বাংলা নিউজ > ময়দান > ফুটবল > পিন্টু-রক্ষিতদের বকেয়া না মেটানোয় ফের ট্রান্সফার ব্যানের কবলে ইস্টবেঙ্গল
ইস্টবেঙ্গল ক্লাব।
ইস্টবেঙ্গল ক্লাব।

পিন্টু-রক্ষিতদের বকেয়া না মেটানোয় ফের ট্রান্সফার ব্যানের কবলে ইস্টবেঙ্গল

  • এর আগেও ইস্টবেঙ্গলের ট্রান্সফার ব্যান করা হয়েছিল। সে বার জনি আকোস্তার বকেয়া বেতন না মেটানোর জন্য ফিফায় নালিশ জানিয়েছিলেন তিনি। যে কারণে ফিফা থেকে ইস্টবেঙ্গলের ট্রান্সফার ব্যান করা হয়েছিল।

চুক্তি জট কাটছে না। তার মধ্যেই ফের বড় ধাক্কা খেল ইস্টবেঙ্গল। লাল-হলুদের আবার ট্রান্সফার ব্যান করা হল। এ বার এআইএফএফ-এর তরফে এসসি ইস্টবেঙ্গলের ট্রান্সফার ব্যান করা হয়েছে। 

জানা গিয়েছে, পিন্টু মাহাতো, রক্ষিত ডাগর এবং আভাস থাপাদের বকেয়া বেতন না মেটানোর জন্য়ই ট্রান্সফার ব্যানের কবলে পড়তে হল এসসি ইস্টবেঙ্গলকে। পিন্টুরা এই নিয়ে ফেডারেশনের দ্বারস্থ হয়েছিল। ফেডারেশন দ্রুত প্লেয়ারদের এই বকেয়া বেতন মেটানোর নির্দেশ দিয়েছে। লাল-হলুদ ফুটবলারদের মোট বকেয়া বেতনের পরিমাণ প্রায় ৮ লক্ষ ৬৬ হাজার টাকা।

এর আগেও ইস্টবেঙ্গলের ট্রান্সফার ব্যান করা হয়েছিল। সে বার জনি আকোস্তার বকেয়া বেতন না মেটানোর জন্য ফিফায় নালিশ জানিয়েছিলেন তিনি। যে কারণে ফিফা থেকে ইস্টবেঙ্গলের ট্রান্সফার ব্যান করা হয়েছিল। তবে অনেক গড়িমসির পর শেষ পর্যন্ত জনি আকোস্তার টাকা মিটিয়ে দেওয়ায় ট্রান্সফার ব্যান তুলে নিয়েছিল ফিফা।

এ বারও যদি পিন্টুদের বকেয়া বেতন মিটিয়ে দেওয়া হয়, তা হলে আর সমস্যা থাকবে না। ট্রান্স ব্যান উঠে যাবে। আর যদি বকেয়া বেতন না মেটানো হয়, সে ক্ষেত্রে সমস্যা বাড়বে লাল-হলুদের। তবে ইস্টবেঙ্গলের এখন যা পরিস্থিতি, তাতে চুক্তি জট না কাটলে শ্রী সিমেন্টের তরফে বকেয়া টাকা দেওয়া হবে না। সে ক্ষেত্রে ইস্টবেঙ্গলের কর্মকর্তাদেরই এই টাকা মেটাতে হবে।

বন্ধ করুন