বাংলা নিউজ > ময়দান > করোনা টিকা নেওয়া থাকলেই মাঠে বসে দেখা যাবে বাংলাদেশ-পাকিস্তান সিরিজ
বাংলাদেশের স্টেডিয়ামে ফিরছে দর্শক।
বাংলাদেশের স্টেডিয়ামে ফিরছে দর্শক।

করোনা টিকা নেওয়া থাকলেই মাঠে বসে দেখা যাবে বাংলাদেশ-পাকিস্তান সিরিজ

  • দর্শক প্রবেশ করার অনুমতি যদি পাওয়াও যায়, সে ক্ষেত্রেও কিন্তু পুরো গ্যালারির টিকেট বিক্রি করা হবে না। বরং ৫০ শতাংশ দর্শক প্রবেশের অনুমতি দেওয়া হবে বলে জানা গিয়েছে। সেই সঙ্গে যাদের ভ্যাকসিন নেওয়া রয়েছে, তারাই শুধু মাঠে ঢুকতে পারবেন।

মাঠে বসেই এ বার ক্রিকেট উপভোগ করতে পারবে বাংলাদেশের ক্রিকেট প্রেমীরা। বাংলাদেশ-পাকিস্তান সিরিজেই গ্যালারিতে ফিরছে দর্শক। যদিও এখনও সরকারি ছাড়পত্র পাওয়া যানি, তবে ইতিবাচক সাড়া মিলেছে। আনুষ্ঠানিক অনুমতিও শীঘ্রই পাওয়া যাবে বলে আশা করছে বিসিবি।

দর্শক প্রবেশ করার অনুমতি যদি পাওয়াও যায়, সে ক্ষেত্রেও কিন্তু পুরো গ্যালারির টিকেট বিক্রি করা হবে না। বরং ৫০ শতাংশ দর্শক প্রবেশের অনুমতি দেওয়া হবে বলে জানা গিয়েছে। সেই সঙ্গে যাদের ভ্যাকসিন নেওয়া রয়েছে, তারাই শুধু মাঠে ঢুকতে পারবেন।

কোভিডের কারণে ১০ মাস খেলা বন্ধ থাকার পর গত জানুয়ারিতে ওয়েস্ট ইন্ডিজ সিরিজ দিয়ে আন্তর্জাতিক ক্রিকেট ফেরে বাংলাদেশে। তবে খেলা হয় দর্শকহীন মাঠে। এর পর মে মাসে শ্রীলঙ্কা সিরিজ, অগস্টে অস্ট্রেলিয়া সিরিজে এবং সেপ্টেম্বরে নিউ জিল্যান্ড সিরিজেও খেলা হয় শূন্য গ্যালারিতে। এ ছাড়া ঘরোয়া টুর্নামেন্টগুলোতেও মাঠে রাখা হয়নি দর্শক। শুধুমাত্র গত বছর নভেম্বর-ডিসেম্বরে বঙ্গবন্ধু বিপিএলে কিছু দর্শক প্রবেশের অনুমতি মিলেছিল।

এখন বাংলাদেশে করোনা পরিস্থিতি অনেকটাই নিয়ন্ত্রণে চলে এসেছে। সে কারণেই মাঠে দর্শক ফেরানোর বিষয়ে উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে। বিসিবির প্রধান নির্বাহী নিজামউদ্দিন চৌধুরি বলেন, ‘পরিস্থিতি এখন অনেকটাই ভালো, তাই মাঠে দর্শক ফেরাতে চাই আমরা। তবে আপাতত ৫০ শতাংশ দর্শক প্রবেশ করতে পারবে। সরকারের সবুজ সঙ্কেত পেলে বিষয়টি চূড়ান্ত হবে। বর্তমান পরিস্থিতিতে আশা করি অনুমতি পেয়ে যাব। সংশ্লিষ্ট সব কর্তৃপক্ষ এখনও পর্যন্ত ইতিবাচক ইঙ্গিতই দিয়েছে।’

এরই সঙ্গে তিনি যোগ করেন, ‘৫০ শতাংশ টিকিট বিক্রি করা হবে। টিকা নেওয়া আছে যাঁদের, শুধুমাত্র তাঁরাই মাঠে ঢুকতে পারবেন। বাচ্চারা যেহেতু টিকা পায়নি, তাদের জন্য এটা প্রযোজ্য হবে না। তারা আসতে পারবে। তবে সবটা সঠিক ভাবে এগোলে আমরা সরকারি ভাবে ঘোষণা করব।’

বন্ধ করুন