বাংলা নিউজ > ময়দান > পরপর দু'ম্যাচে সেঞ্চুরি, আন্তর্জাতিক T20 ক্রিকেটে ফের বিশ্বরেকর্ড গড়লেন গুস্তভ
ফের সেঞ্চুরি গুস্তভের। ছবি- ফরাসি ক্রিকেট সংস্থা।

পরপর দু'ম্যাচে সেঞ্চুরি, আন্তর্জাতিক T20 ক্রিকেটে ফের বিশ্বরেকর্ড গড়লেন গুস্তভ

  • ৩ ম্যাচে মাঠে নেমে তিনটি বিশ্বরেকর্ড, আন্তর্জাতিক T20 ক্রিকেটের ইতিহাসে এমন সব নজির বিশ্বের আর কোনও ক্রিকেটারের নেই।

সুইজারল্যান্ডের বিরুদ্ধে আগের ম্যাচেই সব থেকে কম বয়সে আন্তর্জাতিক টি-২০ ক্রিকেটে সেঞ্চুরি করে বিশ্বরেকর্ড গড়েন ফ্রান্সের গুস্তভ ম্যাককেয়ন। সেই রেশ কাটতে না কাটতে ফের একটি বিশ্বরেকর্ড গড়লেন ১৮ বছর বয়সী ফরাসি ক্রিকেটার। বরং বলা ভালো যে, তিনটি ম্যাচে মাঠে নেমে অন্তত তিনটি বিশ্বরেকর্ড নিজের দখলে করেন গুস্তভ। 

এবার নরওয়ের বিরুদ্ধে ব্যাট করতে নেমে ফের সেঞ্চুরি করলেন গুস্তভ। অর্থাৎ, টি-২০ ওয়ার্ল্ড কাপ সাব-রিজিওনাল ইউরোপীয়ান কোয়ালিফায়ারের পরপর ২টি ম্যাচে সেঞ্চুরি করলেন ম্যাককেয়ন। আন্তর্জাতিক টি-২০ ক্রিকেটে গুস্তভই একমাত্র ক্রিকেটার, যিনি পরপর ২টি ম্যাচে শতরান করার নজির গড়লেন। বিশ্বের আর কোনও ক্রিকেটারের এমন কৃতিত্ব নেই।

আরও উল্লেখযোগ্য বিষয় হল, টি-২০ কেরিয়ারের প্রথম ৩টি ইনিংসে গুস্তভের ব্যক্তিগত সংগ্রহ সাকুল্যে ২৮৬ রান। তিনি চেক প্রজাতন্ত্রের বিরুদ্ধে অভিষেক ম্যাচে ৫৪ বলে ৭৬ রান করেন। পরে সুইসদের বিরুদ্ধে ৬১ বলে ১০৯ রান করেন গুস্তভ। এবার নরওয়ের বিরুদ্ধে ৫টি চার ও ৮টি ছক্কার সাহায্যে ৫৩ বলে ১০১ রান করে মাঠ ছাড়েন ম্যাককেয়ন।

আরও পড়ুন:- ক্রিকেটের ময়দানে বিশ্বরেকর্ড গড়লেন ফুটবলের বিশ্বচ্যাম্পিয়ন ফ্রান্সের খেলোয়াড়

কেরিয়ার প্রথম তিনটি আন্তর্জাতিক টি-২০ ইনিংসে গুস্তভের থেকে বেশি রান আর কেউ করেননি। তিনি ভেঙে দেন পর্তুগালের আজহার আনদানির রেকর্ড। আনদানি কেরিয়ারের প্রথম ৩টি আন্তর্জাতিক টি-২০ ম্যাচে ২২৭ রান করেছিলেন।

কেরিয়ারের যে কোনও পর্যায়ে টানা ৩টি আন্তর্জাতিক টি-২০ ইনিংসের নিরিখে গুস্তভের থেকে বেশি রান করেছেন কেবল অস্ট্রেলিয়া অধিনায়ক অ্যারন ফিঞ্চ। তিনি ২০১৮ সালে ইংল্যান্ড, পাকিস্তান ও জিম্বাবোয়ের বিরুদ্ধে পরপর তিনটি ইনিংসে যথাক্রমে ৮৪, অপরাজিত ৬৮ ও ১৭২ রান করেন। সুতরাং, সেই তিনটি ইনিংসে তিনি সাকুল্যে ৩২৪ রান সংগ্রহ করেছিলেন।

নরওয়ের বিরুদ্ধে প্রথমে ব্যাট করে ফ্রান্স ৭ উইকেটে ১৫৮ রান সংগ্রহ করে। গুস্তভের শতরান ছাড়া দু'অঙ্কের রান করেছেন কেবল নোমান আমজাদ (১০), লিঙ্গেশ্বরন (১৫) ও রহমতউল্লাহ (১৪)। ২টি করে উইকেট নেন আহমেদউল্লাহ শিনওয়ারি, উসমান আরিফ ও কামার মুস্তাক।

আরও পড়ুন:- W,W,W,W,1,6: শেষ ওভারে দরকার ছিল ৭ রান, পরপর চার উইকেট হারিয়েও নাটকীয় জয় রোমার, ভিডিয়ো

জবাবে ব্যাট করতে নেমে নরওয়ে ১৯.২ ওভারে ১৪৭ রানে অল-আউট হয়ে যায়। ১১ রানে ম্যাচ জেতে ফ্রান্স। কুরুগে ৪৫, আনসার ইকবাল ২৮, মহম্মদ বাট ২৪ ও উসমান আরিফ ২৬ রান করেন।

গুস্তভ শুধু এই ম্যাচে সেঞ্চুরিই করেননি, বরং বল হাতে ২৭ রানের বিনিময়ে ৩টি উইকেটও দখল করেন। এছাড়া ৩টি উইকেট নিয়েছেন নোমান। সঙ্গত কারণেই ম্যাচের সেরা হয়েছেন গুস্তভ।

বন্ধ করুন