বাংলা নিউজ > ময়দান > বিরোধিদের কড়া শাস্তি চেয়ে, না খেলেই গ্রুপ সেরা হতে চায় মোহনবাগানের প্রতিপক্ষ বসুন্ধরা কিংস
এএফসি ও বসুন্ধরা কিংস-এর লোগো (ছবি: গুগল)
এএফসি ও বসুন্ধরা কিংস-এর লোগো (ছবি: গুগল)

বিরোধিদের কড়া শাস্তি চেয়ে, না খেলেই গ্রুপ সেরা হতে চায় মোহনবাগানের প্রতিপক্ষ বসুন্ধরা কিংস

  • বসুন্ধরা কিংসের তরফ থেকে বলা হয়, এটিকে মোহনবাগান-সহ এএফসি কাপের গ্রুপে থাকা অন্য দল গুলির কোনও যোগ্যতাই নেই গ্রুপ চ্যাম্পিয়ন হওয়ার। তাই তাদেরই গ্রুপ চ্যাম্পিয়ন ঘোষণা করে দিক এএফসি।

করোনা পরিস্থিতিতে  এএফসি কাপ স্থগিত করেছে এশিয়ান ফুটবল কাউন্সিল। টুর্নামেন্ট স্থগিত হয়ে যাওয়ায় মালদ্বীপ যেতে পারেনি বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগ চ্যাম্পিয়ন বসুন্ধরা কিংস।‘ডি’ গ্রুপে বসুন্ধরার প্রতিদ্বন্দ্বী ছিল এটিকে মোহনবাগান, মাইজা এসআরসি এবং বেঙ্গালুরুর এফসি ও ক্লাব ঈগলসের মধ্যে জয়ী দল। ১৪ থেকে ২১ মে এএফসি কাপের ডি গ্রুপের ম্যাচ হওয়ার কথা ছিল মালেতে। কিন্তু দক্ষিণ এশিয় অঞ্চলের করোনা পরিস্থিতি ভেস্তে দিয়েছে এই সূচি। এফসির অফিসিয়াল ওয়েবসাইটে জানানো হয়েছিল, ‘এএফসি গ্রুপ পর্বের খেলা পরবর্তী নির্দেশনা দেওয়ার আগে পর্যন্ত স্থগিত রাখা হবে।’

এরপরেই বসুন্ধরা কিংসের দাবি, এএফসি কাপ আয়োজনে ব্যর্থ হওয়ায় আবাহনী ক্লাবকে এএফসি কাপ থেকে বাদ যেতে হয়েছিল। একই কারণে বাদ যাওয়া উচিত মলদ্বীপের দুই ক্লাব ইগলস ও মাজিয়া এফসি-র। মলদ্বীপে গিয়ে করোনা বিধি ভাঙায় কঠোর শাস্তি পাওয়া উচিত সুনীল ছেত্রীদের। নির্ধারিত সময়ে মলদ্বীপে যাওয়ার কোনও উদ্যোগ না নেওয়ায় শাস্তি প্রাপ্য এটিকে মোহনবাগানেরও।

বসুন্ধরা কিংসের তরফ থেকে বলা হয়, এটিকে মোহনবাগান-সহ এএফসি কাপের গ্রুপে থাকা অন্য দল গুলির কোনও যোগ্যতাই নেই গ্রুপ চ্যাম্পিয়ন হওয়ার। তাই তাদেরই গ্রুপ চ্যাম্পিয়ন ঘোষণা করে দিক এএফসি। এমন দাবি নিয়ে এএফসিকে চিঠি দিল বাংলাদেশের দল বসুন্ধরা কিংস। গ্রুপ চ্যাম্পিয়ন হিসেবে প্রাপ্য অর্থও দাবি করেছে বাংলাদেশের এই ক্লাব।

এরপরে সবুজ মেরুনের দিকে অভিযোগের তীর ছোঁড়ে বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগ চ্যাম্পিয়ন বসুন্ধরা কিংস। তারা দাবি করে, এটিকে মোহনবাগানের পক্ষ থেকে তাদের ফোন করে অনুরোধ করা হয়েছিল। এটিকে মোহনবাগানের কর্তারা তাদের এএফসি কাপ খেলতে না যাওয়ার কথা জানিয়েছিলেন। তবে সেই প্রস্তাবে বসুন্ধরা কিংস সায় দেয়নি। তাদের তরফ থেকে জানিয়ে দেওয়া হয় এএফসির সূচি মেনেই তারা খেলতে চায়। বসুন্ধরার খেলা নিয়ে কোনও জটিলতাই ছিল না। তবে, এসব অভিযোগ একেবারে পাত্তাই দিচ্ছে না এটিকে মোহনবাগান। এএফসির তরফ থেকেও কোনও বার্তা পাওয়া যায়নি।

বন্ধ করুন