বাংলা নিউজ > ময়দান > CWG 2022: বাংলাকে স্বপ্ন দেখাচ্ছেন প্রণতি, দ্বিতীয় হয়ে উঠলেন ভল্টের ফাইনালে
প্রণতি নায়েক।

CWG 2022: বাংলাকে স্বপ্ন দেখাচ্ছেন প্রণতি, দ্বিতীয় হয়ে উঠলেন ভল্টের ফাইনালে

  • ভল্ট ইভেন্টে প্রথম আট জন পরের রাউন্ডে উঠেছেন। প্রণতি বাদ দিয়ে তাই ভারতের বাকি জিমন্যাস্টরা জায়গা করে নিতে পারেননি চূড়ান্ত পর্বে। সতীর্থ প্রতিষ্ঠা সামান্তা দশ নম্বরে শেষ করেছেন। স্বভাবতই ফাইনালে জায়গা করে নিতে পারেননি তিনি। তাঁর গড় ছিল ১১.৯৫০।

বাংলাকে স্বপ্ন দেখাচ্ছেন প্রণতি নায়েক। বার্মিংহ্যাম কমনওয়েলথ গেমস থেকে পদক আনার স্বপ্ন দেখাচ্ছেন মেদিনীপুরের তনয়া। গেমসে জিমন্যাস্টিক্সের ভল্টের ফাইনালে পৌঁছে গিয়েছেন প্রণতি। বাংলার তনয়া ভল্টে ১৩.৬০০ পয়েন্ট পান। দ্বিতীয় ভল্টে ১২.৯৫০ পয়েন্ট পান। গড় ১৩.২৭৫ পয়েন্ট করে ফাইনালে উঠেছেন। ভল্ট বিভাগে দ্বিতীয় হয়েছেন বাংলার এই জিমন্যাস্ট। স্কটল্যান্ডের শ্যানন আর্চার ১৩.৫০০ গড়ে শীর্ষে থেকে ফাইনালে ওঠেন।

এই ইভেন্টে প্রথম আট জন পরের রাউন্ডে উঠেছেন। প্রণতি বাদ দিয়ে তাই ভারতের বাকি জিমন্যাস্টরা জায়গা করে নিতে পারেননি চূড়ান্ত পর্বে। সতীর্থ প্রতিষ্ঠা সামান্তা দশ নম্বরে শেষ করেছেন। স্বভাবতই ফাইনালে জায়গা করে নিতে পারেননি তিনি। তাঁর গড় ছিল ১১.৯৫০।

কমনওয়েলথ গেমসের লাইভ আপডেট দেখতে ক্লিক করুন এই লিঙ্কে: https://bangla.hindustantimes.com/sports/cwg-2022-day-3-live-live-update-of-2022-birmingham-commonwealth-games-day-3-31659252351115.html

এ দিকে আবার প্রণতি এবং ভারতের আর এক জিমন্যাস্ট রুতুজা নটরাজ জিমন্যাস্টিক্সের প্রতিটি বিভাগেই অংশগ্রহণ করেছেন। রুতুজা ভল্টে ১২.৩০০, আনইভেন বারে ১১.৯৫০, ব্যালান্স বিমে ১১.৩৫০ এবং ফ্লোর এক্সারসাইজে ১০.৬৫০ পয়েন্ট পেয়েছেন। তাঁর মোট পয়েন্ট ৪৬.২৫০। ফাইনালে উঠতে পারেননি। প্রণতি চারটি ইভেন্ট মিলিয়ে ৪৩.৫০০ পয়েন্ট পেয়েছেন। প্রতিষ্ঠা সামান্তা শুধুমাত্র ভল্টে অংশগ্রহণ করেন। মহিলাদের ক্যাটাগরিতে ভারতের ত্রয়ী প্রণতি নায়েক, প্রতিষ্ঠা সামান্তা ও রুথুজা নটরাজ মোট ১০২.৬৫০ পয়েন্ট তোলেন।

আরও পড়ুন: স্কোয়াশে লড়ে হার ১৪ বছরের অনাহতের, টিটি-তে লজ্জার নজির মনিকাদের

মহিলাদের বিভাগে ন’টি দলের মধ্যে সবার নীচে শেষ করেছে ভারত। প্রণতি, প্রতিষ্ঠা এবং রুতুজা এই দলে ছিলেন। পুরুষ বিভাগেও একই অবস্থা। সইফ তাম্বোলি, সত্যজিৎ মণ্ডল এবং যোগেশ্বর সিংহ ফাইনালের যোগ্যতা অর্জন করতে পারেননি। তবে পুরুষদের আর্টিস্টিক জিমন্যাস্টিক্সে যোগেশ্বর ফাইনালে উঠলেও ছিটকে যান। শেষ করেন সবার শেষে।

কমনওয়েলথে পদকের অন্যতম দাবিদার প্রণতি। সম্প্রতি এশিয়ান চ্যাম্পিয়নশিপে ব্রোঞ্জ জিতেছিলেন তিনি। কিন্তু এশিয়ান চ্যাম্পিয়নশিপের থেকে কমনওয়েলথ কঠিন। তবে প্রণতি বেশি পরিচিত ডবল ব্যাক স্যাল্টোর জন্য। অন্যতম কঠিন ভল্ট দিতে পিছপা হন না তিনি। এ বার তাঁর লক্ষ্য ফ্রন্ট স্যাল্টো। অনেকটা প্রোদুনোভা ভল্টের মত শক্ত এই ভল্ট। আর তাই দীপা কর্মকারের ব্যক্তিগত কোচ বিশ্বেশ্বর নন্দীর থেকে সাহায্য নিয়েছেন প্রণতি।

বন্ধ করুন