বাড়ি > ময়দান > লুকাকু-মার্টিনেজ যুগলবন্দিতে ইউরোপা লিগের ফাইনালে ইন্টার মিলান
প্রতিপক্ষকে গোলের মালা ইন্টারের। ছবি- টুইটার।
প্রতিপক্ষকে গোলের মালা ইন্টারের। ছবি- টুইটার।

লুকাকু-মার্টিনেজ যুগলবন্দিতে ইউরোপা লিগের ফাইনালে ইন্টার মিলান

  • খেতাবি লড়াইয়ে পাঁচবারের চ্যাম্পিয়ন সেভিয়ার মুখে সিরি-এ জায়ান্টরা।

১০ বছর পর আবার ইউরোপীয়ান টুর্নামেন্টের ফাইনালে উঠল ইন্টার মিলান। উয়েফা ইউরোপা লিগের সেমিফাইনালে শাখতার দোনেৎস্ককে ৫-০ গোলে উড়িয়ে দেয় ইতালিয়ান জায়ান্টরা।

ইন্টারের হয়ে দু'টি করে গোল করেন মার্টিনেজ ও রোমেলু লুকাকু। একটি গোল দানিলো ডি'অ্যমব্রোজিওর। ম্যাচের প্রথমার্ধে ইন্টার ১-০ গোলে এগিয়েছিল। তারা দ্বিতীয়ার্ধে চারটি গোল করে।

আগের দিনই প্রথম সেমিফাইনালে পাঁচবারের চ্যাম্পিয়ন সেভিয়া ২-১ গোলে পরাজিত করেছে ম্যাঞ্চেস্টার ইউনাইটেডকে। সুতরাং, খেতাবি লড়াইয়ে লা লিগা ক্লাবের মুখোমুখি হতে হবে ইন্টারকে।

ইন্টার শেষ বার কোনও ইউরোপীয়ান চ্যাম্পিয়নশিপের ফাইনালে উঠেছিল এক দশক আগে। ২০১০ সালে তারা উয়েফা চ্যাম্পিয়ন্স লিগের খেতাব জেতে। উয়েফা কাপ ও ইউরোপা লিগ মিলিয়ে তিনবার চ্যাম্পিয়ন হয়েছে এবং একবার রানার্স হয়েছে ইন্টার। শেষবার তারা ইউরোপা লিগের ফাইনালে উঠেছিল ১৯৯৮ সালে। সেবার তারা চ্যাম্পিয়ন হয়েই মাঠ ছাড়ে।

শাখতারের বিরুদ্ধে সেমিফাইনালের ১৯ মিনিটের মাথায় বারেল্লার পাস থেকে গোলের খাতা খোলেন মার্টিনেজ। ৬৪ মিনিটে ব্রোজোভিচের পাস থেকে গোল করেন দানিলো। ৭৪ মিনিটে লুকাকু গোলের বল বাড়িয়ে দেন মার্টিনেজকে। ৭৮ মিনিটে ঠিক উলট ছবি চোখে পড়ে। এবার মার্টিনেজের পাস থেকে গোল করেন লুকাকু। ৮৩ মিনিটে লুকাকু ম্যাচে দ্বিতীয়বার বল জড়ান প্রতিপক্ষের জালে এবং স্কোর-লাইন ৫-০ করেন।

বন্ধ করুন