বাংলা নিউজ > ময়দান > Justin Langer attacks Australian players: 'সূত্র নয়, ভীতু ওরা', দলের খবর 'ফাঁস' হওয়ায় আক্রমণ ল্যাঙ্গারের, তোপ কামিন্সকেও

Justin Langer attacks Australian players: 'সূত্র নয়, ভীতু ওরা', দলের খবর 'ফাঁস' হওয়ায় আক্রমণ ল্যাঙ্গারের, তোপ কামিন্সকেও

প্যাট কামিন্স এবং জাস্টিন ল্যাঙ্গার। (ফাইল ছবি, সৌজন্যে গেটি ইমেজস ও ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়া/গেটি ইমেজস)

Justin Langer attacks Australian players: খেলোয়াড়রা কীভাবে ভাবছেন, তা স্পষ্টভাবে বলার জন্য অস্ট্রেলিয়ার পুরুষ দলের প্রাক্তন অধিনায়ক টিম পেইনের প্রশংসা করেন জাস্টিন ল্যাঙ্গার। তবে প্যাট কামিন্স এবং অ্যারন ফিঞ্চদের মতো খেলোয়াড়দের বিরুদ্ধে তোপ দাগেন।

অস্ট্রেলিয়ার কোচিংয়ের পদ থেকে বরখাস্ত হওয়ার বিষয় নিয়ে তুমুল আক্রমণ শানিয়েছিলেন জাস্টিন ল্যাঙ্গার। অস্ট্রেলিয়ার কয়েকজন খেলোয়াড়ের বিরুদ্ধেও অসন্তোষ প্রকাশ করছিলেন। তা নিয়ে পালটা মুখ খুলল ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়া (সিএ)। দলের খেলোয়াড়দের পাশে দাঁড়িয়ে প্রাক্তন কোচের যাবতীয় অভিযোগ খারিজ করে দিল ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়া।

গত ফেব্রুয়ারিতে অস্ট্রেলিয়ার কোচের পদ থেকে ল্যাঙ্গারকে সরিয়ে দেওয়া হয়েছিল। ল্যাঙ্গার দাবি করেন, অধিকাংশ খেলোয়াড় তাঁর পক্ষেই ছিলেন। তাঁর 'কঠোর' স্বভাব নিয়ে যে 'সূত্র' তথ্য 'ফাঁস' করে দিয়েছিলেন, তাঁকে 'ভীতু' বলেও আক্রমণ শানান ল্যাঙ্গার। খেলোয়াড়রা কীভাবে ভাবছেন, তা স্পষ্টভাবে বলার জন্য ব্যাক চ্যাট পডকাস্টে অস্ট্রেলিয়ার পুরুষ দলের প্রাক্তন অধিনায়ক টিম পেইনের প্রশংসা করেন ল্যাঙ্গার। তবে প্যাট কামিন্স এবং অ্যারন ফিঞ্চদের মতো খেলোয়াড়দের বিরুদ্ধে তোপ দাগেন।

ল্যাঙ্গার বলেন, 'আমি প্যাট কামিন্সের সঙ্গে কথা বলেছি। ও আমায় প্রায় পাঁচবার বলেছে যে এটাই নির্মম সত্যি। আমি বলেছিলাম যে প্যাট, তোমার মতামতের ক্ষেত্রে কোনও নির্মমতা নেই। সংবাদমাধ্যম বা সূত্রের মাধ্যমে আমার পিঠের পিছনে যে সব কথা শুনতে পাচ্ছি, সেটা নির্মম।' তিনি আরও বলেন, 'কেউ আমায় কিছু বলছিল না। আমায় বলতে পারত। লোকজন বলে আমি খুব কঠোর কোচ। কিন্তু আপনারা সততার সঙ্গে কাঠিন্যেকে গুলিয়ে ফেলছেন।'

আরও পড়ুন: ল্যাঙ্গারের ঘটনায় মন ভেঙেছে, সে কারণেই কি অস্ট্রেলিয়ার কোচ হতে চান না তারকা ক্রিকেটার!

প্রাক্তন অজি কোচের দাবি, তিনি মোটেও রাগী কোচ ছিলেন না। বরং হারের পর তাঁর নীরবতার ভুল ব্যাখ্যা করেছিলেন খেলোয়াড়রা। তাঁর বিরুদ্ধে খেলোয়াড়রা মোটেও একজোট হননি বলে দাবি করেছেন ল্যাঙ্গার। প্রাক্তন অজি কোচের দাবি, কয়েকজনের বিক্ষিপ্ত কণ্ঠস্বর ছাড়া কেউ তাঁর বিরুদ্ধে অসন্তোষ প্রকাশ করেননি। বিশেষত অ্যাসেজ এবং টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ জয়ের (২০২১ সালের বিশ্বকাপ দয়) পর আরও ছয় মাস তাঁকে দায়িত্বে রাখা উচিত ছিল।

আরও পড়ুন: একেবারে সহমত নই, ল্যাঙ্গার বিদায়ী কাণ্ডে জনসন তাঁকে ‘কাপুরুষ’ বলায় গর্জে উঠলেন অজি অধিনায়ক কামিন্স

যদিও ল্যাঙ্গারের সেই অভিযোগের প্রেক্ষিতে পালটা তোপ দেগেছেন ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়ার নিক হকলে। তিনি দাবি করেছেন, ল্যাঙ্গার যে উলটো-পালটা তথ্য দিচ্ছেন, তা শুধরে দিতেই আট মাসের নীরবতা ভেঙেছেন। অজি বোর্ডের সিইওয়ের দাবি, ল্যাঙ্গার যতদিন কোচ ছিলেন, ততদিন তাঁকে নিয়মিতভাবে জানানো হত যে বাকিরা কী ভাবছেন, তাঁর কোচিং ধরনকে কীভাবে দেখছেন। স্বল্পমেয়াদের জন্য তাঁর চুক্তিও বাড়ানো হয়েছিল। যদিও তাতে রাজি হননি ল্যাঙ্গার। যিনি ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিরুদ্ধে টেস্ট সিরিজের সময় ধারাভাষ্য দেবেন।

বন্ধ করুন