বাংলা নিউজ > ময়দান > খুদে ভক্তের কাছে নোভকের ‘K’ মানে কিসেবেল, সেই ভক্তকেই বিশেষ উপহার দিলেন জোকার
খুদে ভক্তের সঙ্গে জকোভিচ।
খুদে ভক্তের সঙ্গে জকোভিচ।

খুদে ভক্তের কাছে নোভকের ‘K’ মানে কিসেবেল, সেই ভক্তকেই বিশেষ উপহার দিলেন জোকার

  • উইম্বলডনের ম্যাচ শেষে নিজের খুদে ভক্তের কাছে ছুটে গিয়েছিলেন জকোভিচ। তাঁর রেকর্ড গড়ার র‌্যাকেটটাই উপহার হিসেবে দিয়ে দিলেন ফুটফুটে বাচ্চা মেয়েটিকে।

হাতে একটি প্ল্যাকার্ড। তাতে নোভক জকোভিচের ছবি। সেই সঙ্গে NOVAK-এর নামের মানের সুন্দর ব্যাখ্যা লেখা ছিল সেই পোস্টারে। নোভকের ‘N’ মানে লেখা ছিল নাম্বার ওয়ান। ‘O’-তে লেখা ছিল আউটস্ট্যান্ডিং। ‘V’-র মানে ছিল ভিক্টোরিয়াস। ‘A’ -তে লেখা ছিল অ্যাম্বিশাস। আর ‘K’-তে ছিল কিসেবেল। আর গোটা ম্যাচে সেই খুদেই অনুপ্রেরণা জুগিয়েছে নোভককে। ম্যাচ শেষে তাই নিজের খুদে ভক্তের কাছে ছুটে গিয়েছিলেন জকোভিচ। তাঁর রেকর্ড গড়ার র‌্যাকেটটাই উপহার হিসেবে দিয়ে দিলেন ফুটফুটে বাচ্চা মেয়েটিকে।

বাচ্চা মেয়েটি হয়তো নিজেও ভাবেনি তাঁর স্বপ্নের নায়কের থেকে এমন উপহার সে পাবে। তাই জকোভিচ যখন নিজে দৌড়ে এসে তাঁরে র‌্যাকেটটা দিচ্ছিলেন, বাচ্চা মেয়েটি বেশ অবাক হয়ে গিয়েছিল। তবে তার চোখে মুখে ছিল উচ্ছ্বাসের ছোঁয়া। জোকারও খুব খুশি হয়েছেন তাঁর এমন মিষ্টি একজন ভক্তের হাতে জয়ের র‌্যাকেট তুলে দিতে। সেই ছবি টুইটারে পোস্ট করেছিল উইম্বলডন কর্তৃপক্ষ। সেই টুইটার শেয়ার করে জোকার তাতে লিখেছেন ‘সে ছিল কিউটেস্ট’। জকোভিচের এই পোস্ট কিন্তু নেটিজেনদের মন ছুঁয়ে গিয়েছে।

উইম্বলডন কর্তৃপক্ষ শুধু ছবি পোস্ট করেনি, তারা কিন্তু একটি ভিডিও পোস্ট করেছে, যেটা ইতিমধ্যে ভাইরাল হয়ে গিয়েছে।

রবিবার ইতালির মাতেয়ো বেরাত্তিনিকে হারিয়ে ষষ্ঠ বার ঘাসের কোর্টে চ্যাম্পিয়ন হলেন জোকার। প্রথম সেট ৬-৭ (৪-৭)-এ পিছিয়ে পড়লেও, দ্বিতীয় সেট থেকে ঘুরে দাঁড়ান জকোভিচ। ৬-৪, ৬-৪, ৬-৩ সেটে হারিয়ে দেন বেরাত্তিনিকে। রবিবার উইম্বলডন জয়ের সঙ্গেই স্পর্শ করে ফেললেন রজার ফেডেরার এবং রাফায়েল নাদালকে। পুরুষদের গ্র্যান্ড স্লামে সর্বাধিক জয়ের রেকর্ডে (২০) রাফা, ফেডেক্সের সঙ্গে নাম লিখিয়ে ফেললেন জোকারও। 

বন্ধ করুন