বাংলা নিউজ > ময়দান > ড্রাফট নয়, মেয়েদের IPL-এও বসবে মেগা নিলামের আসর, মোটেও কম নয় ক্রিকেটারদের বেস প্রাইস

ড্রাফট নয়, মেয়েদের IPL-এও বসবে মেগা নিলামের আসর, মোটেও কম নয় ক্রিকেটারদের বেস প্রাইস

ভারতীয় মহিলা ক্রিকেট দল। ফাইল ছবি

এই বছর মহিলাদের আইপিএল আয়োজন করছে বিসিসিআই। সব ঠিক ঠাক থাকলে মার্চে শুরু হবে এই টুর্নামেন্ট। এই টুর্নামেন্টে অংশ নিতে ইচ্ছুক ক্রিকেটারদের নাম নথিভুক্ত করার শেষ দিন কবে তা জানিয়ে দিল বিসিসিআই। শুধু তাই নয়, অকশনের মাধ্যমে ফ্র্যাঞ্চাইজিগুলি নিজেদের সংসার গোছাবে।

ইতিহাস সৃষ্টি করতে চলেছে ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ড। এই বছরেই শুরু হবে মহিলাদের আইপিএল। এখন শুধুমাত্র সময়ের অপেক্ষা। ছেলেদের আইপিএলের আগেই শুরু হয়ে যাবে মেয়েদের আইপিএল। সবরকম প্রস্তুতি তাড়াতাড়ি সেরে নিতে চাইছে বিসিসিআই।

২৬ জানুয়ারির মধ্যে সব খেলোয়াড়দের নাম নথিভুক্ত করার জন্য সময়সীমা বেঁধে দিল বিসিসিআই। খেলোয়াড়দের প্রাথমিক মূল্য কত হবে। কোন খেলোয়াড়ের দাম কেমন হবে সেটাও নির্ধারণ করে দিয়েছে বোর্ড। একটি বিজ্ঞপ্তি জারি করে বিসিসিআই জানিয়েছে, যে সকল খেলোয়াড় আইপিএল খেলতে ইচ্ছুক তারা যেন আগামী ২৬ জানুয়ারির মধ্যে নিলামের জন্য নাম নথিভুক্ত করেন।

সবচেয়ে বড় বিষয় হল, পুরুষদের আইপিএলে যেমন অকশন হয়, মেয়েদের ক্ষেত্রেও অকশনের আসর বসবে। এমনটাই জানা বিসিসিআই সূত্র মারফত। প্রথমে ঠিক হয়েছিল, ড্রাফটের মাধ্যমে ফ্র্যাঞ্চাইজিগুলি তাদের দল গোছাবে। কিন্তু না অকশনের মাধ্যমেই ক্রিকেটারদের নিজেদের সংসারে নিতে হবে ফ্র্যাঞ্চাইজিগুলিকে। 

প্লেয়ারদের প্রাথমিক মূল্য কত হবে সেটাও বলা হয়েছে। যারা ভারতের হয়ে প্রতিনিধিত্ব করছেন তাদের তিনটি বিভাগে ভাগ করা হয়েছে। প্রথম বিভাগের খেলোয়াড়দের প্রাথমিক মূল্য হবে ৫০ লক্ষ টাকা। দ্বিতীয় বিভাগের খেলোয়াড়দের দাম হবে ৪০ লক্ষ টাকা। তৃতীয় বিভাগের খেলোয়াড়দের মূল্য হবে ৩০ লক্ষ টাকা। অন্যদিকে যে সব ক্রিকেটার ভারতের হয়ে প্রতিনিধিত্ব করেন না বা বোর্ডের সঙ্গে কোন চুক্তিতে নেই তাদের প্রাথমিক মূল্য দুই বিভাগে ভাগ করা হয়েছে। বোর্ডের সঙ্গে চুক্তিতে না থাকা প্রথম বিভাগের মেয়েদের বেস প্রাইস ২০ লক্ষ। দ্বিতীয় বিভাগের ক্রিকেটারদের বেস প্রাইস ১০ লক্ষ টাকা। বিদেশি খেলোয়াড়দের ক্ষেত্রেও এই নিয়ম কার্যকর হবে। ভাগ করা পাঁচটি বিভাগের মূল্য অনুসরণ করে তাদের কিনবে দলগুলো।

নিলামে অংশগ্রহণ এবং তাদের প্রাথমিক মূল্য ঠিক করে দেওয়া হলেও কবে নিলাম প্রক্রিয়া শুরু হবে সেই বিষয়ে কোনও নির্দিষ্ট দিনক্ষণ জানায়নি বোর্ড। তবে মনে করা হচ্ছে ফেব্রুয়ারি মাসেই হবে নিলাম প্রক্রিয়া। কারণ মার্চ মাসেই মহিলা আইপিএল শুরু করতে চাইছে বোর্ড। এক মাসের মধ্যেই এই টুর্নামেন্ট শেষ করতে চায় বিসিসিআই। সুত্র মারফত জানা গিয়েছে সব ঠিক ঠাক থাকলে সম্ভবত ৬ থেকে ২৬ মার্চ পর্যন্ত মহিলা আইপিএল চলবে। খেলা হবে মহারাষ্ট্রের বিভিন্ন মাঠে। তবে মনে করা হচ্ছে ১১ ফেব্রুয়ারি মহিলাদের আইপিএলের নিলাম বসতে পারে। 

নাম নথিভুক্ত ও নিলামের বিষয়ে বোর্ড জানিয়েছে, বিসিসিআই শুধুমাত্র রাজ্য সংস্থাগুলির সাথে সরাসরি লেনদেন করবে। এবং কোনও ভাবেই খেলোয়াড়দের এজেন্ট বা ম্যানেজারের সঙ্গে যোগাযোগ করবে না। এই শর্ত মানা না হলে নির্দিষ্ট ওই খেলোয়াড় বা খেলোয়াড়দের নাম নিলামের থেকে বাদ দেওয়া হবে।

বন্ধ করুন