বাংলা নিউজ > ময়দান > ফুটবল > মার্কাস রাশফোর্ড, জেডন স্যাঞ্চো এবং বুকায়ো সাকাদের পাশে দাঁড়ালেন উসেইন বোল্ট
উসেইন বোল্ট এবার বর্ণবিদ্বেষমূলক মন্তব্যের বিরুদ্ধে গলা তুললেন (ছবি:রয়টার্স) (REUTERS)
উসেইন বোল্ট এবার বর্ণবিদ্বেষমূলক মন্তব্যের বিরুদ্ধে গলা তুললেন (ছবি:রয়টার্স) (REUTERS)

মার্কাস রাশফোর্ড, জেডন স্যাঞ্চো এবং বুকায়ো সাকাদের পাশে দাঁড়ালেন উসেইন বোল্ট

মার্কাস রাশফোর্ড, জেডন স্যাঞ্চো এবং বুকায়ো সাকাদের পাশে দাঁড়ালেন উসেইন বোল্ট। 

এবার ইংল্যান্ডের বর্ণবিদ্বেষমূলক মন্তব্য নিয়ে সরব হলেন উসেইন বোল্ট। ৫৫ বছর পর ইউরো ফাইনালে পৌঁছেও ইংল্যান্ডের প্রথম খেতাব জয় অধরাই রয়ে গিয়েছে। ইউরো ফাইনালে পেনাল্টি মিস করেছিলেন মার্কাস রাশফোর্ড, জেডন স্যাঞ্চো এবং বুকায়ো সাকা। এরপরেই রাশফোর্ডদের উদ্দেশ্যে বর্ণবাদী মন্তব্য উড়ে আসতে থাকে। যা ঘিরে উত্তাল হয়ে ওঠে গোটা ইংল্যান্ড। কয়েকদিন আগেই অলি রবিনসনকে ইংল্যান্ড ক্রিকেট বোর্ড শাস্তি দিয়েছিল। তাঁর বিরুদ্ধে বর্ণবিদ্বেষ ও লিঙ্গ বৈষম্যমূলক মন্ব্য করার অভিযোগ আনা হয়েছিল। এই বিতর্কের জেরে ক্রিকেট থেকে নির্বাসিতও করা হয়েছিল ব্রিটিশ ক্রিকেটার অলি রবিনসনকে। বারবার ইংল্যান্ডে মাটিতে এই বর্ণবিদ্বেষ মন্তব্যের বিতর্ক উঠে আসায় বিরক্ত উসেইন বোল্ট।

ইংল্যান্ডের ত্রয়ীর বিরুদ্ধে বর্ণবাদী নির্যাতনের ঘটনাটিকে ‘ভয়াবহ’ এবং ‘অন্যায়’ বলে বর্ণনা করেছেন উসেইন বোল্ট। আটবারের অলিম্পিক চ্যাম্পিয়ন উসেইন বোল্ট রয়টার্সকে বলেছেন যে রবিবার ইউরো ২০২০ ফাইনালে ইতালির কাছে পেনাল্টি শ্যুটআউট পরাজয়ের পর ইংল্যান্ডের তিন খেলোয়াড়কে অনলাইনে নির্যাতনের শিকার হতে হয়েছে। যেটা তিনি কখনই মানতে পারছেন না। বোল্ট জানান ফুটবল বা সমাজের অন্য কোথাও বর্ণবাদের কোনও স্থান নেই। 

২০০৮ থেকে ২০১৬ সাল পর্যন্ত টানা তিনটি অলিম্পিক্সে ১০০ মিটার এবং ২০০ মিটারের জয়ী বোল্ট জানিয়েছেন খেলোয়াড়দের উদ্দেশ্যে বর্ণবিদ্বেষ নির্যাতন করা সত্যি ভয়াবহ। তিনি বলেছেন, ‘প্রথমত সবটা জানতে পেরে আমি ভয় পেয়েছিলাম… আমার পক্ষে এই বিষয়গুলি মেনে নেওয়া খুব কঠিন কাজ। একজন আফ্রিকান এবং কৃষ্ণাঙ্গ ব্যক্তি হিসাবে, আমি বলতে পারি এটি অবশ্যই তাদের সঙ্গে এটা হওয়া উচিত নয় এবং আপনারা এই ছেলেগুলিকে দোষ দিতে পারেন না,  কারণ পেনাল্টি নিতে যাওয়ার সিদ্ধান্ত তারা নেয় নি।’

ব্রিটিশদের পরাজয়ের পরে ইংল্যান্ডের ত্রয়ী মার্কাস রাশফোর্ড, স্যাঞ্চো এবং বুকায়ো সাকাকে যেভাবে সোশ্যাল মিডিয়াতে আক্রমণ করা হচ্ছে তা মানতে পারছেন না বোল্ট। তাঁর মতে খেলায় হার জিত আছে তবে এর জন্য ব্যাক্তিগত আক্রমণ করা উচিত নয়।

বন্ধ করুন