বাংলা নিউজ > ময়দান > অত্যধিক চোট-আঘাত, ভারতীয় দলের ফিজিওর ভূমিকা নিয়ে উঠছে প্রশ্ন
সিডনি টেস্টে মেডিক্যাল টিমের সঙ্গে হনুমা বিহারী। (ছবি সৌজন্য পিটিআই)
সিডনি টেস্টে মেডিক্যাল টিমের সঙ্গে হনুমা বিহারী। (ছবি সৌজন্য পিটিআই)

অত্যধিক চোট-আঘাত, ভারতীয় দলের ফিজিওর ভূমিকা নিয়ে উঠছে প্রশ্ন

  • অস্ট্রেলিয়া সফরে প্রতি টেস্টেই চোট পেয়েছেন কোনও না কোনও ভারতীয় তারকা।

শুভব্রত মুখার্জি

গোটা অস্ট্রেলিয়া সফরেই চোট আঘাতে জর্জরিত হয়েছে ভারতীয় শিবির। ফলে টেস্ট সিরিজের চারটি টেস্টে ভারতীয় প্রথম একাদশে নিয়মিত খেলতে দেখা গেছে একমাত্র পূজারা এবং রাহানেকে। অর্থাৎ প্রতি ম্যাচেই করতে হয়েছে একাধিক বদল। সিডনি টেস্টের পরে তো ভারতীয় দল মিনি হাসপাতাল। চোট পেয়ে মাঠের বাইরে যাওয়া ক্রিকেটারদের নিয়েই একটা প্রথম একাদশ তৈরি করে নিতেন পারেন রবি শাস্ত্রী, অবস্থা এতটাই খারাপ।

এই অবস্থায় খুব স্বাভাবিকভাবেই প্রশ্ন উঠছে ভারতীয় দলের ফিজিওদের ভূমিকা নিয়ে। চোট থেকে সারিয়ে তোলার ব্যবস্থা নিয়ে অর্থাৎ রিহ্যাব নিয়ে উঠছে প্রশ্ন। ফলে জনমানসে ভারতীয় দলের ভিলেন এখন ফিজিওরাই। বিসিসিআই সূত্রে জানা গেছে ফিজিওদের সরাসরি প্রশ্ন করতে পারেন স্বয়ং প্রেসিডেন্ট সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায়।

ব্রিসবেন টেস্টের প্রথম দিনেই চোটের তালিকায় নয়া নাম পেসার নভদীপ সাইনি। ৭.৫ ওভার বল করে কুঁচকির চোটের জন্য মাঠ থেকে ছাড়তে বাধ্য হন তিনি। তাঁর ওভারটি শেষ করেন রোহিত শর্মা। শনিবারও বল করতে দেখা যায়নি তাঁকে। চোটের কারনে ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে দল বেছে নিতেও সমস্যায় পড়েছেন ভারতীয় নির্বাচকরা। দলের সঙ্গে ২ জন ফিজিও এবং কন্ডিশনিং কোচ রয়েছেন। তারপরেও এত চোট কিভাবে, তা নিয়ে উঠছে প্রশ্ন। ফিজিও নীতিন পটেল, যোগেশ পারমারের ও কন্ডিশনিং কোচ নিক ওয়েব, সোহম দেসাইকে চাঁচাছোলা প্রশ্নের মুখে পড়তে হতে পারে ভারতীয় দল দেশে ফিরলে, এমনটাই বিশেষজ্ঞমহলের ধারণা।

বন্ধ করুন