বাংলা নিউজ > ময়দান > ফুটবল > ‘গো ব্যাক নীতু’ স্লোগানে গর্জে উঠল লালহলুদ, ক্লাবের গেট থেকে সোশ্যাল মিডিয়া, প্রতিবাদের ঝড় ইস্টবেঙ্গলে
ইস্টবেঙ্গল ক্লাবের গেটের সামনে প্রতিবাদের ভাষা(ছবি:ফেসবুক)
ইস্টবেঙ্গল ক্লাবের গেটের সামনে প্রতিবাদের ভাষা(ছবি:ফেসবুক)

‘গো ব্যাক নীতু’ স্লোগানে গর্জে উঠল লালহলুদ, ক্লাবের গেট থেকে সোশ্যাল মিডিয়া, প্রতিবাদের ঝড় ইস্টবেঙ্গলে

ইস্টবেঙ্গল কর্তাদের বিরুদ্ধে গর্জে উঠলেন সমর্থকেরা, ক্লাবের গেটে পড়ল প্রতিবাদী পোস্টার-ব্যানার।

রবিবার সকাল থেকেই গর্জে উঠল লালহলুদের সমর্থকেরা। লাল হলুদ ক্লাব তাঁবুর গেট থেকে সোশ্যাল মিডিয়ার ওয়াল সর্বত্রই প্রতিবাদের ঝড় উঠল। প্রিয় ক্লাবের গেটের সামনে ইস্টবেঙ্গলের কর্তাদের বিরুদ্ধে গো ব্যাকের স্লোগান উঠল। কালো রঙ দিয়ে ক্লাবের প্রধান গেটের সামনে লেখা হল এই স্লোগান। শুধু স্লোগান নয়, ক্লাবের গেটের সামনে লাগান হল প্রতিবাদী পোস্টার-ব্যানার। বিশেষ করে ক্লাবের শীর্ষকর্তা নীতু সরকারের বিরুদ্ধে স্লোগান দেওয়া হল। শুধু ক্লাবের গেটেই নয়, সোশ্যাল মিডিয়ার ওয়ালেও প্রতিবাদ দেখা দিল। লাল হলুদের অন্যতম সমর্থক সংগঠনের তরফ থেকে সোশ্যাল মিডিয়াতে প্রতিবাদের ঝড় তোলা হয়েছে। সেখানে তারা নিজেদের ওয়ালে আজকের ক্লাবের গেটের কিছু ছবি পোস্ট করার পাশাপাশি নিজেদের বক্তব্যও জানিয়েছে।

ইবিআরপি-র তরফ থেকে লেখা হয়েছে, ‘অনেক সহ্য করেছে সমর্থকরা কিন্তু আর নয়। এইবার ক্লাব পুনরুদ্ধারের সময়। আজকে ব্যানার ফেলা দিয়ে প্রতিবাদ শুরু হলো, শেষ হবে আগামী ২১ তারিখ ক্লাবের সামনে প্রতিবাদ জমায়েত সংগঠিত করে। আর এই প্রতিবাদ ইস্টবেঙ্গল জনতা ছাড়া সম্ভব নয়।’ তাদের তরফ থেকে আরও লেখা হয়, ‘তাই সমস্ত ইস্টবেঙ্গল সমকর্থকদের সেদিন ক্লাবের সামনে প্রতিবাদে অংশগ্রহণ করতে আহবান করা হচ্ছে। আমাদের জমায়েত যত বেশি হবে, ওদের নোংরামি তত কম। তাহলে দেখা হচ্ছে ২১ তারিখ, ইস্টবেঙ্গল জনতার বুঝিয়ে দেওয়ার সময় চলে এসেছে যে ক্লাব টা আমার,ক্লাবটা তোমার, ক্লাবটা কারোর বাবার নয়।’

দু’দিন আগেই, শুক্রবার কর্মসমিতির বৈঠকের পর লাল-হলুদ কর্তাদের তরফে জানিয়ে দেওয়া হয়েছিল যে তাঁরা কোনও ভাবেই চুক্তিপত্রে সই করবেন না। এর কারণ হিসেবে তাঁরা দাবি করেছেন, সভ্য, সমর্থকদরে স্বার্থক্ষুন্ন হয়, এমন কোনও চুক্তি তাঁরা মানবেন না। ইস্টবেঙ্গল ক্লাবের কর্মসমিতির সদস্যদের নিয়ে শুক্রবার ক্লাবে তাঁবুতেই রুদ্ধদ্বার বৈঠক হয়েছিল। আর সেই বৈঠকের পরেই প্রেস বিজ্ঞপ্তি জারি করে লাল-হলুদের তরফে জানিয়ে দেওয়া হয়, শ্রী সিমেন্টের অনৈতিক শর্ত মেনে নিয়ে, কোনও ভাবেই চুক্তিতে সই করবে না ইস্টবেঙ্গল। এই সিদ্ধান্ত যে লাল হলুদ সমর্থকেরা মানেন না সেটা তারা এদিন তাদের প্রতিবাদের মাধ্যমে জানিয়েদিল। এখন দেখার ২১ তারিখ কী হয়।

বন্ধ করুন