বাংলা নিউজ > ময়দান > ফুটবল > বাবলে প্রবেশের সময় সবাই নেগেটিভ ছিল, Asian Cup থেকে ভারতের বিদায়ের পর AFC-কে বিঁধলেন কোচ ডেনারবাই
ভারতীয় মহিলা ফুটবল দলের কোচ থমাস ডেনারবাই। ছবি- টুইটার (@IndianFootball)। 

বাবলে প্রবেশের সময় সবাই নেগেটিভ ছিল, Asian Cup থেকে ভারতের বিদায়ের পর AFC-কে বিঁধলেন কোচ ডেনারবাই

  • বর্তমানে ১৯ জন ভারতীয় ফুটবলার এবং ছয়জন সাপোর্ট স্টাফ করোনা আক্রান্ত বলে জানান ডেনারবাই।

রবিবার (২৩ জানুয়ারি) চাইনিজ তাইপের বিরুদ্ধে এশিয়ান কাপের দ্বিতীয় ম্যাচ শুরুর আগেই ভারতীয় দলের ১২ জন ফুটবলারের করোনা পজিটিভ হওয়ার খবর মেলে। এর জেরে টুর্নামেন্ট থেকেই বিদায় নিতে হয় ভারতীয় দলের। তারপর থেকেই বিতর্ক, অভিযোগ-পাল্টা অভিযোগের পালা অব্যাহত। এবার অপেশাদারিত্ব নিয়ে এএফসির বিরুদ্ধে গর্জে উঠলেন ভারতীয় কোচ থমাস ডেনারবাই।

প্রখ্যাত সাংবাদিক মার্কাসকে ডেনারবাই জানান, ‘আমি এবং আমার দলের সকলেই এই সিদ্ধান্তের জেরে চূড়ান্ত হতাশ। আমাদের আশা চিরতরে ভঙ্গ হয়ে গেল। আমরা সকলেই বর্তমানে নিজেদের ঘরে নিভৃতবাসে রয়েছি। দলের ফুটবলারদের ওপর এত ঝড় বয়ে যাওয়ার পর ওদের সঙ্গে কথাটুকু বলার সুযোগ পাচ্ছি না। মানসিকভাবে এটা আমাদের সকলের জন্য একটা ভীষণ কঠিন সময়।’

আরেকটি পৃথক বলয়ে ভারতীয় অনুর্ধ্ব ১৭ দলের ফুটবলাররা থাকলেও এএফসি বিন্দুমাত্র সহযোগিতা করে, তাদের খেলার অনুমতি দেওয়ারও এতটুকু চেষ্টা করেনি বলে দাবি ডেনারবাইয়ের। পাশপাশি তিনি স্পষ্ট জানিয়ে দেন, বায়ো বাবলে প্রবেশের আগে সকল ভারতীয় ফুটবলারই করোনা নেগেটিভ ছিল। বায়ো বাবলের দায়িত্ব যেহেতু এএফসির ছিল, তাই ফুটবলাররা পজিটিভ হওয়ায় গোটা দোষটাই তাদের ওপর দিয়ে বিস্ফোরক দাবি করেন ডেনারবাই।

‘হোটেলের সাতজন কর্মচারী ১৮ জানুয়ারি করোনা পজিটিভ ধরা পড়েন। তারা সকলেই ঘর সাফাই, খাবার সার্ভ করা, না না ভাবে সরাসরি আমাদের সংস্পর্শে আসে। ওদের কেন প্রতি তিনদিন অন্তর পরীক্ষা করা হয়নি। এটা তো চরম অপেশাদারিত্ব। বায়ো বাবলের দায়িত্বে এএফসি ছিল। আমাদের দলের সকল ফুটবলার বাবলে প্রবেশের সময় নেগেটিভ ছিল। এএফসি বায়ো বাবল নিয়ন্ত্রণের বিষয়ে একেবারেই পেশাদার ছিল না।’ সাফ কথা ভারতীয় কোচের।

বন্ধ করুন