বাংলা নিউজ > ময়দান > DRS নিয়ে ক্ষুব্ধ পেইন, তৃতীয় আম্পায়ারের বিরুদ্ধে দ্বি-চারিতার অভিযোগ অজি দলনায়কের
টিম পেইন। ছবি- টুইটার।
টিম পেইন। ছবি- টুইটার।

DRS নিয়ে ক্ষুব্ধ পেইন, তৃতীয় আম্পায়ারের বিরুদ্ধে দ্বি-চারিতার অভিযোগ অজি দলনায়কের

  • বক্সিং ডে টেস্টের দ্বিতীয় ইনিংসে তৃতীয় আম্পায়ারের ‘বিতর্কিত' সিদ্ধান্তে সাজঘরে ফিরতে হয় অজি দলনায়ককে।

তৃতীয় আম্পায়ারের সিদ্ধান্ত কোনও মতেই মেনে নিতে পারছেন না অস্ট্রেলিয়া অধিনায়ক টিম পেইন। তাঁর ধারণা, যদি সিদ্ধান্ত তাঁদের পক্ষে যেত, তবে ম্যাচের ফলাফল অন্যরকম হতে পারত। পেইন কার্যত ডিআরএস সিস্টেম নিয়ে দ্বি-চারিতার অভিযোগ আনলেন তৃতীয় আম্পায়ার পল উইলসনের বিরুদ্ধে।

অস্ট্রেলিয়ার দ্বিতীয় ইনিংসে জাদেজার বলে কট বিহাইন্ড হন টিম পেইন। ফিল্ড আম্পায়ার প্রাথমিকভাবে আউট দেননি। তবে ভারত তড়িঘড়ি রিভিউয়ের আবেদন জানায়। টেলিভিশন রিপ্লেতে স্পষ্ট হয়নি বল পেইনের ব্যাটের কানা ছুঁয়েছিল কিনা।

স্বাভাবিকভাবেই তৃতীয় আম্পায়ার প্রযুক্তির সাহায্য নেন। হটস্পটে বল ব্যাটে লাগার কোনও চিহ্ন ছিল না। তবে স্নিকোয় হালকা ওঠা-নামা ধরা পড়ে। যার ভিত্তিতে তৃতীয় আম্পায়ার ফিল্ড আম্পায়ারকে সিদ্ধান্ত বদলানোর নির্দেশ দেন এবং আউট ঘোষণা করা হয় পেইনকে।

সাজঘরে ফেরার সময় দৃশ্যতই হতাশ দেখায় অজি দলনায়ককে। সেই হতাশা ধরা পড়ে ম্যাচের শেষে সাংবাদিক সম্মেলনেও। পেইন জানান, যদি তাঁকে আউট না দেওয়া হতো, তবে ম্যাচ এভাবে হারতে হতো না তাঁদের।

অজি দলনায়কের কথায়, ‘(আম্পায়ারের সিদ্ধান্ত) অত্যন্ত হতাশাজনক, এই নিয়ে কোনও সন্দেহ নেই। ম্যাচের গুরুত্বপূর্ণ সময়ে ওরকম সিদ্ধান্ত। আমি মনে করি যে, সিরিজের শুরু থেকেই আমি ভালো ব্যাট করছি। তাই ওই সময় যদি গ্রিনের সঙ্গে পার্টনারশিপে ৫০, ১০০ বা ১২০ রান যোগ করা যেত, তবে গোটা ম্যাচটাই বদলে যেত। তার বদলে এভাবে ম্যাচ শেষ করতে হওয়ায় ভীষণ হতাশ।’

পেইন এক্ষেত্রে দাবি করেন যে, প্রথম ইনিংসে চেতেশ্বর পূজারার সঙ্গেও একই ঘটনা ঘটেছিল। তবে সেবার তৃতীয় আম্পায়ার ব্যাটসম্যানের পক্ষে মত দেন। তাঁর বেলায় অন্য সিদ্ধান্ত। এটাকে কার্যত দ্বি-চারিতা মনে হয়েছে অজি দলনায়কের। তিনি এও জানান যে, ম্যাচ অফিসিয়ালদের সঙ্গে কথা বলেও এই নিয়ে যুক্তিসঙ্গত কোনও জবাব পাননি।

অস্ট্রেলিয়া ক্যাপ্টেন অভিযোগের সুরে বলেন, ‘উনি (তৃতীয় আম্পায়ার) পর্যাপ্ত প্রমাণ পাওয়ার জন্য যথাযথ রিপ্লে দেখেননি। ব্যাট ও বলের মধ্যে সম্ভবত ব্যবধান ছিল।’

বন্ধ করুন