বাংলা নিউজ > ময়দান > ভারতের পিচ নিয়ে 'হইচই' করা ইংরেজরা দেশের পিচে ঘাস রাখলে অবাক হবেন না গাভাস্কর
ধারাভাষ্যের সময় সুনীল গাভাস্কর (ছবি: গুগল)
ধারাভাষ্যের সময় সুনীল গাভাস্কর (ছবি: গুগল)

ভারতের পিচ নিয়ে 'হইচই' করা ইংরেজরা দেশের পিচে ঘাস রাখলে অবাক হবেন না গাভাস্কর

  • সুনীল গাভাস্কর মনে করেন ইংল্যান্ডের মাটিতে ভারতীয় ব্যাটসম্যানদের জন্য পিচে একটু বেশি মাত্রায় ঘাস রাখতে পারে সেখানকার কিউরেটররা।

শুভব্রত মুখার্জি: ২০২১ সালের গোড়ার দিকে ভারত বনাম ইংল্যান্ড টেস্ট সিরিজের মধ্যে দিয়ে করোনা পরবর্তীতে ভারতের মাটিতে ফিরেছিল আন্তর্জাতিক ক্রিকেট। সেই টেস্ট সিরিজে চেন্নাইয়ের মাটিতে প্রথম টেস্ট হারের পরে ঘুরে দাঁড়িয়েছিল ভারত। পরপর তিনটি টেস্ট জিতে অসাধারণ কামব্যাক করে সিরিজ জিতেছিল বিরাট বাহিনী। ৩-১ সিরিজ জিতে বিরাটরা বিভিন্ন মহল থেকে বিভিন্ন কথা ও সামলোচনা হজম করেছিলেন। বিশেষত প্রাক্তন ইংরেজ ক্রিকেটাররা ভারতের পিচের মান, চরিত্র নিয়ে প্রশ্ন তুলেছিলেন। মাইকেল ভনের মতন প্রাক্তন ইংল্যান্ড ক্রিকেটার দিনের শেষে পিচকে নিয়ে কটাক্ষ করতে একবারও পিছপা হননি। কখনও আবার চাঁচাছোলা ভাষাও ব্যবহার করেছিলেন।

সবকিছু বিতর্ককে পিছনে ফেলে আপাতত ভারতীয় জাতীয় দলের সামনের প্রথম লক্ষ্য বিশ্ব টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের ফাইনালের শিরোপা জয়। মাত্র সপ্তাহ তিনেক বাদেই শিরোপা জয়ের লড়াইয়ে বিরাটরা মুখোমুখি হবে নিউজিল্যান্ডের। আর তার আগেই কিংবদন্তি ক্রিকেটার সুনীল গাভাস্কর মনে করেন ইংল্যান্ডের মাটিতে ভারতীয় ব্যাটসম্যানদের জন্য পিচে একটু বেশি মাত্রায় ঘাস রাখতে পারে সেখানকার কিউরেটররা। 

এক সাক্ষাৎকারে সুনীল গাভাস্কর জানান, 'শেষবার ভারত সফরে এসে যেভাবে বারবার পিচ নিয়ে নানা বাহানা, অভিযোগ, অজুহাত দিতে শোনা গেছে ইংল্যান্ডকে তাতে ওদেশের মাটিতে পিচে ভারতীয় ব্যাটসম্যানদের জন্য বেশি ঘাস রাখা হলে আমি অবাক হব না। এতে ভারতীয়দের আশঙ্কার কোন কারণ নেই। ভারতের পেস বোলিং বিভাগ এখন বিশ্বের অন্যতম সেরা। তারা ওই পরিবেশকে কাজে লাগিয়ে উল্টে ইংরেজ ব্যাটসম্যানদের সমস্যায় ফেলে দেবে সেটাই আশা করা যায়।'

তিনি আরও বলেন ' ইংল্যান্ডের এই গ্রীষ্মটা ভারতীয় ক্রিকেটে স্মরণীয় গ্রীষ্ম হয়ে উঠতে চলেছে বলে আমার ধারণা। বিশ্ব টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের ফাইনালের পরে আরও ৬ সপ্তাহ ভারত সময় পাবে ইংল্যান্ড সিরিজ খেলার আগে। এই সময়টায় ভারতের উচিত বেশ কিছু অনুশীলন ম্যাচ খেলে বুঝে নেওয়া কোন কোন জায়গাতে ইংল্যান্ড তাদেরকে আঘাত দিতে পারে। এই মুহূর্তে দাড়িয়ে সিরিজের রেজাল্টের ব্যাপারে কোন মন্তব্য করা অত্যন্ত বোকামো হবে। তবে আমি মনে করি ইংল্যান্ডের এই গ্রীষ্মটা ভারতীয় ক্রিকেটের ইতিহাসে স্বর্ণাক্ষরে লেখা হতে চলেছে।'

বন্ধ করুন