এক দল, এক স্বপ্ন (ফাইল ছবি, সৌজন্য পিটিআই)
এক দল, এক স্বপ্ন (ফাইল ছবি, সৌজন্য পিটিআই)

ICC Women's T20 World Cup: ইতিহাস রচনা হরমনপ্রীতদের, প্রথমবার টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের ফাইনালে ভারত

এই প্রথমবার মহিলা টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের ফাইনালে উঠল টিম ইন্ডিয়া।

এরকমভাবে একেবারেই ইতিহাস তৈরি করতে চাননি। কিন্তু শেষ পর্যন্ত সেটাই হল। বৃষ্টির জন্য সিডনিতে একটি বলও খেলা হল না। গ্রুপ পর্যায়ে ভালো রেকর্ডের সুবাদে মহিলা টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের ফাইনালে উঠল ভারত, প্রথমবারের জন্য।আরও পড়ুন : ICC Women's T20 World Cup: ভারতীয় হিসেবে রোমাঞ্চিত হলেও ইংরেজ মেয়েদের মনের অবস্থা বুঝছি, বললেন মিতালি

সেমিফাইনালে বৃষ্টির ভ্রূকূটি আগে থেকেই ছিল। পূর্বাভাস মতোই এদিন সিডনিতে অঝোর ধারায় বৃষ্টি নামে। প্রাথমিকভাবে টসের সময় পিছিয়ে দেওয়া হয়। আইসিসির নয়া নিয়ম অনুযায়ী, টি-টোয়েন্টি ম্যাচ সম্পূর্ণ করার ক্ষেত্রে কমপক্ষে প্রতিটি দলকে ১০ ওভারে খেলতে হবে। সেজন্য ভারতীয় সময় অনুযায়ী, সকাল ১১টা ৬ মিনিট টস হওয়ার কথা ছিল। ১৫ মিনিট ম্যাচ শুরুর নির্ঘণ্ট ঠিক হয়। কিন্তু বৃষ্টি থামেনি। শেষপর্যন্ত টসের নির্ধারিত সময়ের আগেই ১০টা ৪৪ মিনিট নাগাদ ম্যাচ পরিত্যক্ত ঘোষণা করেন আম্পায়ার ও ম্যাচ অফিসিয়ালরা। ফলে ফাইনালে উঠে যায় ভারত।

প্রবল বর্ষণ সিডনিতে (ছবি সৌজন্য এপি)
প্রবল বর্ষণ সিডনিতে (ছবি সৌজন্য এপি)

যদিও এভাবে প্রথমবার বিশ্বকাপ ফাইনালে ওঠায় খুব একটা খুশি নন ভারত অধিনায়ক হরমনপ্রীত কউর। তিনি বলেন, 'আবহাওয়ার জন্য খেলা না হওয়াটা অত্যন্ত দুর্ভাগ্যজনক। কিন্তু এটাই নিয়ম। ভবিষ্যতে একটা রিজার্ভ ডে থাকলে ভালো হয়।' পাশাপাশি বিশ্বকাপের প্রথম থেকে দুরন্ত পারফরম্যান্সের জন্য তাঁর মেয়েদেরও ভূয়সী প্রশংসা করেছেন হরমনপ্রীত। তাঁর কথায়, আমরা প্রথমদিন থেকে জানতাম, আমাদের সব ম্যাচ জিততে হবে। কারণ সেমিফাইনালে যদি খেলা না হয়, তাহলে তা আমাদের জন্য বাজে হবে। দলকে কৃতিত্ব দিতে চাই। আমরা সব ম্যাচ জিততে চেয়েছিলাম। আমরা পেরেছি সেটা।'

কখন থামবে বৃষ্টি? প্রতীক্ষায় সবাই। শেষপর্যন্ত অবশ্য বৃষ্টি থামেনি। (ছবি সৌজন্য এএফপি)
কখন থামবে বৃষ্টি? প্রতীক্ষায় সবাই। শেষপর্যন্ত অবশ্য বৃষ্টি থামেনি। (ছবি সৌজন্য এএফপি)

তবে শুধু প্রথম সেমিফাইনাল নয়, বৃষ্টির জেরে দ্বিতীয় সেমিফাইনালও ভেস্তে যাওয়ার আশঙ্কা তৈরি হয়েছে। কিছুক্ষণ পর সিডনিতেই দ্বিতীয় সেমিফাইনালে মুখোমুখি হবে অস্ট্রেলিয়া ও দক্ষিণ আফ্রিকা। সেই ম্যাচটিও পরিত্যক্ত হয়ে গেলে গ্রুপ পর্যায়ে ভালো রেকর্ডের সুবাদে ফাইনালে চলে যাবে প্রোটিয়ারা।

ভারত ফাইনালে ওঠার পর উচ্ছ্বাস সমর্থকদের। (ছবি সৌজন্য এএফপি)
ভারত ফাইনালে ওঠার পর উচ্ছ্বাস সমর্থকদের। (ছবি সৌজন্য এএফপি) (AFP)
বন্ধ করুন