বাংলা নিউজ > ময়দান > ফুটবলের মহারণ > ক্লাব লাইসেন্সিংয়ের সমস্যা মেটাতে চিঠি দিয়ে AIFF এর কাছে সময় চাইবে SC ইস্টবেঙ্গল

ক্লাব লাইসেন্সিংয়ের সমস্যা মেটাতে চিঠি দিয়ে AIFF এর কাছে সময় চাইবে SC ইস্টবেঙ্গল

AIFF এর কাছে সময় চাইবে SC ইস্টবেঙ্গল

সর্বভারতীয় ফুটবল ফেডারেশনের কাছে সময় চাওয়ার ভাবনা রয়েছে এসসি ইস্টবেঙ্গল কর্তৃপক্ষের। এমন অবস্থায় নিয়ম হল, লাইসেন্সিং ব‌্যবস্থায় ছাড় দেওয়ার জন‌্য এসসি ইস্টবেঙ্গলকে ৩০ অক্টোবরের মধ্যে আবেদন করতে হবে ফেডারেশনের লাইসেন্সিং কমিটির কাছে।

সর্বভারতীয় ফুটবল ফেডারেশনের কাছে সময় চাওয়ার ভাবনা রয়েছে এসসি ইস্টবেঙ্গল কর্তৃপক্ষের। এমন অবস্থায় নিয়ম হল, লাইসেন্সিং ব‌্যবস্থায় ছাড় দেওয়ার জন‌্য এসসি ইস্টবেঙ্গলকে ৩০ অক্টোবরের মধ্যে আবেদন করতে হবে ফেডারেশনের লাইসেন্সিং কমিটির কাছে। যা নিয়ে ফেডারেশনের লাইসেন্সিং কমিটির মিটিং হতে পারে ৫ অথবা ৬ নভেম্বর। এর মধ্যে শ্রী সিমেন্ট কর্তারা ফুটবলারদের বকেয়া বেতন না মেটালে কঠিন সিদ্ধান্ত নিতে পারে লাইসেন্সিং কমিটি। বকেয়া বেতন ছাড়া অন‌্যান‌্য যে যে পয়েন্টে শর্তপূরণ না করার জন‌্য লাইসেন্সে পাস করতে পারেনি লাল-হলুদ, সেই শর্তগুলি আর্থিক ক্ষতিপূরণ দিলে হয়তো পূরণ করা সম্ভব হবে। কিন্তু ফুটবলারদের বেতনের বদলে কোনওভাবেই এসসি ইস্টবেঙ্গলকে আর্থিক জরিমানা করা সম্ভব নয়। সেক্ষেত্রে হয় ক্লাব ফুটবলারদের বেতন মেটাবে, না হলে নয়। এদিকে ক্লাব লাইসেন্সিংয়ের জন্য লাল-হলুদের লগ্নিকারী সংস্থা তরফে ফেডারশনকে মুচলেকা দিয়ে যাবতীয় আর্থিক দায় নেওয়ার প্রতিশ্রুতি দেওয়া হয়েছিল।

বারো জন ফুটবলারের বেতন বকেয়ো থাকায় এএফসি ক্লাব লাইসেন্সিং পরীক্ষায় পাশ করতে পারেনি এসসি ইস্টবেঙ্গল। চূড়ান্ত চুক্তিপত্র স্বাক্ষরিত না হওয়ায় প্রায় সাত কোটি টাকা বকেয়া মেটাতে রাজি নয় লাল-হলুদের লগ্নিকারী সংস্থা। এই পরিস্থিতিতে সর্বভারতীয় ফুটবল ফেডারেশনের কাছে সময় চাওয়ার ভাবনা রয়েছে এসসি ইস্টবেঙ্গল কর্তৃপক্ষের। এদিন শ্রী সিমেন্ট কর্তারা বিভিন্ন জায়গায় জানিয়েছেন, বেশ কিছু ফুটবলারের বেতন মিটিয়ে দেওয়া হয়েছে। যদিও তা সরকারিভাবে ওয়েবসাইটে আপলোড করা হয়নি। একই সঙ্গে লাল-হলুদ কর্তারা জানিয়েছেন, নির্দিষ্ট সময়ের মধ্যেই ফুটবলারদের বেতন প্রায় সাত কোটি টাকা মিটিয়ে দেবেন তাঁরা। আর লাইসেন্স কমিটির সদস‌্যরা মিটিংয়ে বসে যদি দেখেন, বেতন মেটানোর কাগজপত্র ঠিক সময়ে জমা দেয়নি এসসি ইস্টবেঙ্গল, তাহলে এই মরশুমে আইএসএলে  লাল-হলুদের ভবিষ‌্যৎ প্রশ্নের মুখে পড়তে চলেছে।

ক্লাব লাইসেন্সিংয়ের জন্য লাল-হলুদের লগ্নিকারী সংস্থা তরফে ফেডারশনকে মুচলেকা দিয়ে যাবতীয় আর্থিক দায় নেওয়ার প্রতিশ্রুতি দেওয়া হয়েছিল। প্রশ্ন উঠছে, তা হলে কেন ১২ জন ফুটবলারের বকেয়া মেটানো হয়নি? লগ্নিকারী সংস্থার কর্তারা বলছেন, ‘সংযুক্তিকরণের পরে ফুটবলারদের যা বকেয়া ছিল তা সব মিটিয়ে দেওয়া হয়েছে। কিন্তু এই সাত কোটি টাকা তার আগের বকেয়া। প্রাথমিক চুক্তি অনুযায়ী ক্লাবেরই সব দায় মেটানোর কথা। এই কারণেই ফেডারেশনকে চিঠি দিয়ে আমরা সময় চাইব।’ এখানেই শেষ নয়। ক্লাব কর্তাদের কাছেও তাঁরা জানতে চাইবেন, কত দিনের মধ্যে বকেয়া মিটিয়ে দেওয়া হবে। 

বন্ধ করুন