বাড়ি > ময়দান > IPL 2020: আইপিএলের টাইটেল স্পনসর থেকে চিনা মোবাইল সংস্থা VIVO-কে সরিয়ে দিল BCCI
আইপিএল লোগো। ছবি- টুইটার।
আইপিএল লোগো। ছবি- টুইটার।

IPL 2020: আইপিএলের টাইটেল স্পনসর থেকে চিনা মোবাইল সংস্থা VIVO-কে সরিয়ে দিল BCCI

  • দেশজুড়ে প্রবল চিন বিরধী হাওয়ার কাছে মাথা নত করতে হল ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ডকে।

দোলাচলতায় ইতি। শেষমেশ কঠিন সিদ্ধান্তটা নিয়েই ফেলল ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ড। দেশজুড়ে প্রবল চিন বিরোধী হাওয়ার সামনে মাথা নত করতে হল বিসিসিআইকে। জাতীয়তাবাদী আবেগকে সম্মান দিতেই চিনের মোবাইল প্রস্তুতকারী সংস্থা ভিভোর সঙ্গে আইপিএলের টাইটেল স্পনসরশিপ চুক্তি ছিন্ন করল ভারতীয় বোর্ড।

গত কয়েকদিনের আলোচনার পর ভিভোকে আইপিএলের আসন্ন মরশুম থেকে দূরে সরিয়ে রাখার বিষয়টা নিশ্চিত করে গভর্নিং কাউন্সিল। সেই সঙ্গে নতুন স্পনসর খোঁজাও শুরু করে দেয় বিসিসিআই। অবশেষে বৃহস্পতিবার বোর্ডের তরফে বিজ্ঞপ্তি জারি করে সিদ্ধান্তটায় সিলমোহর দেওয়ার খবর জানিয়ে দেওয়া হয়। 

বিসিসিআই স্পষ্ট করে জানিয়ে দিয়েছে যে, উদ্ভূত পরিস্থিতির কথা বিবেচনা করে ভারতীয় বোর্ড ও চিনা মোবাইল প্রস্তুতকারক সংস্থা চলতি মরশুমে চুক্তি ছিন্ন করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে। যার অর্থ, ভিভোর সঙ্গে চুক্তি চিরতরে বিচ্ছিন্ন করেনি বিসিসিআই।

প্রাথমিকভাবে আইপিএলে চিনা স্পনসরদের সঙ্গে চুক্তির ভবিষ্যৎ নিয়ে গভর্নিং কাউন্সিলের বৈঠক আলোচনা হয়। যদিও বৈঠকে সমস্ত স্পনসরদের সঙ্গে চুক্তি বজায় রাখার সিদ্ধান্ত নেয় বিসিসিআই। সিদ্ধান্ত সামনে আসার পর থেকেই দেশ জুড়ে প্রতিবাদ দেখা দেয়। চাপ ক্রমশ বাড়তে থাকায় শেষমেশ চুক্তি ছিন্ন করার পথে হাঁটে ভারতীয় বোর্ড।

ভিভোর সঙ্গে বার্ষিক ৪৪০ কোটি টাকার চুক্তি রয়েছে বিসিসিআইয়ের। ২০২২ পর্যন্ত আইপিএলের টাইটেল স্পনসর থাকার কথা ভিভোর। আপাতত চলতি বছরের জন্য চুক্তি ছিন্ন করা হলেও পরিস্থিতি স্বাভাবিক হলে পরের বছর পুনরায় আইপিএলের আঙিনায় ফিরে আসতে পারে চিনা মোবাইল প্রস্তুতকারক সংস্থাটি। এটা স্পষ্ট যে, ভিভোর সঙ্গে দ্বি-পাক্ষিক সমঝোতার ভিত্তিতেই স্পনসরশিপ চুক্তি ছিন্ন করেছে ভারতীয় বোর্ড।

বন্ধ করুন