বাংলা নিউজ > ময়দান > টি২০ বিশ্বকাপ > T20 WC: মাত্র ১২৮ বলেই শেষ, ইতিহাসের অন্যতম ক্ষুদ্রতম ম্যাচ খেলল অস্ট্রেলিয়া-বাংলাদেশ
বাংলাদেশ-অস্ট্রেলিয়া ম্যাচ শেষে মিচেল মার্শ ও মহম্মদ নইমের শুভেচ্ছা বিনিময়। ছবি- রয়টার্স। (REUTERS)
বাংলাদেশ-অস্ট্রেলিয়া ম্যাচ শেষে মিচেল মার্শ ও মহম্মদ নইমের শুভেচ্ছা বিনিময়। ছবি- রয়টার্স। (REUTERS)

T20 WC: মাত্র ১২৮ বলেই শেষ, ইতিহাসের অন্যতম ক্ষুদ্রতম ম্যাচ খেলল অস্ট্রেলিয়া-বাংলাদেশ

  • তালিকার প্রথম পাঁচের মধ্যে এই বিশ্বকাপে খেলা হয়েছে তিনটি ম্যাচ।

চলতি টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের সুপার ১২-এ নাগাড়ে চার ম্যাচ হেরে আগেই টুর্নামেন্ট থেকে ছিটকে গিয়েছিল বাংলাদেশ। অস্ট্রেলিয়ার বিরুদ্ধে নিজেদের শেষ ম্যাচ ছিল সম্মান রক্ষার লড়াই। সেখানেও অ্যাডাম জাম্পার ভেল্কিতে অজিদের বিরুদ্ধে হাবুডুবু খেতে হল মাহমুদুল্লাহদের।

প্রথমে ব্যাট করে অজিদের বিরুদ্ধে ৭৩ রানেই গুটিয়ে গিয়েছিল বাংলাদেশ ইনিংস, যা অজিদের বিরুদ্ধে সম্পূর্ণ হওয়া ইনিংসগুলির মধ্যে সর্বনিম্ন। অ্যাডাম জাম্পা নিজের নির্ধারিত চার ওভারে ১৯ রানের বিনিময়ে পাঁচ উইকেট নেন। মাত্র ১৫ ওভারই খেলতে পারেন বাংলাদেশের ব্যাটাররা। এরপর ব্যাটে নেমে বাংলাদেশের ঠিক উল্টো, দুরন্ত গতিতে দাপটের সঙ্গে ব্যাট করেন ডেভিড ওয়ার্নার এবং অ্যারন ফিঞ্চ। দুই উইকেটের বিনিময়ে নির্ধারিত লক্ষ্যে পৌঁছাতে অস্ট্রেলিয়ার সময় লাগে ৬.২ ওভার। ঘটনাক্রমে, এটি বলের বিচারে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের ইতিহাসে তৃতীয় ক্ষুদ্রতম ম্যাচ। 

এর থেকে কম বলে একমাত্র শ্রীলঙ্কাই জিতছে। তাও দুই-দুইবার, আর দুইবারেই কাকতালীয়ভাবে লঙ্কান লায়ানদের থাবার পড়েছে নেদারল্যান্ডসের ওপর। ২০১২ সালে ৯৩ বলে এবং এই বিশ্বকাপেই ১০৩ বলে ডাচ দলকে হারায় তারা। বিশ্বকাপ ইতিহাসের সবচেয়ে ছোট পাঁচ ম্যাচের মধ্যে তিনটিই ঘটেছে চলতি টুর্নামেন্টে। ইংল্যান্ড-ওয়েস্ট ইন্ডিজের ম্যাচ তালিকায় চতুর্থ নম্বরে (১৩৬ বলে শেষ) রয়েছে। 

বন্ধ করুন