বাংলা নিউজ > ময়দান > টি২০ বিশ্বকাপ > প্রথমবার টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে ব্যবহার হচ্ছে ‘ব্যাট-ট্র্যাকিং’ প্রযুক্তি
টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে ব্যবহার হচ্ছে ‘ব্যাট-ট্র্যাকিং’ প্রযুক্তি
টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে ব্যবহার হচ্ছে ‘ব্যাট-ট্র্যাকিং’ প্রযুক্তি

প্রথমবার টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে ব্যবহার হচ্ছে ‘ব্যাট-ট্র্যাকিং’ প্রযুক্তি

  • ২০২১ বিশ্বকাপ সম্প্রচারে থাকছে ‘৩৫’ ক্যামেরা সঙ্গে রাখা হয়েছে অত্যাধুনিক প্রযুক্তি। টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে প্রথমবার ব্যাট-ট্র্যাকিং-এর প্রযুক্তি ব্যবহার করা হচ্ছে।

২০২১ টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে প্রথমবার ব্যাট-ট্র্যাকিং-এর প্রযুক্তি ব্যবহার করা হচ্ছে। বিশ্বকাপ সম্প্রচারে থাকছে ‘৩৫’ ক্যামেরা সঙ্গে রাখা হয়েছে অত্যাধুনিক প্রযুক্তি। প্রথমবারের মত দেখা যাবে ব্যাট ট্র্যাকিং, যা বল ট্র্যাকিং এবং এজ ডিটেকশনের পাশাপাশি নির্দিষ্ট কিছু ম্যাচে হক আই সুবিধা প্রদান করবে। এছাড়াও ক্রিকেটকে আরও নির্ভুল করতে সুবিধা করবে ব্যাট-ট্র্যাকিং’ প্রযুক্তি।

১৭ অক্টোবর থেকে শুরু হয়েছে আইসিসি টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে। প্রতিটি ম্যাচে থাকছে অত্যাধুনিক সব প্রযুক্তির ব্যবহার। আধুনিক ক্যামেরার ব্যবহারের মাধ্যমে দর্শকদের চোখের সামনে তুলে ধরা হবে বিশ্বকাপের লড়াই। এই টুর্নামেন্টের কোনও অ্যাকশনই যাতে মিস হয়ে না যায় তার জন্য থাকবে বিশেষ ব্যবস্থা।

প্রতিটি ভেন্যুতে খেলা সম্প্রচারের জন্য অন্তত ৩৫টি ক্যামেরা ব্যবহার করা হবে। মাঠে থাকবে লাইভ প্লেয়ার ট্র্যাকিং ও কুইডিচ ট্র্যাকার। এছাড়ও এই প্রথম ব্যাট-ট্র্যাকিং-এর প্রযুক্তি ব্যবহার করা হচ্ছে। ক্রিকেটের প্রতিটি মুহূর্তকে আরও বেশি স্বচ্ছ করতেই এমন উদ্যোগ নিয়েছে আইসিসি।  

দুশোরও বেশি দেশে আইসিসির অংশীদার হয়ে প্রায় ১০ হাজার ঘণ্টা লাইভ কভারেজে নিযুক্ত থাকছে বিভিন্ন সম্প্রচার মাধ্যম। একেকটি ম্যাচ শেষ হওয়ার পরপরই হাইলাইটস পাওয়া যাবে আইসিসির ওয়েবসাইট ও সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমের অ্যাকাউন্টে।

বন্ধ করুন