বাংলা নিউজ > ময়দান > প্রয়াত প্রাক্তন ইস্টবেঙ্গল অধিনায়ক কার্লটন চ্যাপম্যান
কার্লটন চ্যাপম্যান। ছবি- সোশ্যাল মিডিয়া।
কার্লটন চ্যাপম্যান। ছবি- সোশ্যাল মিডিয়া।

প্রয়াত প্রাক্তন ইস্টবেঙ্গল অধিনায়ক কার্লটন চ্যাপম্যান

  • জাতীয় দলের প্রাক্তন মিডফিল্ডারের মৃত্যুকালে বয়স হয়েছিল ৪৯ বছর।

শুভব্রত মুখার্জি

২০২০ সালটা ক্রমশ খারাপ থেকে খারাপতর হচ্ছে। একের পর এক দুঃসংবাদ যেন লেগেই রয়েছে। সোমবার দিনের শুরুতেই দুঃসংবাদ এল ফুটবলপ্রেমীদের জন্য ৷ শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করলেন প্রাক্তন ভারতীয় ফুটবলার কার্লটন চ্যাপম্যান। একটা সময় ইস্টবেঙ্গল, জেসিটির মতো ক্লাবকে তিনি এনে দিয়েছেন একাধিক সম্মান।

মাত্র ৪৯ বছর বয়সেই অকাল প্রয়াণ ঘটল প্রাক্তন ভারতীয় মিডফিল্ডারের৷ ৯০-এর দশকে আনচেরি, বিজয়ন, বাইচুংদের সাথে মাঠ কাঁপিয়েছেন তিনি। ২০০১ তিনি অবসর নেন খেলা থেকে। খেলা ছাড়ার পর কোচিংও করিয়েছেন চ্যাপম্যান৷ সোমবার বেঙ্গালুরুতে প্রয়াত হলেন তিনি৷ প্রসঙ্গত, ১৯৯১- ২০০১ সাল পর্যন্ত ভারতীয় জাতীয় ফুটবল দলের নিয়মিত সদস্য ছিলেন তিনি।

২০০২ সাল থেকে তাঁর কোচিং কেরিয়ার শুরু হয় টাটা ফুটবল অ্যাকাডেমিতে। এছাড়াও রয়্যাল রেঞ্জার্স, রয়্যাল ওয়াহিংডো, ভবানীপুর এফসি, স্টুডেন্টস ইউনিয়ন, কোয়ার্টজ এফসির মতো একাধিক ক্লাব এবং অ্যাকাডেমিতে কোচিং করিয়েছেন চ্যাপম্যান৷ ইস্টবেঙ্গলের হয়ে ১৯৯৩-তে এশিয়ান কাপ উইনার্স কাপে ইরাকের ক্লাব আল-জাওয়ারার বিরুদ্ধে হ্যাটট্রিকও করেছিলেন তিনি।

লাল-হলুদ শিবির ছাড়ার পরে জেসিটি ও কোচিনে খেলেন চ্যাপম্যান ৷ ১৯৯৮-তে প্রত্যাবর্তন ঘটে ইস্টবেঙ্গলে। তাঁর অধিনায়কত্বেই ইস্টবেঙ্গল ২০০১ সালে জাতীয় লিগ চ্যাম্পিয়ন হয়। ভোর তিনটে নাগাদ তাঁর কোমরে ব্যথা হওয়ার ফলে বেঙ্গালুরুর একটি হাসপাতালে নিয়ে যাওয়ার পরে ভোর পাঁচটার সময় মৃত্যু হয় কার্লটনের।

বন্ধ করুন