বাংলা নিউজ > ময়দান > ফুটবলের মহারণ > নতুন বছরে একাধিক রেকর্ডের সামনে দাঁড়িয়ে মেসি-রোনাল্ডোরা

নতুন বছরে একাধিক রেকর্ডের সামনে দাঁড়িয়ে মেসি-রোনাল্ডোরা

মেসি এবং রোনাল্ডো। ফাইল ছবি

নতুন বছরে একাধিক রেকর্ডের মুখে দাঁড়িয়ে রয়েছেন লিওনেল মেসি, ক্রিশ্চিয়ানো রোনান্ডো। এই বছর আর কোন কোন ফুটবলার রেকর্ডের মুখে দাঁড়িয়ে আছেন তার তালিকা প্রকাশ করল ফিফা।

শেষ হয়েছে ২০২২। বছর জুড়ে ভালো খারাপ মিশে থাকলেও ক্রীড়া প্রেমীদের জন্য দারুন কেটেছে ২০২২। পৃথিবীর সেরা শো তথা ফুটবল বিশ্বকাপ হয়েছে কাতারে। কাপ উঠেছে ফুটবলের জাদুকর লিওনেল মেসির হাতে। বিশ্বকাপে তৈরি হয়েছে একের পর এক রেকর্ড। মেসি নিজেও সেই রেকর্ডের অংশ। পিছিয়ে নেই অন্যতম সেরা খেলোয়াড় ক্রিশ্চিয়ানো রোলান্ডো।

সম্প্রতি ২০২৩ সালের সম্ভাব্য রেকর্ডের তালিকা প্রকাশ করেছে বিশ্ব ফুটবলের নিয়ামক সংস্থা ফিফা। অর্থাৎ কে কত ম্যাচ খেললে বা গোল করলে কী রেকর্ড করতে পারেন সেই তালিকা প্রকাশ করা হয়। সম্ভাব্য রেকর্ডের তালিকায় উপরে স্থান রয়েছে ক্রিশ্চিয়ানো রোনান্ডোর। সব ঠিক থাকলে রিয়াল মাদ্রিদের হয়ে সর্বকালের বেশি গোল করা খেলোয়াড় প্রথম পুরুষ খেলোয়াড় হিসাবে খেলতে পারেন ২০০টি আন্তর্জাতিক ম্যাচ। এখনও পর্যন্ত তিনি মোট খেলেছেন ১৯৬টি ম্যাচ। শুধু রোলান্ডো নন, কুয়েতি খেলোয়াড় বাদের আল মুতাওয়াও এই রেকর্ডের কাছাকাছি রয়েছেন।

পিছিয়ে নেই বার্সার মেয়েদের দলও। ফুটবলের ইতিহাসে মেয়েদের প্রথম দল হিসাবে টানা ৫০টি লিগ জিতে ইতিহাস তৈরি করতে পারে বার্সেলোনার মহিলা ফুটবল দল। অন্যদিকে ‘অন্য গ্রহের খেলোয়াড়' বা ফুটবলের জাদুকর’ তাঁকে যে নামেই ডাকা হোক না কেন ইতিহাস তৈরিতে তাঁর কোনও ক্লান্তি নেই। এই বছর ফিফার বর্ষ সেরা খেলোয়াড়ের পুরস্কার পেলে আবারও অনন্য নজির তৈরি করবেন আর্জেন্তিনার অধিনায়ক। সাতবার বর্ষসেরার পুরস্কার উঠতে পারে মেসির হাতে। যা এর আগে কোনও ফুটবলারের নেই। ইতিমধ্যেই বিশ্বকাপ ফুটবলে তিনি করেছেন সর্বোচ্চ গোল।

অন্যদিকে মেসি ও নেইমাররা যদি পিএসজির হয়ে কাপ জেতে তাহলেও তৈরি হবে রেকর্ড। মেসি ও নেইমার প্রথম খেলোয়াড় হবেন যারা দুই ভিন্ন দলের হয়েই কাপ জিতবেন। উল্লেখ্য এর আগে বার্সেলোনায় থাকাকালীন মেসি ও নেইমার চ্যাম্পিয়ন হয়েছিলেন। ২০২২ অনেক রেকর্ড তৈরি হয়েছে। নতুন বছরে নতুন রেকর্ড তৈরির অপেক্ষায় ফুটবলপ্রেমী সহ ক্রীড়া প্রেমীরা।

বন্ধ করুন