বাংলা নিউজ > ময়দান > টি-২০ বিশ্বকাপের সেমিফাইনালে হারের পর দু-রাত ঘুমাতে পারিনি: হাসান আলি

টি-২০ বিশ্বকাপের সেমিফাইনালে হারের পর দু-রাত ঘুমাতে পারিনি: হাসান আলি

হাসান আলি।

হাসানের অকপট স্বীকারোক্তি, ম্যাচের পরবর্তীতে দুদিন তিনি ঘুমাতে পারেননি

শুভব্রত মুখার্জি: ২০২১ সালে আমীরশাহিতে যে টি-২০ বিশ্বকাপের আসর বসেছিল সেখানে সেমিফাইনালে পৌঁছলেও অস্ট্রেলিয়ার কাছে হেরে শেষ চার থেকেই বিদায় নিতে হয়েছিল পাকিস্তান দলকে। অস্ট্রেলিয়ার বিরুদ্ধে সেমিফাইনালে পাকিস্তান ম্যাচ হারার পরে কার্যত 'খলনায়ক' হয়ে গিয়েছিলেন তাদের পেসার হাসান আলি। ডিপ মিড উইকেটে ফিল্ডিং করার সময় ম্যাথু ওয়েডের ক্যাচ ফেলেছিলেন তিনি। পরবর্তীতে ওয়েড এক ওভারে তিনটি ছয় মেরে অস্ট্রেলিয়ার জয় সুনিশ্চিত করেছিলেন। ম্যাচের পরবর্তীতে ক্যামেরায় ধরা পড়েছিল পেসার শাহিন শাহ আফ্রিদি এবং হাসান আলির অশ্রুসিক্ত চোখ। এতদিন পরে সেই ম্যাচ নিয়ে বলতে গিয়ে হাসানের অকপট স্বীকারোক্তি ম্যাচের পরবর্তীতে দুদিন তিনি ঘুমাতে পারেননি।

ম্যাথু ওয়েডের ওই ক্যাচ ড্রপকে নিজের জীবনের সবথেকে কঠিনতম 'অধ্যায়' বলে অ্যাখ্যা দিয়েছেন হাসান আলি। সেই ম্যাচ সম্বন্ধে বলতে গিয়ে তিনি জানিয়েছেন 'আমার ক্যারিয়ারের সবথেকে কঠিনতম অধ্যায় ছিল ওটা (ক্যাচ মিস)। সহজে এই জিনিসগুলো ভোলা যায় না। একজন পেশাদার হিসেবে আপনাকে তা সত্ত্বেও জীবনে এগিয়ে যেতে হয়। সত্যি কথা বলতে এতদিন এই কথাটা গোপন রেখেছিলাম,ওই ক্যাচ ফেলার পরে ম্যাচ শেষে আমি দু-রাত ঘুমাতে পারিনি। আমার স্ত্রী আমার সাথে ছিলেন। ও খুব টেনশনে ছিল কারণ আমি ঘুমাচ্ছিলাম না।'

তিনি আর ও যোগ করেন 'আমি চুপচাপ হয়ে গিয়েছিলাম। এক কোনায় বসে থাকতাম। মাথার মধ্যে বারবার ক্যাচ ড্রপের বিষয়টি উঠে আসত। বাংলাদেশ সফরে যাওয়ার সময় নিজেকে বলেছিলাম আমার উচিত সামনের দিকে এগিয়ে যাওয়া। তিন দিনের অনুশীলনে আমি প্রায় ৫০০ ক্যাচ ধরেছিলাম। নো-বল ইস্যুতেও কাজ করেছি। আমি নিজের খেলার আরও উন্নতি ঘটাতে চাই। দলের জয়ে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করতে চাই।'

বন্ধ করুন