বাংলা নিউজ > ময়দান > IPL-এর ইতিহাসে সবথেকে উপেক্ষিত ক্রিকেটার মুশফিকুর! ১৪ বছরেও পেলেন না দল
মুশফিকুর রহিম। ছবি- গেটি।
মুশফিকুর রহিম। ছবি- গেটি।

IPL-এর ইতিহাসে সবথেকে উপেক্ষিত ক্রিকেটার মুশফিকুর! ১৪ বছরেও পেলেন না দল

  • শুরু থেকে আইপিএলের প্রতিটি মরশুমেই নিলামের জন্য নাম দিয়েছিলেন তারকা উইকেটকিপার-ব্যাটসম্যান।

১৪ বছরের বনবাস শেষে রাজত্ব ফিরে পেয়েছিলেন রাম। ১৪ বার আইপিএল নিলামে নাম দিয়েও দল পেলেন না মুশফিকুর রহিম। আইপিএলের ইতিহাসে সম্ভবত সবথেকে উপেক্ষিত ক্রিকেটার হলেন তিনিই।

শুরু থেকে গত ১৩টি মরশুমেই আইপিএল নিলামের জন্য নিজের নাম নথিভুক্ত করিয়েছিলেন বাংলাদেশের তারকা উইকেটকিপার-ব্যাটসম্যান মুশফিকুর রহিম। তবে একবারের জন্যও কোনও আইপিএল ফ্র্যাঞ্চাইজি তাঁকে দলে নেওয়ার কথা ভাবেনি। প্রতিবার নিলামে অবিক্রিত থেকেছেন আন্তর্জাতিক ক্রিকেটের বিপুল অভিজ্ঞতা থাকা প্রাক্তন বাংলাদেশ অধিনায়ক।

হতাশা ও অভিমান থেকেই এবার আইপিএল নিলাম থেকে নিজেকে সরিয়ে রাখার সিদ্ধান্ত নিয়েছিলেন মুশফিক। প্রাথমিকভাবে নিলামের জন্য নিজের নাম নথিভুক্ত করাননি তিনি। তবে ব্রিটিশ পেসার মার্ক উড শেষ মুহূর্তে আইপিএল নিলাম থেকে নিজের নাম তুলে নেওয়ায় মুশফিকুর সিদ্ধান্ত বদলে নিলামে নাম দেন। ১ কোটি টাকার বেস প্রাইসে তিনি নাম নথিভুক্ত করেন। যদিও এবারও উপেক্ষার ছবিটা বদলায়নি।

এই নিয়ে টানা ১৪ বছর আইপিএল নিলামে অবিক্রিত থাকলেন মুশফিকুর। এবারও কোনও ফ্র্যাঞ্চাইজি তাঁকে দলে নেওয়ার জন্য আগ্রহ দেখায়নি। বাংলাদেশের অপর দুই তারকা মুস্তাফিজুর রহমান ও শাকিব আল হাসান দল পেলেও উপেক্ষিত থেকে যান মুশফিক। মুস্তাফিজুর ১ কোটি টাকায় যোগ দেন রাজস্থান রয়্যালসে। শাকিবকে ৩ কোটি ২০ লক্ষ টাকায় কিনে নেয় কলকাতা নাইট রাইডার্স। মুশফিকুরকে নিয়ে এবার বাংলাদেশের মোট ৬ জন ক্রিকেটার আইপিএল নিলামে নাম দিয়েছিলেন। শিকে ছেঁড়ে মাত্র দু'জনের ভাগ্যে।

উল্লেখ্য, মুশফিকুর বাংলাদেশের হয়ে ৭১টি টেস্ট, ২২১টি ওয়ান ডে ও ৮৬টি আন্তর্জাতিক টি-২০ ম্যাচ খেলেছেন। ঘরোয়া ক্রিকেট মিলিয়ে ২০২টি টি-২০ ম্যাচ খেলার অভিজ্ঞতা রয়েছে মুশফিকুরের। সংক্ষিপ্ত ফর্ম্যাটে ২৮.৯৭ গড়ে ৪২৮৮ রান করেছেন তিনি। হাফ-সেঞ্চুরি করেছেন ২৫টি। এছাড়া টি-২০ ক্রিকেটে উইকেটকিপার হিসেবে ১০৬টি ক্যাচ ধরেছেন মুশফিকুর। স্টাম্প আউট করেছেন ৪৭টি।

বন্ধ করুন