বাংলা নিউজ > ময়দান > শুভমন গিলের জার্সি নিয়ে সটান সাংবাদিক সম্মেলনে হাজির ইভান্স, জিম্বাবোয়ের ক্রিকেটার নিজেই জানালেন কারণ: ভিডিয়ো

শুভমন গিলের জার্সি নিয়ে সটান সাংবাদিক সম্মেলনে হাজির ইভান্স, জিম্বাবোয়ের ক্রিকেটার নিজেই জানালেন কারণ: ভিডিয়ো

শুভমন গিলের জার্সি হাতে ব্র্যাড ইভান্স। ছবি- টুইটার (@Vimalwa)।

সিকন্দর রাজার সঙ্গে শতরানের পার্টনারশিপ গড়ে ইভান্স ভারতের হাত থেকে ম্যাচ ছিনিয়ে নিয়ে যাওয়ার উপক্রম করেছিলেন।

৯ নম্বরে ব্যাট করতে নেমে ৩৬ বলে ২৮ রানের সংক্ষিপ্ত ইনিংস, ব্র্যাড ইভান্স তাতেই ঘাম বার করে দিয়েছিলেন টিম ইন্ডিয়ার। সিকন্দর রাজার সঙ্গে অষ্টম উইকেটের জুটিতে ১০৪ রান যোগ করে ইভান্স ভারতের হাত থেকে ম্যাচ বার করে নিয়ে যাওয়ার উপক্রম করেছিলেন। আসলে সিকন্দর রাজা একপ্রান্ত দিয়ে দুর্দান্ত ব্যাটিং করছিলেন। অন্য প্রান্ত দিয়ে যে রকম সঙ্গত দরকার ছিল তাঁ, তা যথাযথ প্রদান করেন ব্র্যাড।

শেষমেশ ইভান্স ও সিকন্দর রাজা, জিম্বাবোয়ের দুই তারকাকেই ট্র্যাজিক হিরো হয়ে থেকে যেতে হয়। রাজা সেঞ্চুরি করেও ম্যাচ জেতাতে পারেননি দলকে। আউট হয়ে সাজঘরে ফেরার সময় সিকন্দরকে তাঁর লড়াইয়ের জন্য কুর্নিশ জানাতে দেখা যায় ইশান কিষাণ-শুভমন গিলদের। পরে ম্যাচের শেষে ইভান্সের লড়াইকেও স্বীকৃতি জানান গিল।

আরও পড়ুন:- India vs Zimbabwe: জার্সি চাইলেন অনুরাগী, পারলে তক্ষুণি খুলে দেন ধাওয়ান, দেখুন গব্বরের ‘মিলিয়ন ডলার’ প্রতিক্রিয়ার ভিডিয়ো

আসলে ইভান্স টিম ইন্ডিয়ার তরুণ তুর্কি গিলের ভক্ত। আইপিএলে গিলের খেলার দেখেন নিয়মিত। যাঁর খেলা দেখতে ভালো লাগে, তাঁর কাছ থেকে কিছু উপহার পেলে আপ্লুত হওয়াই স্বাভাবিক। ম্যাচের শেষে গিল ইভান্সকে উপহার দেন নিজের একটি জার্সি।

ঠিক উপহার না হলেও ইভান্সের কাছে বিষয়টা তার থেকে কম কিছু নয়। আসলে ম্যাচের শুরুতে গিলের সঙ্গে জার্সি বদলের ইচ্ছা প্রকাশ করেছিলেন ব্র্যাড। ম্যাচের শেষে গিল ইভান্সের ইচ্ছা পূরণ করেন।

আরও পড়ুন:- Rahul Dravid Tests Covid Positive: দ্রাবিড়কে নিয়ে মেডিক্যাল আপডেট দিল BCCI, জানানো হল Asia Cup-এ থাকতে পারবেন কিনা

উল্লেখ্য, ইভান্সের লড়াই তাঁর দলকে জেতাতে না পারলেও শুভমন গিল ব্যাট হাতে ভারতকে জয়ের মঞ্চে বসিয়ে দেন। কেরিয়ারের প্রথম আন্তর্জাতিক সেঞ্চুরি করে শুভমন শুধু ম্যাচের সেরার পুরস্কারই জেতেননি, বরং সিরিজ সেরার পুরস্কারও হাতে তোলেন। গিল ১৫টি চার ও ১টি ছক্কার সাহায্যে ৯৭ বলে ১৩০ রানের ঝকঝকে ইনিংস খেলেন। সিরিজের তিন ম্যাচে তিনি সাকুল্যে ২৪৫ রান সংগ্রহ করেন।

বন্ধ করুন