আই লিগ চ্যাম্পিয়ন হওয়ার পর মোহনবাগানকে সংবর্ধনা (ফাইল ছবি, সৌজন্য পিটিআই)
আই লিগ চ্যাম্পিয়ন হওয়ার পর মোহনবাগানকে সংবর্ধনা (ফাইল ছবি, সৌজন্য পিটিআই)

I-League: ‘ভাগ্যিস চার ম্যাচ আগেই চ্যাম্পিয়ন হয়েছি’, স্বস্তির নিঃশ্বাস বাগানে

  • বাগান সমর্থকদের বক্তব্য, ভাগ্যিস আইজল ম্যাচে গোলটা করেছিলেন বাবা দিওয়ারা!

‘ভাগ্যিস চার ম্যাচ আগেই চ্যাম্পিয়ন হয়েছি’ – এশিয়ান ফুটবল কনফেডারেশনের (এএফসি) বার্তার পর এই কথাটাই বারবার বলছেন মোহনবাগান সমর্থকরা।

আরও পড়ুন : I-League: আই লিগের রং সবুজ-মেরুন, দেখুন উচ্ছ্বাসের মুহূর্ত

সোমবার সকাল পর্যন্ত অবশ্য তাঁদের মধ্যে ধোঁয়াশা ছিল। করোনাভাইরাসের প্রকোপে আই লিগ আদৌও শেষ করা যাবে কিনা, তা নিয়ে ধন্দে ছিলেন বাগান সমর্থকরা। আর যদি লিগ বাতিল হয়ে যায়, চ্যাম্পিয়ন হলেও কি গঙ্গাপারের ক্লাবের হাতে ট্রফি তুলে দেওয়া হবে না?

আরও পড়ুন : I-League: জয় টিমগেমের, আবারও ভারতসেরা মোহনবাগান!

তবে শুধু ভারতে নয়, ইউরোপের একাধিক জাতীয় লিগ নিয়ে জটিলতা তৈরি হয়েছে। সব লিগই বাতিল হয়ে যাওয়ার মতো পরিস্থিতি তৈরি হয়েছে। ফলে কোন দলকে চ্যাম্পিয়ন ঘোষণা করা হবে, তা নিয়ে ধন্দ রয়েছে। যেমন ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগে খেতাবি দৌড়ে অনেকটা এগিয়ে লিভারপুল। তবে এখনও পর্যন্ত অঙ্কের হিসেবে খেতাব জিততে পারেনি। ফলে ইংল্যান্ডের জাতীয় লিগ বাতিল হয়ে গেলেও লিভারপুলকে চ্যাম্পিয়ন ঘোষণা করা নিয়ে ধন্দ রয়েছে। একই অবস্থা স্কটিশ প্রিমিয়ার লিগে। তাই ইতিমধ্যে বাগান চ্যাম্পিয়ন হয়ে গেলেও সংশয়ে ছিলেন বাগান সমর্থকরা।

আরও পড়ুন : I-League: পয়লা এপ্রিলের আগে নয় ডার্বি

তবে সন্ধ্যার দিকে এএফসির বার্তা আসার পরই পরিষ্কার হয়ে যায় ছবিটা। লিগ বাতিল হয়ে গেলেও জোসেবা বেইতিয়াদেরই চ্যাম্পিয়ন ঘোষণা করা হবে জানায় এএফসি। সর্বভারতীয় ফুটবল ফেডারেশনকে (এআইএফএফ) পাঠানো চিঠিতে এএফসির সচিব দাতো উইন্ডসর লেখেন, ভারতের (এই) মরশুমের ট্রফি জেতার জন্য এএফসির তরফে আমি মোহনবাগান, এটিকে ও এফসি গোয়াকে অভিনন্দন জানাচ্ছি। একইসঙ্গে পরের মরশুমে এশিয়ার ক্লাব প্রতিযোগিতাতেও তিনটি দলকে স্বাগত জানিয়েছেন এএফসি সচিব।

আরও পড়ুন : I-League:'জয় মোহনবাগান', সবুজ-মেরুনের আই লিগ জয়ের পর অভিনন্দন সনির

এশিয়ার সর্বোচ্চ নিয়ামক সংস্থার সেই বার্তার পর বাগান ক্লাব তাঁবুতে আলোর রোশনাই। উচ্ছ্বসিত কোচ-ফুটবলাররা। উল্লাসে ফেটে পড়েন বাগান সমর্থকরাও। আর সবার মুখে একটাই কথা- ভাগ্যিস আইজল ম্যাচে গোলটা করেছিলেন বাবা দিওয়ারা!

বন্ধ করুন