বাংলা নিউজ > ময়দান > টি২০ বিশ্বকাপ > T20 World Cup Final 2022: যাঁরা টিভিতে বসে সমালোচনা করেছেন, তাঁরাও জয়টা উপভোগ করুন-নিন্দুকদের খোঁচা বাবরের

T20 World Cup Final 2022: যাঁরা টিভিতে বসে সমালোচনা করেছেন, তাঁরাও জয়টা উপভোগ করুন-নিন্দুকদের খোঁচা বাবরের

বাবর আজম।

আসলে বহু দিন ধরেই ছন্দে ছিলেন না বাবর। এশিয়া কাপেও খেলতে পারেননি। তার পর থেকে ব্যর্থতার ধারা চলছে। স্বাভাবিক ভাবেই তীব্র সমালোচনায় ক্ষতবিক্ষত হতে হয়েছে বাবরকে। তবে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের ফাইনালে ওঠার পর এ বার মুখ খুললেন পাক অধিনায়কও।

২০২২ টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে একেবারেই ছন্দে ছিলেন না বাবর আজম। তাঁর হাতাশাজনক পারফরম্যান্স সমালোচনার কেন্দ্রে নিয়ে এসেছিল বাবরকে। তবে মোক্ষম সময়ে ব্যাট হাতে নিন্দুকদের মুখে ঝামা ঘষলেন বাবর আজম। সেমিফাইনালে নিউজিল্যান্ডের বিরুদ্ধে চেনা ছন্দে পাক অধিনায়ক। আর ছন্দে ফিরেই সমালোচকদের এক হাত নিলেন বাবর আজম।

আসলে বহু দিন ধরেই ছন্দে ছিলেন না বাবর। এশিয়া কাপেও খেলতে পারেননি। তার পর থেকে ব্যর্থতার ধারা চলছে। স্বাভাবিক ভাবেই তীব্র সমালোচনায় ক্ষতবিক্ষত হতে হয়েছে বাবরকে। তবে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের ফাইনালে ওঠার পর এ বার মুখ খুললেন পাক অধিনায়কও।

আরও পড়ুন: ১৯৯২-এর পুনরাবৃত্তি- ৩০বছর পর MCG-তে ফাইনাল খেলবে পাকিস্তান,সব মিললে বিপদ ভারতের

সাংবাদিক সম্মেলনের পরেই সমালোচনার প্রসঙ্গ উঠতেই রীতিমতো শ্লেষের সুরে বাবর বলে দেন, ‘আমার দলকে সমানে সমালোচিত হতে হয়েছে। তবে সকলের নিজস্ব মতামত রয়েছে। কিন্তু কাউকে ব্যক্তিগত আক্রমণ করা ঠিক নয়। সমালোচনা ইতিবাচক হলে সকলেই সেটা শুনবে। সাংবাদিকরাও আমাদের সমালোচনা করেন। কে কী ভাবে সমালোচনা করেন, তা সকলে দেখতে পান। ব্যক্তিগত আক্রমণ করা হলেও আমাদের কিছু করার থাকে না। তবে এখন তো আমরা টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের ফাইনালে উঠেছি। সকলে উপভোগ করুন।’

আরও পড়ুন: সেমিতে জ্বলে উঠলেন বাবর-রিজওয়ান, জুটিতে শতরান করে গড়লেন বিশ্বরেকর্ড

এখানেই থামেননি বাবর। তিনি আরও বলেছেন, ‘অনেকে আছেন, আমরা ভালো খেললেও যাঁরা সমালোচনা করেন। এখন এই জয়টা উপভোগ করার সময়। পাকিস্তানের ভক্তদের এটি উপভোগ করা উচিত এবং যাঁরা টেলিভিশন চ্যানেলে বসে আছেন, তাঁদেরও এটি উপভোগ করা উচিত।’

এ বারের বিশ্বকাপে প্রথম বার পাকিস্তানের ওপেনিং জুটিকে প্রত্যাশিত ছন্দে ব্যাট করতে দেখা গিয়েছে। সেমিফাইনালে পাকিস্তানের অধিনায়ক বাবর আজম এবং উইকেটরক্ষক ব্যাটসম্যান মহম্মদ রিজওয়ান প্রথম উইকেটে ১০৫ রান যোগ করেন। । বাবর ৪২ বলে ৫৩ রান করেন। ৪৩ বলে ৫৭ রান করেন রিজওয়ান। তারাই পাকিস্তানের জয়ের ভিত তৈরি করে দেয়। তাঁদের এই সাফল্য নিয়ে প্রশ্ন করা হলে পাক অধিনায়ক বলেন, ‘ব্যাপারটা তেমন কিছুই নয়। আমরা আমাদের সময়ের জন্য অপেক্ষা করছিলাম। সব ম্যাচেই আমরা পারফর্ম করার চেষ্টা করি। কিন্তু সাফল্য এবং ব্যর্থতা খেলারই অঙ্গ।’

বন্ধ করুন