বাংলা নিউজ > ময়দান > ইংল্যান্ড ক্রিকেট বোর্ডে বড় রদবদল, সরানো হল নির্বাচককে
এড স্মিথ ও ক্রিস সিলভারউড। ছবি- গেটি ইমেজেস। 
এড স্মিথ ও ক্রিস সিলভারউড। ছবি- গেটি ইমেজেস। 

ইংল্যান্ড ক্রিকেট বোর্ডে বড় রদবদল, সরানো হল নির্বাচককে

  • অনেকেই মনে করছেন ইংল্যান্ড বোর্ডের একাধিক সদস্যদের সাথে তিক্ততাই এড স্মিথের ছাঁটাইয়ের আসল কারণ। স্মিথের অধীনে সাফল্য আসলেও, কেউ কেউ মনে করেন দল নির্বাচনে নিজের ক্ষমতা প্রয়োগের চেষ্টা করতে গিয়েই বিপাকে পড়েন তিনি।

বড় বদল ঘটতে চলেছে ইংল্যান্ড ক্রিকেট বোর্ডে। ঢেলে সাজানো হচ্ছে বোর্ডের সিস্টেমকে। দায়িত্ব নেওয়ার প্রায় তিন বছর পর এড স্মিথকে নির্বাচক পদ থেকে সরানোর কথা জানানো হয়েছে ইসিবি তরফে। ইংল্যান্ডের পুরুষ ক্রিকেট দলের ডিরেক্টর অ্যাশলে জাইলসের নেতৃত্বে পুনর্গঠিত বোর্ডে আমূল পরিবর্তন ঘটতে চলেছে দল নির্বাচনের পক্রিয়াতে।

স্মিথের জায়গায় প্রধান কোচ ক্রিস সিলভারউড এবার থেকে নির্বাচকের ভূমিকাতেও কাজ করবেন। তিনি এরপর একদিবসীয় দলের অধিনায়ক ইয়ন মর্গ্যান ও টেস্ট অধিনায়ক জো রুটের সঙ্গে মিলে একত্রে ম্যাচে কোন ১১ জন ক্রিকেটার মাঠে নামবেন তা নির্ণয় করবেন। 

স্মিথকে ধন্যবাদ জানিয়ে এক বিবৃতিতে জাইলস বলেছেন, ‘ইংল্যান্ড পুরুষ দলে অবদানের জন্য ব্যক্তিগতভাবে আমি এডকে ধন্যবাদ জানাতে চাই। এডের গুরুত্বপূর্ণ মতামতের সাহায্যে ইংল্যান্ড দল সফলতা লাভ করেছে। ও দারুণ পেশাদারিত্ব ও নিষ্ঠার সঙ্গে জাতীয় নির্বাচকের ভূমিকা পালন করেছে। এডকে ওর ভবিষৎ-র জন্য অনেক শুভেচ্ছা রইল।’ এর পাশাপাশি জাইলস আরও মনে করেন নতুন পদ্ধতিতে বোর্ডে কার কি দায়িত্ব, তা আরও স্পষ্টভাবে বোঝা যাবে। হেড কোচ সিলভারউডের ওপরই দল নির্বাচনের সব দায়ভার থাকবে এবার থেকে। 

অনেকেই মনে করছেন ইংল্যান্ড বোর্ডের একাধিক সদস্যদের সাথে তিক্ততাই স্মিথের ছাঁটাইয়ের আসল কারণ। স্মিথের অধীনে সাফল্য আসলেও, কেউ কেউ মনে করেন দল নির্বাচনে নিজের ক্ষমতা প্রয়োগের চেষ্টা করতে গিয়েই বিপাকে পড়েন তিনি। বোর্ড থেকে তাঁকে ছেঁটে ফেলা হলেও দলের সমর্থকহিসাবে এ বার থেকে গলা ফাটাবেন বলে জানান স্মিথ। স্মিথকে ছেঁটে ফেলা হলেও বোর্ডে থাকছেন জেমস টেলার। তবে বদলে যাচ্ছে তাঁর ভূমিকা। নির্বাচকের বদলে ‘হেড স্কাউট’ হিসাবে এবার থেকে কাজ করবেন তিনি।

বন্ধ করুন