বাংলা নিউজ > ময়দান > ফুটবলের মহারণ > ‘এই ম্যাচটা আমাদেরই জেতা উচিত ছিল, তবে পরেরগুলোয় জয়ে ফিরবেই টিম,’ দাবি রিভেরার

‘এই ম্যাচটা আমাদেরই জেতা উচিত ছিল, তবে পরেরগুলোয় জয়ে ফিরবেই টিম,’ দাবি রিভেরার

মারিয়ো রিভেরা।

ম্যাচ শুরু হওয়ার পর ১৫ মিনিটের মধ্যেই ০-২ পিছয়ে পড়েছিল লাল-হলুদ বাহিনী। সেখান থেকে দ্বিতীয়ার্ধে তারা ঘুরে দাঁড়ায়। প্রথমে সিডোয়েল ১-২ করেন। এর পর ইনজুরি টাইমে নামতের গোলে ২-২ ম্যাচ ড্র করে এসসি ইস্টবেঙ্গল। বেশ কিছু সুযোগ নষ্ট করেছে লাল-হলুদ ব্রিগেড। তা না হলে হয়তো ম্যাচের ফল অন্য রকম হতে পারত।

ডার্বি সহ পরপর দুই ম্যাচে বিশ্রি ভাবে হারের পর বুধবার অসাধারণ লড়াই করল মারিয়ো রিভেরার টিম। হায়দরাবাদের কাছে ৪-০ হারের পর, ডার্বিতে এটিকে মোহনবাগানের কাছে ৩-১ গোলে হারতে হয়েছিল এসসি ইস্টবেঙ্গলকে। বুধবার চেন্নাইয়িন এফসি-র বিরুদ্ধে প্রথমার্ধে ০-২ পিছিয়ে পড়ে তারা দ্বিতীয়ার্ধে ২-২ ম্যাচ ড্র করে। ম্যাচ শুরু হওয়ার পর ১৫ মিনিটের মধ্যেই ০-২ পিছয়ে পড়েছিল লাল-হলুদ বাহিনী। সেখান থেকে দ্বিতীয়ার্ধে তারা ঘুরে দাঁড়ায়। প্রথমে সিডোয়েল ১-২ করেন। এর পর ইনজুরি টাইমে নামতের গোলে ২-২ ম্যাচ ড্র করে এসসি ইস্টবেঙ্গল। বেশ কিছু সুযোগ নষ্ট করেছে লাল-হলুদ ব্রিগেড। তা না হলে হয়তো ম্যাচের ফল অন্য রকম হতে পারত।

তবে এসসি ইস্টবেঙ্গলের স্প্যানিশ কোচ মারিয়ো রিভেরা মনে করেন, এই ম্যাচটা জিততে পারত তারা। কিন্তু জিততে না পারার জন্য রীতিমতো হতাশ তিনি। ম্যাচের পরে সাংবাদিকদের কী বললেন লাল-হলুদের কোচ? জেনে নেওয়া যাক।

ম্যাচটা কি জেতা উচিত ছিল?

একেবারেই ঠিক ফল হয়নি। আমাদের স্পষ্ট জেতা ম্যাচ ছিল এটা।

দ্বিতীয়ার্ধে এসসি ইস্টবেঙ্গল অনেক ভালো ফুটবল খেলেছে!

দ্বিতীয়ার্ধে তো একটা দলই খেলল, এসসি ইস্টবেঙ্গল। ছেলেরা সবটুকু উজাড় করে দেয়। গতিময় ফুটবল খেলি আমরা। প্রচুর সুযোগও তৈরি করেছি আমরা। আমাদেরই ম্যাচটা জেতা উচিত ছিল।

সিডোয়েল ও নামতের গোলে ড্র হল ম্যাচ। মাঝমাঠই কি দলের সবচেয়ে শক্তিশালী জায়গা?

হতে পারে। তবে আমাদের দলের সব বিভাগই ভাল। সে রক্ষণ বলুন বা মাঝমাঠ বা আক্রমণ। নামতের জন্য আমি খুশি। ডার্বিতেও ও খুব ভাল একটা সুযোগ পেয়েছিল। তাই কিছুটা মনমরা ছিল। কিন্তু ছেলেটা খুব ভাল। সব সময় নিজের খেলায় উন্নতি করার জন্য মরিয়া। আমি খুশি যে দ্বিতীয় গোলটা ও পেয়েছে। ড্যারেনের গোলটাও দারুণ। অনেকে ওর প্রতিভা নিয়ে অনেক প্রশ্ন তুলেছিল। কিন্তু ও আজ দেখিয়ে দিল কত বড় মাপের ফুটবলার ও। আমিও জানতাম ও ফ্রি কিকে ভাল গোল করতে পারে। কারণ, ওকে আমি এ রকম গোল করতে দেখেছি। ও আয়াক্সে খেলে আসা ফুটবলার। ওর জন্যও আমি খুশি।

হীরা মণ্ডলের দু'টো ভুলের জন্যই দু'টো গোল খেতে হয়েছে এসসি ইস্টবেঙ্গলকে। কী বলবেন?

ও ভাল খেলোয়াড়। তবে ওকে কিছু জিনিস এখনও শিখতে হবে। বিশেষ করে বল ক্লিয়ার করার সময়ের কিছু ব্যাপার। তবে ছেলেটা খুবই ভাল। শেখার প্রবল আগ্রহ আছে। ও শিখেও যাবে। আমার মনে হয় ও ভারতীয় ফুটবলের ভবিষ্যৎ।

আপনার কি মনে হয় এই দল লিগ টেবলে আরও ওপরে উঠতে পারে?

আমরা ডার্বিতেও জেতার জায়গায় চলে এসেছিলাম এবং এই ম্যাচটা তো আমাদেরই জেতার কথা ছিল। সুতরাং, আমার বিশ্বাস পরের ম্যাচগুলোতে আমরা জয়ে ফিরবই।

বন্ধ করুন