বাংলা নিউজ > ময়দান > ফুটবলের মহারণ > রোনাল্ডা ভক্তদের বিক্ষোভে মেসিকে সর্বকালের সেরা বলেও পোস্ট ডিলিট করল FIFA

রোনাল্ডা ভক্তদের বিক্ষোভে মেসিকে সর্বকালের সেরা বলেও পোস্ট ডিলিট করল FIFA

লিওনেল মেসি এবং ক্রিশ্চিয়ানো রোনাল্ডো।

আর্জেন্তিনা বিশ্বকাপ জেতার পরে এই বিতর্ক নিয়ে একটি টুইট করেছিল ফিফা। কিন্তু বেগতিক দেখে সেটি তারা মুছে দেয়। টুইটে ফিফা লেখে, ‘সর্বকালের সেরা বিতর্কের অবসান। ফুটবলের সেরা ট্রফিটা এ বার ওর ঝুলিতে। উত্তরাধিকার সম্পূর্ণ হয়েছে। আর্জেন্তিনা নিজেদের তৃতীয় বিশ্বকাপ জিতেছে। মেসি বিশ্বকাপের সেরা ফুটবলার।’

বিশ্ব ফুটবলে ভীষণ পরিচিত একটি বিতর্ক হয়েই থাকে লিয়োনেল মেসি বনাম ক্রিশ্চিয়ানো রোনাল্ডোকে নিয়ে। এই দুই ফুটবলারের মধ্যে সেরা কে? এই নিয়ে মেসি-রোনাল্ডো ভক্তদের মধ্যে আকচা-আকচির অন্ত নেই। এ বার সেই বিতর্কে আরও ঘি ঢালল ফিফা।

আর্জেন্তিনা বিশ্বকাপ জেতার পরে এই বিতর্ক নিয়ে একটি টুইট করেছিল ফিফা। কিন্তু বেগতিক দেখে সেটি তারা মুছে দেয়। কী ছিল সেই টুইটে? আর্জেন্তিনা বিশ্বকাপ জেতার পরে ট্রফি হাতে মেসির একটি ছবি দিয়ে লেখা হয়, ‘সর্বকালের সেরা (গ্রেটেস্ট অফ অল টাইম বা গোট) বিতর্কের অবসান। ফুটবলের সেরা ট্রফিটা এ বার ওর ঝুলিতে। উত্তরাধিকার সম্পূর্ণ হয়েছে। আর্জেন্তিনা নিজেদের তৃতীয় বিশ্বকাপ জিতেছে। মেসি বিশ্বকাপের সেরা ফুটবলার।’

আরও পড়ুন: মেসির পাশে দাঁড়িয়েই এমবাপের পুতুল হাতে ধরে শোভাযাত্রায় ঘুরলেন মার্টিনেজ

ফিফার এই টুইটের পরেই তীব্র শুরু হয় এই বিতর্ক। আসলে মেসি এবং রোনাল্ডো যেহেতু ক্লাবের হয়ে প্রায় সব ট্রফিই জিতেছেন, তাই তাঁদের মধ্যে কে সেরা, সেটা বিচার সেটা বিচার করার জন্য বিশ্বকাপকেই মানদণ্ড করেছিল ফিফা। যা উল্টে বিতর্কের জন্ম দেয়। আর সেই সেই টুইট মুছে ফেলতে হয় ফিফাকে।

কাতার বিশ্বকাপে মেসি দুরন্ত ছন্দে ছিলেন। নিজের শেষ বিশ্বকাপে ৭টি গোল এবং ৩টি অ্যাসিস্ট করেছেন তিনি। বিশ্বকাপের সেরা ফুটবলার হিসাবে পেয়েছেন সোনার বল।অন্য দিকে রোনাল্ডোর এ বারের বিশ্বকাপ একেবারেই ভালো কাটেনি। গ্রুপের প্রথম ম্যাচে ১টি গোল ছাড়া গোটা প্রতিযোগিতায় আর গোল করতে পারেননি। উল্টে কোচের সঙ্গে বিতর্কে জড়িয়ে নকআউট পর্বে প্রথম একাদশ থেকে বাদ পড়েন। কোয়ার্টার ফাইনাল থেকে পর্তুগাল ছিটকে যাওয়ার পর কাঁদতে কাঁদতে মাঠ ছাড়েন রোনাল্ডো।

আরও পড়ুন: WC জিততে তিন দশক লেগে গেল, এটা দিয়েগোর জন্য- মেসির খোলা চিঠিতে আবেগের বিস্ফোরণ

স্বয়ং রোনাল্ডো অবশ্য মনে করেন, এই বিতর্ক থামবার নয়। বিশ্বকাপ শুরুর আগে তার করা একটি মন্তব্য ফের সামনে এসেছে। তিনি সেখানে বলেছিলেন, ‘যদি আমি বিশ্বকাপ জিতি তাহলেও G.O.A.T বিতর্ক চলবে। কেউ আমাকে বেশি পছন্দ করেন, কেউ কম পছন্দ করেন। আমি কী করতে পারি, বছরের পর বছর ধরে তা দেখাতে চাই। আমি টুর্নামেন্ট জিততে পছন্দ করি। আমি যদি আর কোনও ট্রফি জিততে নাও পারি, তাতে অসুবিধা নেই। কিন্তু আমি বিশ্বকাপ জিততে চাইব।’

তবে কাতারে রোনাল্ডোর ভাগ্যের শিকে ছেড়েনি। বরং তাঁর চিরপ্রতিদ্ধন্ধী মেসি ট্রফি নিয়ে আর্জেন্তিনা চলে গিয়েছেন। তবে বিশ্বকাপ যে তারকাই পান না কেন, মেসি না রোনাল্ডো সেরা, সেই বিতর্ক যুগ যুগ ধরেই চলবে। এর তুল্যমূল্য বিচার করা মোটেও সহজ নয়।

বন্ধ করুন