বাংলা নিউজ > ময়দান > PSL নিয়েও জটিলতা শুরু, টুর্নামেন্ট করার জন্য এ বার ECB-র দ্বারস্থ পাকিস্তান
পিএসএল নিয়ে ডামাডোল শুরু হয়ে গিয়েছে।
পিএসএল নিয়ে ডামাডোল শুরু হয়ে গিয়েছে।

PSL নিয়েও জটিলতা শুরু, টুর্নামেন্ট করার জন্য এ বার ECB-র দ্বারস্থ পাকিস্তান

  • পাকিস্তান সরকারের তরফে জানানো হয়েছে, ৫মে থেকে ২০ মে পর্যন্ত দেশের অভ্যন্তরীণ বিমান চলাচল কমিয়ে দেওয়া হবে। এবং শুক্রবার থেকে ১৫ মে পর্যন্ত দেশ জুড়ে লকডাউনও ঘোষণা করা হয়েছে।

একই ভুল দ্বিতীয়বার করতে রাজি নয় পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ড। বিশেষ করে করোনার জেরে ভারতে আইপিএল স্থগিত হয়ে যাওয়ার পর, তারা আর কোনও ঝুঁকি নিতে রাজি হয়নি। পিএসএল-এর বাকি ম্যাচ সংযুক্ত আরব আমিরশাহীতে করার জন্য এমিরেটস ক্রিকেট বোর্ডের দ্বারস্থ হয়েছে পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ড। 

কিছু দিন আগেই পিএসএল-এর ছ'টি ফ্রাঞ্চাইজির তরফে একটি চিঠি পাঠানো হয় পিসিবি-কে। যেখানে লেখা ছিল, পাকিস্তানে করোনার বর্তমান পরিস্থিতি পর্যালোচনা করে, পিএসএল-এর বাকি ম্যাচগুলি যেন সংযুক্ত আরব আমিরশাহীতে করা হয়। এই প্রস্তাবে মত দিয়েছে পিসিবি। জানা গিয়েছে, করাচির যে হোটেলে ৪০৭টি ঘর আগে থেকে বুকিং করা হয়েছিল, সেগুলি বাতিল করা হয়েছে।

এরই মধ্যে পাকিস্তান সরকারের তরফে জানানো হয়েছে, ৫মে থেকে ২০ মে পর্যন্ত দেশের অভ্যন্তরীণ বিমান চলাচল কমিয়ে দেওয়া হবে। এবং শুক্রবার থেকে ১৫ মে পর্যন্ত দেশ জুড়ে লকডাউনও ঘোষণা করা হয়েছে।

এই পরিস্থিতিতে পাকিস্তানে কোনও ভাবেই পিএসএল আয়োজন করা সম্ভব নয়। সে কারণেই পিসিবি এই টুর্নামেন্টটিকে সংযুক্ত আরব আমিরশাহীতে নিয়ে যেতে চাইছে। যদিও এই মুহূর্তে ভারত, পাকিস্তানের মতো করোনায় বিধ্বস্ত দেশগুলি থেকে সংযুক্ত আরব আমিরশাহীতে নিজেদের প্রয়োজনের বাইরে কোনও বিমান ঢোকার অনুমতি দেওয়া হচ্ছে না।

এমন কী পাকিস্তানেও বিমান যোগাযোগ একেবারে কমিয়ে দেওয়া হয়েছে। আর জুনে সংযুক্ত আরব আমিরশাহীতে মারাত্মক গরম থাকার কারণে, এই সময়টা ক্রিকেট খেলার একদমই উপযুক্ত সময় নয়। সব মিলিয়ে পিএসএল নিয়েও ডামাডোল শুরু হয়ে গিয়েছে।

এর আগে ১৪টি ম্যাচ হওয়ার পর করোনার জন্য পিএসএল বন্ধ করে দিতে হয়। ২০ ফেব্রুয়ারি থেকে ৩ মার্চের মধ্যে ১৪টি ম্যাচ হয়েছিল। তার পরে প্লেয়ার্স, সাপোর্ট স্টাফেরা করোনায় আক্রান্ত হতে থাকলে টুর্নামেন্টটি স্থগিত করা হয়েছিল। নতুন সূচি তৈরি হলেও করোনা আতঙ্ক পিছন ছাড়ছে না।

বন্ধ করুন