বাংলা নিউজ > ময়দান > IND vs NZ: জয়ের মাঝেও থেকে গেল কাঁটা, হায়দরাবাদে কিউয়িদের হারালেও ভারতের দুশ্চিন্তার কারণগুলি দেখে নিন

IND vs NZ: জয়ের মাঝেও থেকে গেল কাঁটা, হায়দরাবাদে কিউয়িদের হারালেও ভারতের দুশ্চিন্তার কারণগুলি দেখে নিন

হায়দরাবাদে কষ্ট করে জয় ভারতের। ছবি- এএনআই।

India vs New Zealand 1st ODI: হায়দরাবাদে নিউজিল্যান্ডকে সাড়ে তিনশো রানের টার্গেট দিয়েও নিতান্ত কষ্ট করে ম্যাচ জিততে হয় রোহিত শর্মাদের।

হায়দরাবাদে নিউজিল্যান্ডের বিরুদ্ধে সিরিজের প্রথম ওয়ান ডে ম্যাচে ভারত জয় তুলে নিলেও দলের পারফর্ম্যান্সে নিশ্চিন্ত হওয়ার উপায় নেই টিম ম্যানেজমেন্টের। বরং দুশ্চিন্তার উদয় হল বড় রানের ইনিংস গড়েও কষ্ট করে ম্যাচ জিততে হওয়ায়।

উভয় ইনিংস মিলিয়ে ১০০ ওভারের ম্যাচে ভারত ৮০ ওভার পর্যন্ত ছড়ি ঘোরায়। তবে শেষ ২০ ওভারে নিউজিল্যান্ড এভাবে ঘুরে দাঁড়িয়ে বেগ দেবে রোহিতদের, তা অনুমান করা মোটেও সহজ ছিল না।

প্রথমে ব্যাট করে ভারত নির্ধারিত ৫০ ওভারে ৮ উইকেটের বিনিময়ে ৩৪৯ রানের বিশাল ইনিংস গড়ে তোলে। পালটা ব্যাট করতে নেমে নিউজিল্যান্ড একসময় ২৮.৪ ওভারে ১৩১ রানে ৬ উইকেট হারিয়ে বসে। স্বাভাবিকভাবেই ভারত একতরফাভাবে ম্যাচ জিতবে বলে ধরে নেওয়া হচ্ছিল। যদিও শেষমেশ নিউজিল্যান্ড পৌঁছে যায় ৩৩৭ রানে। ১২ রানের সংক্ষিপ্ত ব্যবধানে ম্যাচ জেতে টিম ইন্ডিয়া।

জয় ছাড়াও ম্যাচ থেকে ভারতের প্রাপ্তি বলতে শুভমন গিলের দুর্দান্ত ডাবল সেঞ্চুরি ও মহম্মদ সিরাজের অনবদ্য বোলিং। গিল ১৯টি চার ও ৯টি ছক্কার সাহায্যে ১৪৯ বলে ২০৮ রান করেন। সিরাজ ১০ ওভারে ২টি মেডেন-সহ ৪৬ রানের বিনিময়ে চারটি উইকেট নেন। তবে ম্যাচে যে বিষয়গুলি ভারতকে দুশ্চিন্তায় রাখবে, চোখ রাখা যাক সেই তালিকায়।

আরও পড়ুন:- Video: হাত দিয়ে বেল ফেলে হিট উইকেটের আবেদন, স্টাম্পের পিছনে ইশানের দুষ্টুমি

প্রথমত, রোহিত শর্মা ফের ভালো শুরু করেও নিজের ইনিংসকে বড় রানের রূপ দিতে ব্যর্থ। বিরাট কোহলি সেঞ্চুরি পাচ্ছিলেন না বলে বিস্তর চর্চা হয়। তবে রোহিতও দীর্ঘদিন হয়ে গেল তিন অঙ্কের রানের মুখ দেখেননি। ফলে চাপ বাড়ছে হিটম্যানের উপর। উপ্পলে রোহিত ৪টি চার ও ২টি ছক্কার সাহায্যে ৩৮ বলে ৩৪ রান করে মাঠ ছাড়েন।

দ্বিতীয়ত, গিল একাই ব্যাট হাতে রং ছড়ান। দলের ইনিংসে বাকিদের অবদান নামমাত্র। রোহিতের ৩৪ ভারতীয় ইনিংসের দ্বিতীয় সর্বোচ্চ ব্যক্তিগত স্কোর। গিল দুর্দান্ত ইনিংস খেললেও গোটা দু'য়েক জীবনদান পান। তিনি সস্তায় আউট হলে ভারতের পক্ষে বড় রানের ইনিংস গড়া মুশকিল হয়ে দাঁড়াত।

আরও পড়ুন:- IND vs NZ: গিলের তাণ্ডবে সচিন তেন্ডুলকরের ২৪ বছরের পুরনো রেকর্ড ভেঙে চুরমার

তৃতীয়ত, সিরাজ ও কুলদীপ ছাড়া হায়দরাবাদে প্রভাবশালী বোলিং করতে পারেননি ভারতের বাকি বোলাররা। হতে পারে গুরুত্বপূর্ণ সময়ে উইকেট তুলেছেন শার্দুল-হার্দিক-শামিরা। তবে যথেচ্ছ রান খরচ করেছেন। চেনা পিচেও রাত যত বেড়েছে, ততই নিয়ন্ত্রণ হারিয়েছেন ভারতীয় বোলাররা। কঠিন পরিস্থিতিতে ছন্নছাড়া দেখিয়েছে শামিদের বোলিংকে। হাতে পর্যাপ্ত রান থাকা সত্ত্বেও যথাযথ পরিকল্পনার অভাব দেখা গিয়েছে ভারতের বোলিং আক্রমণে। যার ফলে একসময় হারের আতঙ্ক চেপে বসে ভারতীয় শিবিরে।

এই খবরটি আপনি পড়তে পারেন HT App থেকেও। এবার HT App বাংলায়। HT App ডাউনলোড করার লিঙ্ক https://htipad.onelink.me/277p/p7me4aup

বন্ধ করুন