বাংলা নিউজ > ময়দান > Aus vs Ind: আহত যোদ্ধাদের অদম্য লড়াই - তেলুগুভাষী বিহারীকে তামিলে উদ্বুদ্ধ অশ্বিনের

শুভব্রত মুখার্জি

সিডনিতে তৃতীয় টেস্টের পঞ্চম দিনের খেলা তখন সবে শুরু হয়েছে। ২২ গজে নেমেছেন অজিঙ্কা রাহানে এবং চেতেশ্বর পূজারা। দিনের দ্বিতীয় ওভারেই ঘটে গেল অঘটন। রাহানেকে প্যাভিলিয়নের পথ দেখালেন নাথান লিঁয়। তারপর পূজারা এবং ঋষভ পন্তের জুটি ভারতকে জয়ের গন্ধ এনে দিলেও অ্যাটাকিং শট খেলতে গিয়ে প্যাভিলিয়নে ফিরে যান পন্থ। তারপর জোস হেজেলউডের বলে বোল্ড হন পূজারা।

উইকেটে তখন আছে হ্যামস্ট্রিংয়ে চোট পাওয়া হনুমা বিহারী‌। ঠিক করে দৌড়াতে পর্যন্ত পারছেন না। ক্রিজে আসছেন রবিচন্দ্রন অশ্বিন। যিনি এতটাই পিঠের ব্যথায় কাবু ছিলেন যে নিজের জুতোর ফিতে পর্যন্ত বাঁধতে পারছিলেন না। ড্রেসিংরুমে তখন ইনজেকশন নিয়ে একহাতে হলেও ব্যাট করে ভারতকে লড়াইয়ে রাখতে প্রস্তুতি সারছেন রবীন্দ্র জাদেজা।

যদিও আর মাঠে নামার প্রয়োজন হয়নি জাদেজার। পিচ আঁকড়ে পড়ে নাছোড়বান্দা লড়াই চালিয়ে ভারতকে এক অনবদ্য ড্র এনে দেন বিহারী-অশ্বিন জুটি। এই জুটির ৪৩ ওভারে ব্যাটিংয়ের সময় এক নয়া রুপে ধরা দিলেন ভারতের অফ স্পিনার রবিচন্দ্রন অশ্বিন। অন্ধ্রপ্রদেশের বিহারীকে তামিলে উদ্বুদ্ধ করতে থাকেন। সাহস জোগান। বিহারীর মাতৃভাষা অবশ্য তেলুহগু। কিন্তু তিনি চেন্নাই প্রথম ডিভিশন লিগে নেলসন সিসির হয়ে খেলেন। তার ফলে তামিলেই টিপস দিতে থাকেন অশ্বিন। একটা সময় অশ্বিনকে বলতে শোনা যায়, ‘১০ বল করে ভাব।’

বন্ধ করুন