বাংলা নিউজ > ময়দান > ছন্দে থাকা বোলারদের যথাযথ ব্যবহার করেন না পন্ত, এই ভুল সিদ্ধান্তগুলিই বুঝিয়ে দিচ্ছে, ক্যাপ্টেন হিসেবে কত অপরিণত ঋষভ
ঋষভ পন্ত ও তেম্বা বাভুমা। ছবি- এএফপি (AFP)

ছন্দে থাকা বোলারদের যথাযথ ব্যবহার করেন না পন্ত, এই ভুল সিদ্ধান্তগুলিই বুঝিয়ে দিচ্ছে, ক্যাপ্টেন হিসেবে কত অপরিণত ঋষভ

  • গত ইন্ডিয়ান প্রিমিয়র লিগ থেকে ক্যাপ্টেন হিসেবে ঋষভ পন্তের বেশ কিছু ভুল সিদ্ধান্ত চোখ এড়ায়নি বিশেষজ্ঞদের। বিশেষ করে দিনের পারফর্ম্যান্সের নিরিখে দলের সেরা বোলারদের উপর আস্থা না রাখার প্রবণতা দেখা যাচ্ছে ঋষভের মধ্যে।

লোকেশ রাহুল চোট পেয়ে টুর্নামেন্ট থেকে ছিটকে যাওয়ায় দক্ষিণ আফ্রিকার বিরুদ্ধে ৫ ম্যাচের টি-২০ সিরিজে ভারতীয় দলের নেতৃত্বের ব্যাটন হাতে ওঠে ঋষভ পন্তের। তবে তাঁর নেতৃত্বের বেশ কিছু ফাঁক-ফোকর খুঁজে পেয়েছেন বিশেষজ্ঞরা। পন্ত তথা টিম ম্যানেজমেন্টের কিছু ভুল সিদ্ধান্তের মাশুল দিতে হয়েছে ভারতকে, এমনটাই মত অনেকের।

কটকে সিরিজের দ্বিতীয় টি-২০ ম্যাচে দীনেশ কার্তিক বিশেষজ্ঞ ব্যাটসম্যান হওয়া সত্ত্বেও অক্ষর প্যাটেলকে তাঁর আগে ব্যাট করতে পাঠায় ভারতীয় টিম ম্যানেজমেন্ট। এক্ষেত্রে ক্যাপ্টেনের একার সিদ্ধান্ত প্রধান্য নাও পেতে পারে। তবে ফিল্ডিং করার সময় মাঠে দল পরিচালনার দায়িত্ব ছিল পন্তের একার হাতেই। ম্যাচে হার্ষাল প্যাটেল ও আবেশ খান উভয়েই মন্দ বোলিং করেননি। তবে তাঁদের পূর্ণ বোলিং কোটা যথাযথ ব্যবহার করতে পারেনি ভারত।

তারও আগে দিল্লিতে সিরিজের প্রথম টি-২০ ম্যাচে যুজবেন্দ্র চাহালকেও যথাযথ ব্যবহার করেননি পন্ত। বোলিং পরিবর্তন এবং ফর্মে থাকা বোলারকে ঠিকমতো ব্যবহার না করার প্রবণতা পন্তের মধ্যে চোখে পড়েছে গত ইন্ডিয়ান প্রিমিয়র লিগেও। এটাই ঋষভের নেতৃত্বের সব থেকে নেতিবাচক দিক হয়ে দেখা দিচ্ছে এই মুহূর্তে।

আরও পড়ুন:- Ranji Trophy: নির্ভরতা দিচ্ছেন মনোজ-অনুষ্টুপ, সেমিফাইনালে বাংলার তুরুপের তাস হতে পারেন শাহবাজ, কারণটা জেনে নিন

চোখ রাখা যাক আইপিএল ২০২২-তে ক্যাপ্টেন হিসেবে ঋষভ পন্তের নেওয়া কিছু ভুল সিদ্ধান্তে:-

১. আইপিএল ২০২২-তে মুম্বইয়ের বিরুদ্ধে লিগের শেষ ম্যাচে মিচেল মার্শ ২ ওভারে মাত্র ৭ রান খরচ করেন। তাঁকে আর বল করাননি পন্ত।

২. কিংস ইলেভেন পঞ্জাবের বিরুদ্ধে লিগে নিজেদের ১৩ নম্বর ম্যাচে কুলদীপ যাদব ৩ ওভারে ১৪ রানের বিনিময়ে ২টি উইকেট নেন। কুলদীপের বোলিং কোটা পূর্ণ করাননি পন্ত।

৩. রাজস্থানের বিরুদ্ধে লিগের ফিরতি ম্যাচে কুলদীপ মন্দ বোলিং করেননি। ৩ ওভারে ২০ রান খরচ করেন। তবে তাঁর হাতে চার ওভার বল তুলে দেননি ঋষভ।

৪. চেন্নাই সুপার কিংসের বিরুদ্ধে দলের বাকি বোলাররা যখন মার খাচ্ছিলেন, তখন তুলনায় কৃপণ বোলিং করেন অক্ষর প্যাটেল। অথচ ৩ ওভারে ২৩ রান দেওয়া অক্ষরের বোলিং কোটা পূর্ণ করাননি ঋষভ।

আরও পড়ুন:- ‘কেন কার্তিকের আগে অক্ষরকে নামানো হল?’ ঋষভের সিদ্ধান্ত নিয়ে ক্ষুব্ধ প্রাক্তনীরা

৫. কেকেআরের বিরুদ্ধে ৩ ওভারে ১৪ রানে ৪ উইকেট নেন কুলদীপ। তাঁর হাতে আর বল তুলে দেননি পন্ত।

৬. পঞ্জাব কিংসের বিরুদ্ধে ললিত যাদব ২ ওভারে ১১ রান খরচ করে ২টি উইকেট দখল করেন। তাঁকে আর বল করতে ডাকেননি পন্ত।

৭. কেকেআরের বিরুদ্ধে লিগের প্রথম ম্যাচে ললিত যাদব ১ ওভারে ৮ রানের বিনিময়ে ১টি উইকেট নেন। তাঁকে আর বল করানোর প্রয়োজন মনে করেননি ক্যাপ্টেন পন্ত।

বন্ধ করুন