বাংলা নিউজ > ময়দান > বিশ্বকাপে হেরে প্রাণনাশের হুমকি পেয়েছিলেন, ভয়াবহ অভিজ্ঞতার কথা জানালেন ডু'প্লেসি
ফ্যাফ ডু'প্লেসি। ছবি- রয়টার্স।
ফ্যাফ ডু'প্লেসি। ছবি- রয়টার্স।

বিশ্বকাপে হেরে প্রাণনাশের হুমকি পেয়েছিলেন, ভয়াবহ অভিজ্ঞতার কথা জানালেন ডু'প্লেসি

  • ২০১১ বিশ্বকাপে নিউজিল্যান্ডের বিরুদ্ধে তৃতীয় কোয়ার্টার ফাইনালে মাত্র ২২২ রান তাড়া করতে নেমেও ১৭২ রানেই গুটিয়ে যায় প্রোটিয়া ইনিংস।

শক্তিশালী দল হওয়া সত্ত্বেও বিশ্বকাপে দক্ষিণ আফ্রিকার ব্যর্থতা নতুন কিছু নয়। বড় মঞ্চে ব্যর্থতার ফলেই ‘চোকার্স’ তকমা জোটে প্রোটিয়া দলের ভাগ্যে। তবে ২০১১ সালে বিশ্বকাপে হেরে ফ্যাফ ডু'প্লেসি ও তাঁর স্ত্রী প্রাণনাশের হুমকিও পেয়েছিলেন। সেই ভয়াবহ অভিজ্ঞতাই পাল্টে দিয়েছিল প্রাক্তন প্রোটিয়া অধিনায়ককে।

২০১১ বিশ্বকাপে নিউজিল্যান্ডের বিরুদ্ধে তৃতীয় কোয়ার্টার ফাইনালে মাত্র ২২২ রান তাড়া করতে নেমেও ১৭২ রানেই গুটিয়ে যায় প্রোটিয়া ইনিংস। কাজে লাগেনি ডু'প্লেসির ৩৬ রানও। এরপরেই সোশ্যাল মিডিয়ায় প্রণনাশের হুমকি পান ডু'প্লেসি ও তাঁর স্ত্রী।

সেই অভিজ্ঞতার কথা জানিয়ে ইএসপিএন ক্রিকইনফোকে সাম্প্রতিক এক সাক্ষাৎকারে তিনি জানান, ‘আমি এবং আমার স্ত্রী দুইজনেই ওই ম্যাচের পর (২০১১ কোয়ার্টার ফাইনাল) প্রাণনাশের হুমকি পাই। আমরা সোশ্যাল মিডিয়ায় অন হয়ে অবাক হয়ে যাই এবং এক সময় পরে সেই মন্তব্যগুলো অত্যন্ত ব্যক্তিগত পর্যায়ে চলে আসে। এইসব ঘটনা আপনাকে ভীষণ অন্তর্মূখী করে দেয়। প্রায় সব খেলোয়াড়কেই এই রকম ঘটনার সম্মুখীন হতে হয়, যার ফলে আমরা আমাদের পরিসর খুব ছোট রাখতে বাধ্য হই। এই কারণেই আমি আমার দলের মধ্যে সবসময় একটা সুরক্ষিত পরিবেশ বজায় রাখতে সচেষ্ট থাকি।’

বন্ধ করুন