বাংলা নিউজ > ময়দান > বিশেষ উপায়ে প্রয়াত যশপাল শর্মাকে শ্রদ্ধা জানাল কোহলির দল
কালো আর্মব্যান্ড পরে মাঠে নেমেছিল ভারত।
কালো আর্মব্যান্ড পরে মাঠে নেমেছিল ভারত।

বিশেষ উপায়ে প্রয়াত যশপাল শর্মাকে শ্রদ্ধা জানাল কোহলির দল

  • যশপাল শর্মাকে শ্রদ্ধা না জানানোয় শিখর ধাওয়ানদের নিয়ে তীব্র সমালোচনা হয়েছে। কলম্বোর প্রেমদাসা স্টেডিয়ামে শ্রীলঙ্কার বিরুদ্ধে সিরিজের প্রথম একদিনের ম্যাচ ইতিমধ্যেই খেলে ফেলেছে শিখরের ভারত। মঙ্গলবার দ্বিতীয় একদিনের ম্যাচ খেলছে তারা।

শিখর ধাওয়ানরা প্রয়াত যশপাল শর্মাকে শ্রদ্ধা না জানানোর জন্য তীব্র ভাবে সমালোচিত হয়েছেন। কিন্তু সেই ভুলটা করেননি রোহিত শর্মারা। ১৯৮৩ সালের বিশ্বকাপজয়ী দলের সদস্য যশপাল শর্মাকে শ্রদ্ধা জানাতে কাউন্টি একাদশের বিরুদ্ধে প্রস্তুতি ম্যাচের প্রথম দিনই কালো আর্মব্যান্ড পরে মাঠে নেমেছেন তাঁরা। 

১৩ জুলাই হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে প্রয়াত হয়েছেন যশপাল শর্মা। মৃত্যুকালে তাঁর বয়স হয়েছিল ৬৬ বছর। টুইটারে রোহিত, ময়াঙ্ক আগরওয়ালদের ছবি দিয়ে বিসিসিআই লিখেছেন, ‘কিংবদন্তি ক্রিকেটার যশপাল শর্মার মৃত্যুতে শোক জানাতে টিম ইন্ডিয়া কালো আর্মব্যান্ড পরে খেলতে নেমেছে। যিনি ১৩ জুলাই হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে মারা গিয়েছেন। ১৯৮৩ বিশ্বকাপজয়ী স্কোয়াডে তাঁর সতীর্থ ছিলেন ভারতীয় দলের হেড কোচ রবি শাস্ত্রী।’

১৯৮৩ বিশ্বকাপে ভারতের ‘ক্রাইসিস ম্যান’ হিসেবে পরিচিত ছিলেন যশপাল। সেই টুর্নামেন্টের সেমিফাইনালে ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে গুরুত্বপূর্ণ ৬০ রানের ইনিংস খেলেন যশপাল, যার সৌজন্যে ভারত ফাইনালে ওঠে। আর তার পর তো সবটাই ইতিহাস। সেই বিশ্বকাপে যশপাল শর্মা ২৪০ রান করেছিলেন। গড় ছিল ৩৪.২৮।

এ দিকে যশপাল শর্মাকে শ্রদ্ধা না জানানোয় শিখর ধাওয়ানদের নিয়ে তীব্র সমালোচনা হয়েছে। কলম্বোর প্রেমদাসা স্টেডিয়ামে শ্রীলঙ্কার বিরুদ্ধে সিরিজের প্রথম একদিনের ম্যাচ ইতিমধ্যেই খেলে ফেলেছে শিখরের ভারত। মঙ্গলবার দ্বিতীয় একদিনের ম্যাচ খেলছে তারা। সাধারণত কিংবদন্তিদের শ্রদ্ধা জানাতে ম্যাচ শুরুর আগে নীরবতা পালন করা অথবা কালো আর্ম ব্যান্ড পরে মাঠে নামার রীতি প্রচলিত রয়েছে। কিন্তু সে সব কিছুই ঘটেনি শ্রীলঙ্কায়। যে কারণে সমালোচনার ঝড় বয়ে চলেছে।

বন্ধ করুন