বাংলা নিউজ > ময়দান > CPL 2022: তিন ওভারে ২ মেডেন ৩ উইকেট - T20 বিশ্বকাপের দল ঘোষণার দিন CPL-এ দুরন্ত পাকিস্তানি
কাঁপিয়ে দিলেন ইমাদ ওয়াসিম। (ছবি সৌজন্যে CPL T20/গেটি ইমেজস)

CPL 2022: তিন ওভারে ২ মেডেন ৩ উইকেট - T20 বিশ্বকাপের দল ঘোষণার দিন CPL-এ দুরন্ত পাকিস্তানি

  • CPL 2022: ক্যারিবিয়ান প্রিমিয়ার লিগে (সিপিএল) তিন ওভারে ১৪ রান দিয়ে তিন উইকেট নিয়েছেন পাকিস্তানি অল-রাউন্ডার ইমাদ ওয়াসিম। তাঁর দুর্দান্ত বোলিংয়ের সৌজন্যেই এবারের সিপিএলে প্রথম হারের মুখে পড়ল বার্বাডোজ রয়্যালস।

পাকিস্তানের টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের ঘোষণার দিনই মাঠে ঝড় তুললেন ইমাদ ওয়াসিম। ক্যারিবিয়ান প্রিমিয়ার লিগে (সিপিএল) তিন ওভারে ১৪ রান দিয়ে তিন উইকেট নিয়েছেন পাকিস্তানি অল-রাউন্ডার। তাঁর দুর্দান্ত বোলিংয়ের সৌজন্যেই এবারের সিপিএলে প্রথম হারের মুখে পড়ল বার্বাডোজ রয়্যালস।

বৃহস্পতিবার পোর্ট অফ স্পেনে টসে জিতে প্রথম ফিল্ডিংয়ের সিদ্ধান্ত নেন জামাইকা তালাওয়াসের অধিনায়ক রোভম্যান পাওয়েল। সেই সিদ্ধান্তের সুবিচার করেন পাকিস্তানি তারকা ইমাদ। চতুর্থ ওভারেই বার্বাডোজের ওপেনার রাকিম কর্নওয়েলকে আউট করেন। নিজের পরেই ওভারেই কাইল মায়ার্সকে প্যাভিলিয়ন ফেরত পাঠান। তিন বল পরেই ইমাদের শিকারের তালিকায় নাম ওঠে করবিন বসচের। সেই দুর্দান্ত স্পেলের সৌজন্যে পাওয়ার প্লে'তে বার্বাডোজের স্কোর দাঁড়ায় তিন উইকেটে ১৭ রান। ইমাদ দু'ওভারে কোনও রান না দিয়ে তিন উইকেট তুলে নেন ইমাদ।

আরও পড়ুন: 6,6,W,W,4,W: ভরপুর মনোরঞ্জন CPL-এ, মহাতারকারা ব্যর্থ হলেও লড়াকু জয় নাইট রাইডার্সের, ভিডিয়ো

সেই প্রাথমিক ধাক্কা কাটিয়ে বার্বাডোজকে কিছুটা টেনে তোলেন কুইন্টন ডি'কক এবং ডেভিড মিলার। ৪৩ বলে ৭৪ রান করেন দক্ষিণ আফ্রিকার তারকা। মিলার ২৭ বলে ৩৪ রান করেন। তার ফলে নির্ধারিত ২০ ওভারে ছয় উইকেটে ১৪৬ রান তোলে বার্বাডোজ। জামাইকার হয়ে তিনটি উইকেট নেন ইমাদ। একটি করে উইকেট পান মহম্মদ আমির (চার ওভারে ২১ রান), ফ্যাবিয়ান অ্যালেন (দু'ওভারে ১৪ রান) এবং নিকোলসন গর্ডন (তিন ওভারে ৩৩ রান)।

আরও পড়ুন: Pakistan T20 World Cup Squad: টি-২০ বিশ্বকাপের মূল স্কোয়াড থেকে ফখর জামানকে ছেঁটে ফেলল পাকিস্তান, ফিরলেন আফ্রিদি

আরও পড়ুন: CPL 2022: দুরন্ত রাসেল-নারিন, ওয়ারিয়র্সদের ২৬ রানে হারাল নাইট রাইডার্স

সেই রান তাড়া করতে নেমে দারুণ শুরু করে জামাইকা। ব্র্যান্ডন কিং করেন ৩৩ বলে ৪৬ রান। আমির জাঙ্গু ১৮ বলে ২৯ রান। প্রথম উইকেটের জুটিতেই ৪.৩ ওভারে ৫৩ রান ওঠে। সেই পরিস্থিতিতে জামাইকার মিডল অর্ডার কিছুটা ধুঁকলেও রানরেট একেবারে নেমে যায়নি। তারইমধ্যে ১৭ তম ওভারের শেষে বৃষ্টি নামে। তারপর আর ম্যাচ শুরু করা যায়নি। ডার্ক-ওয়ার্থ লুইস নিয়মে ছ'রান জয় পায় জামাইকা। বৃষ্টির জন্য যখন খেলা বন্ধ হয়, তখন ডার্ক-ওয়ার্থ লুইস নিয়মে ১৭ ওভারে জামাইকার লক্ষ্যমাত্রা দাঁড়ায় ১২১ রান। আর সেইসময় বার্বাডোজের স্কোর পাঁচ উইকেটে ১২৬ রান ছিল। ম্যাচের সেরা নির্বাচিত হন ইমাদ। যিনি গত বছর পাকিস্তানের জার্সিতে শেষ টি-টোয়েন্টি খেলেছিলেন। 

বন্ধ করুন