বাংলা নিউজ > ময়দান > IND vs WI: এমন আউট হবে ভাবা যায় না, কোহলির ব্যাটিংয়ে আত্মবিশ্বাসের অভাব দেখছেন কাইফ

IND vs WI: এমন আউট হবে ভাবা যায় না, কোহলির ব্যাটিংয়ে আত্মবিশ্বাসের অভাব দেখছেন কাইফ

দ্বিতীয় ওয়ান ডেতে আউট হয়ে সাজঘরে ফিরছেন কোহলি। ছবি- পিটিআই। (PTI)

উইন্ডিজের বিরুদ্ধে দ্বিতীয় ওয়ান ডেতে মাত্র ১৮ রানে কট বিহাইন্ড হন কোহলি।

চলতি ওয়েস্ট ইন্ডিজ সিরিজের প্রথম দুই ম্যাচই ভারতীয় দল জিতে নিয়ে সিরিজ নিজেদের পকেটে পুরলেও, চিন্তার বড় কারণ বিরাট কোহলির ব্যাটিং ফর্ম। দুই ওয়ান ডের একটিতেও কোহলিকে স্বাভাবিক ছন্দে দেখায়নি। প্রথম ওয়ান ডেতে আট রানে পর, দ্বিতীয় ওয়ান ডেতেও মাত্র ১৮ করে সাজঘরে ফেরেন কোহলি।

ওয়ান ডেতে ১২ হাজারের অধিক রান, ৪৩টি শতরান থাকা সত্ত্বেও, কোহলির ব্যাটিং নিয়ে প্রশ্ন অব্যাহত। প্রথম ওয়ান ডেতে অস্বভাবিচক ভঙ্গিমায় তাড়াহুড়ো করতে গিয়ে পুল মেরে আউট হন বিরাট। দ্বিতীয় ওয়ান ডেতেও ফের ওডেন স্মিথের অফস্টাম্পের বাইরের বলে প্রহার করতে গিয়ে সাজঘরে ফেরেন তিনি। গত বছর এক, দুই নয়, নয়বার নাগাড়ে বিদেশের মাটিতে এমনভাবেই কট বিহাইন্ড হয়ে টেস্টে আউট হয়েছিলেন তিনি। তবে ওয়ান ডেতে ৩৩ বছর বয়সী প্রাক্তন ভারতীয় অধিনায়ককে এমন আউট হতে দেখে অবাক মহম্মদ কাইফ। তাঁর মতে কোহলি বর্তমানে আত্মবিশ্বাসের অভাবে ভুগছেন।

ইনিংসের মাঝে, ব্রডকাস্টার Star Sports হয়ে আলোচনাসভায় কাইফ বলেন, ‘গত ম্যাচে পুল মারতে গিয়ে আউট হয়েছিল এবং এই ম্যাচে তো ওর (কোহলি) পাই সময়মতো ক্রিজে ঠিক জায়গায় পৌঁছল না। জেমস অ্যান্ডারসনের বিরুদ্ধে ইংল্যান্ডেও অনেকটা এমনভাবেই ও আউট হয়েছিল। তবে সীমিত ওভারের ক্রিকেটে ও কট বিহাইন্ড হবে, এটা ভাবাই যায় না। বোলারের অবশ্যই প্রশংসা প্রাপ্য। তবে কোহলি ওয়ান ডেতে ১২ হাজারের ওপর রান করে ফেলেছ। নিজের সেরা ফর্মে ও এই বলটাকই মিড অফ দিয়ে বাউন্ডারি পার করাতো। মনে হচ্ছে বর্তমানে ওর আত্মবিশ্বাসটা একটু নড়বড়ে।’

সেই আলোচনাসভায় উপস্থিত ছিলেন হরভজন সিংও। তাঁর মতে কোহলি সম্ভবত শর্ট বলের অপেক্ষায় ছিলেন বলেই সামনের পায়ের বল পিছনের পায়ে খেলে বসেন। ‘ও সম্ভবত শর্ট বলের অপেক্ষায় ছিল, যার জন্য ওর ফুটওয়ার্ক পুরোপুরি তালগোল পাকিয়ে যায় এবং কিপারের হাতে ক্যাচ দিয়ে বসে। না হলে ওই বলই ও চার মারত।’ কোহলির আউট হওয়ার কারণ যাই হোক, ভারতীয় দলের স্বার্থে ‘কিং কোহলি’র পুনরায় নিজের চেনা ছন্দে ফেরাটা যে কতটা আবশ্যক তা আলাদা করে বলে দিতে হয় না। বিশেষত যেহতু দুই বছরে পরপর দুই বিশ্বকাপ আসতে চলেছে। 

বন্ধ করুন