বাংলা নিউজ > ময়দান > প্রথম করোনা টেস্টে পাশ টিম ইন্ডিয়া, পরিবারের সঙ্গে থাকার অনুমতি ঋদ্ধিদের
সন্তানদের সঙ্গে হার্দিক ও ঋদ্ধি। ছবি- টুইটার।
সন্তানদের সঙ্গে হার্দিক ও ঋদ্ধি। ছবি- টুইটার।

প্রথম করোনা টেস্টে পাশ টিম ইন্ডিয়া, পরিবারের সঙ্গে থাকার অনুমতি ঋদ্ধিদের

  • IPL-এর মতোই বায়ো-বাবলের বন্দোবস্ত করা হয়েছে ক্রিকেটারদের জন্য।

অস্ট্রেলিয়া সফরের মডেলে নয়, বরং বিসিসিআই আইপিএলের মতোই বায়ো-বাবলের বন্দোবস্ত করেছে ভারত-ইংল্যান্ড দ্বি-পাক্ষিক সিরিজের জন্য।

৫ ফেব্রুয়ারি থেকে চেন্নাইয়ে শুরু হচ্ছে ভারত-ইংল্যান্ড প্রথম টেস্ট। বুধবারই সিরিজ খেলতে ইংল্যান্ড দল চেন্নাইয়ে পৌঁছে যায়। ভারতীয় ক্রিকেটাররাও ইতিমধ্যেই চেন্নাইয়ের টিম হোটেলে পৌঁছে গিয়েছেন। সেখানেই আইপিএলের মতো ৬ দিনের কোয়ারান্টাইনে থাকতে হবে ক্রিকেটারদের।

বিসিসিআই ইন্ডিয়ান প্রিমিয়র লিগের মতো ৬ দিনের কোয়ারান্টাইন পর্বে তিনবার করোনা পরীক্ষার ব্যবস্থা করেছে। প্রথম পর্বের করোনা টেস্টে ভারতীয় ক্রিকেটারদের রিপোর্ট নেগেটিভ এসেছে। ইংল্যান্ডের ক্রিকেটাররাও প্রথম করোনা টেস্টে নেগেটিভ চিহ্নিত হয়েছেন। বোর্ডের তরফে জানানো হয়েছে যে, অনুশীলনে নামার আগো দু'দলের ক্রিকেটারদের আরও দু'দফায় করোনা টেস্ট করা হবে।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক এক বিসিসিআই কর্তা সংবাদ সংস্থা পিটিআইকে জানিয়েছেন, ‘আইপিএলের মতোই ৬ দিনের কঠোর কোয়ারান্টাইন পর্বের নির্দেশিকা একই রয়েছে। ইতিমধ্যেই এক দফা করোনা টেস্ট করা হয়েছে প্রত্যেকের। অনুশীলনের ছাড়পত্র দেওয়ার আগে আরও দু’দফা করোনা পরীক্ষা করা হবে। আপাতত ক্রিকেটারদের নিজেদের রুমেই থাকতে হবে।'

৬ দিনের কোয়ারান্টাইনের শেষে ২ ফেব্রুয়ারি থেকে অনুশীলন শুরু করতে পারবেন ক্রিকেটাররা। ভারতীয় ক্রিকেটারদের যেহেতু অস্ট্রেলিয়া সফরে কঠোর কোয়ারান্টাইনে থাকতে হয়েছে, তাই তাঁদের সঙ্গ দিতে পরিবারকে সঙ্গে থাকার অনুমতি দেওয়া হয়েছে। অজিঙ্কা রাহানে, রোহিত শর্মা, ঋদ্ধিমান সাহা, হার্দিক পান্ডিয়ারা স্ত্রী-সন্তানদের সঙ্গে নিয়েই বায়ো-বাবলে প্রবেশ করেছেন।

বন্ধ করুন