোয়েব আখতার। এক সাক্ষাতকারে নিজের ভুল স্বীকার করলেন বাইশ গজের রাওয়ালপিন্ডি এক্সপ্রেস। ২০০৭ সালের নভেম্বর-ডিসেম্বরে পাঁচটি একদিনের ম্যাচ ও তিনটি টেস্ট ম্যাচ খেলার জন্য ভারত সফরে এসেছিল পাকিস্তান টিম। সেই দলের অন্যতম সদস্য ছিলেন শোয়েব আখতার।

সেই সিরিজে ভারতীয় ক্রিকেটারদের সঙ্গে পাকিস্তানের ক্রিকেটারদের মধ্যে মাঠের বাইরের বন্ধুত্বটা জমে উঠেছিল। প্রত্যেকে একে অপরের সঙ্গে সময় কাটাতেন। এমন একদিনের ঘটনা ক্রিকেট ভক্তদের কাছে তুলে ধরলেন শোয়েব। তিনি জানালেন কী ভাবে তিনি সচিন তেন্ডুলকরকে কোলে তুলে নিয়েছিলেন। কিন্তু তারপরেই হঠাৎ করেই তার হাত থেকে সচিন স্লিপ খেয়ে পড়ে যান। তারপর বেশ ভয় পেয়ে গিয়েছিলেন পাক পেসার। একটা সময় ভেবেছিলেন তাকে ভারত থেকে তিনি নিজের দেশে ফিরতে পারবেন না। ফিরলেও আর জীবনেও ভারতের ভিসা পাবেন না। 

শোয়েব আখতার জানান, ‘যখন সে নিচে পড়ে গেল আমি সত্যিই ভাবলাম আমি জীবনের জন্য শেষ হয়ে গেছি। আমার মনে আছে হরভজন সিং এবং যুবরাজ সিংও সেখানে উপস্থিত ছিলেন এবং তারা আমাকে বলছিল, 'এটা তুমি কি করলে?' এবং আমি জবাব দিয়ে বলেছিলাম 'আমি সত্যিই বুঝতে পারিনি, এটা আচমকা হয়েগেছে।' তাই আমি গিয়ে তেন্ডুলকরকে জড়িয়ে ধরে জিজ্ঞেস করলাম সব ঠিক আছে তো। সৌভাগ্যক্রমে, তিনি বলেছিলেন যে তিনি ভাল আছেন। তারপরে আমি তাকে বললাম যদি কিছু ঘটত তাহলে অনেক বড় ক্ষতি হয়ে যেত। মিডিয়া এবং ভারতের সমস্ত ভক্তদের জন্য বড় সমস্যা তৈরি হয়ে যেত। তেন্ডুলকর পরবর্তী সময়ে সিরিজে আমাদেরকে আঘাত করেছিল। সেই সময়ে, আমি কামনা করতাম তিনি আঘাত পেলে ভালই হত(মজা করে)।’

বন্ধ করুন