বাংলা নিউজ > ময়দান > ফুটবল > Santosh Trophy 2022: পিছিয়ে থেকেও জেসিনের পাঁচ গোলে ভর করে ফাইনালে কেরল
সন্তোষ ট্রফির ফাইনালে কেরল। ছবি- টুইটার (Kerala Football Association)।
সন্তোষ ট্রফির ফাইনালে কেরল। ছবি- টুইটার (Kerala Football Association)।

Santosh Trophy 2022: পিছিয়ে থেকেও জেসিনের পাঁচ গোলে ভর করে ফাইনালে কেরল

  • একাই ৫ গোল করে কেরলকে চলতি সন্তোষ ট্রফির ফাইনালে তোলেন জেসিন। সেমিফাইনালে কর্নাটককে একতরফাভাবে বিধ্বস্ত করে কেরল।

শুভব্রত মুখার্জি

টিকে জেসিন, দীর্ঘদিন এই নামটা মনে রাখবেন ভারতীয় ফুটবল বিশেষ করে কেরল ফুটবলের সমর্থকরা। বদলি হিসেবে চলতি মরশুমের সন্তোষ ট্রফির সেমিফাইনালে নেমে কেরল ফুটবল দলের ভাগ্যটাই কার্যত বদলে দিলেন তিনি। পিছিয়ে থাকা দলকে প্রায় একার কাঁধে ভর করে পৌঁছে দিলেন ফাইনালে। জেসিনের করা পাঁচ গোলে নির্ভর করেই কর্নাটককে ৭-৩ গোলের বড় ব্যবধানে হারাল কেরল।

বৃহস্পতিবার পায়ান্নাড স্টেডিয়ামে অনুষ্ঠিত হয় কেরল বনাম কর্নাটকের প্রথম সেমিফাইনাল। ম্যাচে কর্নাটক লিড নিলেও তারপরেই দুরন্ত কামব্যাক ঘটায় কেরল। ম্যাচের ৩৫, ৪২, ৪৪, ৫৬ এবং ৭৫ মিনিটে দলের হয়ে ম্যাচে মোট পাঁচটি গোল করেন জেসিন। প্রথমার্ধেই নিজের হ্যাটট্রিক সম্পন্ন করেন জেসিন। দ্বিতীয়ার্ধে তাঁর ঝুলিতে আরও দুই গোল যোগ হয়। এছাড়াও প্রথমার্ধের শেষে কেরালার হয়ে একটি গোল করেন শীঘিল (৪৫)।

কর্নাটকের হয়ে তিনটি গোল করেছেন সুধীর কোটিকেলা (২৫ মিনিট), কমলেশ (৫৪ মিনিট) এবং সোলাইমালাই (৭১ মিনিট)। প্রথম থেকেই এদিন আক্রমণাত্মক খেলা শুরু করে কেরল। বেশ হাই লাইন রেখেই তারা বিপক্ষের বক্সে একের পর এক অ্যাটাক তুলে আনে। জিজো জোসেফের থ্রু বলগুলো ধরে বামপ্রান্ত থেকে ভিগনেশের দৌড় কর্নাটকের ডিফেন্ডারদের বেশ ব্যস্ত রাখে।

আরও পড়ুন:- সন্তোষ ট্রফির মাঝেই প্রয়াত হলেন কেরলকে প্রথবার জাতীয় খেতাব এনে দেওয়া দেবানন্দ

২৫ মিনিটে কাউন্টার অ্যাটাক থেকে গোল করে ম্যাচে লিড নিয়ে নেয় কর্নাটক। ৩৫ মিনিটেই সমতা ফেরান জেসিন। এরপর ৪২ এবং ৪৪ মিনিটে পরপর দুই গোল করে নিজের হ্যাটট্রিক পূর্ণ করেন। ৪৫ মিনিটে শীঘিলের করা গোলে ৪-১ ফলে লিড নিয়ে বিরতিতে যায় কেরল।

আরও পড়ুন:- Santosh Trophy: ‘ওরা গোল করলে আমাদের ছেলেরাও চুপ থাকবে না,’ সেমিফাইনালে উঠে বাংলা কোচের হুঙ্কার

দ্বিতীয়ার্ধে ৩৫ গজ দুর থেকে নেওয়া শটে গোল করে কমলেশ ৪-২ করে খেলা জমিয়ে দেন। কয়েক মিনিট পরেই দলের হয়ে পঞ্চম গোল করে ম্যাচে কর্নাটক সমর্থকদের নিরাশ করেন জেসিন। এরপর অর্জুন জয়রাজের করা আত্মঘাতী গোলে ৬-২ ফলে এগিয়ে যায় কেরল। ৭১ মিনিটে ৬-৩ করে কর্নাটক। ৭৪ মিনিটে নিজের পঞ্চম এবং দলের সপ্তম গোল করে কেরলের জয় নিশ্চিত করেন জেসিন। খেলার ফল কেরলের পক্ষে ৭-৩।

বন্ধ করুন