বাংলা নিউজ > ময়দান > ফুটবল > ভ্যাকসিন ছাড়া অনুমতি মিলবে না খেলার, সাফ জানিয়ে দিলেন I-League কর্তা
আইলিগ ট্রফি। (ছবি:পিটিআই)
আইলিগ ট্রফি। (ছবি:পিটিআই)

ভ্যাকসিন ছাড়া অনুমতি মিলবে না খেলার, সাফ জানিয়ে দিলেন I-League কর্তা

  • জৈব বলয়ে যোগ দেওয়ার আগে সকলেরই ছয় দিন হোটেলে নিভৃতবাসে থাকা বাধ্যতামূলক এবং সেই ছয় দিন তাদের দু'বার করোনা পরীক্ষা করা হবে।

ডিসেম্বরের মাঝামাঝিই আইলিগ শুরু করার পরিকল্পনা কর্তাদের। বাংলার বুকেই কঠোর জৈব বলয়ের মধ্যে খেলা হওয়ার। তবে তার আগেই ফুটবলারদের সাফ জানিয়ে দেওয়া হল, পুরোপুরি ভ্যাক্সিনেটেড না হলে কাউকেই লিগে অংশগ্রহণ করার ছাড়পত্র দেওয়া হবে না। বুধবারই (২২ সেপ্টেম্বর) আইলিগের সিইও সুনন্দ ধর এই সিদ্ধান্তের কথা জানান।

তবে অনুর্ধ্ব ১৮ ফুটবলার ও সদ্য অতিমারী সারিয়ে ওঠা ফুটবলারদের স্বাভাবিক নিয়মের জেরেই এই আওতার বাইরে রাখার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। ধর PTI-কে এক সাক্ষাৎকারে জানান, ‘আইলিগ এবং লিগ কোয়ালিফায়ারে অংশগ্রহণকারী সকল ফুটবলার তথা অফিসিয়ালদের দু'টো ডোজ টিকা নেওয়া আবশ্যক। শুধুমাত্র অনুর্ধ্ব ১৮ ফুটবলার এবং সদ্য করোনা সারিয়ে ওঠা যেসব ফুটবলাররা টিকা নিতে পারবেন না, তাদেরই এই আওতার বাইরে রাখা হবে। গত বছর জোড়া টিকা নেওয়া বাধ্যতামূলক না থাকলেও এ বছর পরিস্থিতি আরও কঠিন হওয়ায় আমরা এই সিদ্ধান্ত নিয়েছি।’

সমস্ত অফিসিয়াল এবং ফুটবলাররা জৈব বলয়ে যোগ দেওয়ার আগে ছয়দিন তাদের হোটেলে নিভৃতবাসে কাটাতে হবে এবং সেই সময় দুইবার তাদের করোনা পরীক্ষাও করা হবে। কারুর রিপোর্ট পজিটিভ আসলে, তাকে হোটেলের আলাদা ফ্লোরে নিভৃতবাসে থাকতে হবে এবং পরপর তিনটি নেগেটিভ টেস্টের পরই সে বাকিদের সঙ্গে যোগ দিতে পারবে। পাশপাশি ধর আরও জানান, যারা জোড়া টিকা ছাড়াই টুর্নামেন্টে নামবে, তাদের বাকিদের থেকে আরও ঘনঘন পরীক্ষা করা হবে। ‘যদি পুরো ভ্যাক্সিনেটেড লোকেদের প্রত্যেক পাঁচ-ছয় দিনে টেস্ট করা হয়, তবে যাদের জোড়া ভ্যাকসিন নেওয়া নেই তাদের প্রতি তিন-চার দিনে টেস্ট করা হবে।’ দাবি ধরের।

বন্ধ করুন