বাংলা নিউজ > ময়দান > ঘরের মাঠে জয়ের জন্য ঝাঁপানোর সাহস দেখাল না ইংল্যান্ড, লর্ডস টেস্টে আত্মবিশ্বাস বাড়িয়ে নিল নিউজিল্যান্ড
ফলাফল নির্ধারিত হল না লর্ডস টেস্টে। ছবি- আইসিসি।
ফলাফল নির্ধারিত হল না লর্ডস টেস্টে। ছবি- আইসিসি।

ঘরের মাঠে জয়ের জন্য ঝাঁপানোর সাহস দেখাল না ইংল্যান্ড, লর্ডস টেস্টে আত্মবিশ্বাস বাড়িয়ে নিল নিউজিল্যান্ড

  • শেষ ইনিংসে সিবলিদের ব্যাটিং দেখে স্পষ্ট বোঝা যায়, ড্র'য়ের জন্য খেলছিলেন জো রুটরা।

গোটা একটা দিন বৃষ্টিতে ভেস্তে যাওয়াই শেষমেশ ম্যাচের নিয়ন্ত্রক হয়ে দাঁড়াল। ক্ষণিকের জন্য নিউজিল্যান্ড শিবির আশা জাগালেও লর্ডস টেস্ট শেষমেশ নিস্ফলা ড্র'য়ে শেষ হল।

ডেভন কনওয়ের ২০০ রানে ভর করে নিউজিল্যান্ড প্রথম ইনিংসে ৩৭৮ রান তোলে। ইংল্যান্ড ররি বার্নসের ১৩২ রানের সুবাদে প্রথম ইনিংসে ২৭৫ রান তুলতে সক্ষম হয়। প্রথম ইনিংসের নিরিখে ১০৩ রানে এগিয়ে থাকা নিউজিল্যান্ড দ্বিতীয় ইনিংস ডিক্লেয়ার করে ৬ উইকেটে ১৬৯ রান তুলে। ইংল্যান্ড শেষ ইনিংসে ৩ উইকেটে ১৭০ রান তুললে দুই অধিনায়কের সম্মতিতে ম্যাচ ড্র ঘোষণা করেন আম্পায়াররা।

আসলে তৃতীয় দিনের খেলা বৃষ্টিতে ভেস্তে যাওয়ায় ম্যাচের চারটি ইনিংসে শেষ হওয়ার মতো পর্যাপ্ত সময় ছিল না। নিউজিল্যান্ড শেষ দিনে সাহসী হয়ে ইংল্যান্ডের সামনে ৭০ ওভারে ২৭৩ রানের লক্ষ্যমাত্রা ঝুলিয়ে দেয় বটে, তবে শেষ ইনিংসে ইংল্যান্ডকে অল-আউট করা সম্ভব হয়নি কিউয়িদের পক্ষে।

ইংল্যান্ড শেষ ইনিংসে ৫৬ রানের মধ্যে ররি বার্নস ও জ্যাক ক্রাউলির উইকেট খুইয়ে বসায় আগ্রাসী হওয়ার সাহস দেখায়নি। ররি বার্নসের ৮১ বলে ২৫, ডমিনিক সিবলির ২০৭ বলে অপরাজিত ৬০, ক্রাউলির ২৫ বলে ২ রানের ইনিংসগুলির দিকে তাকালেই বোঝা যায় যে, ইংল্যান্ড ড্র'য়ের জন্যই খেলছিল, জয়ের জন্য নয়। নাহলে টি-২০'র যুগে ওভার প্রতি ৩.৯ রান তোলে অসম্ভব নয়।

শেষ ইনিংসে জো রুট ৪০ রান করে আউট হন। সঙ্গত কারণেই ম্যাচের সেরা হয়েছেন ডেভন কনওয়ে। লর্ডস টেস্ট ড্র হওয়ায় ২ ম্যাচের সিরিজ আপাতত ০-০'র সমতায় দাঁড়িয়ে রইল। লর্ডসের পারফর্ম্যান্সে নিউজিল্যান্ড দ্বিতীয় টেস্টের জন্য আত্মবিশ্বাস বাড়িয়ে নিল নিশ্চিত।

বন্ধ করুন