আইপিএল গভর্নিং কাউন্সিল বৈঠকের জন্য মুম্বইয়ে সৌরভ
আইপিএল গভর্নিং কাউন্সিল বৈঠকের জন্য মুম্বইয়ে সৌরভ

IPL 2020- আইপিএল হলেও কাঁটছাঁট হবে ম্যাচের সংখ্যায়, সাফ জানালেন সৌরভ

আইপিএল হবে কিনা, সেটাও অনিশ্চিত।

আইপিএল হবে কিনা সেই নিয়ে এখনও নিশ্চয়তা নেই। তবে ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগ হলেও তা কম দিনের জন্য হবে, তা শনিবার জানিয়ে দিলেন বিসিসিআই প্রধান সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায়। আইপিএল গভর্নিং কাউন্সিল কাউন্সিলের বৈঠকের পর এই কথা জানান মহারাজ। করোনাভাইরাস দেশে ছড়িয়ে পড়ার ফলে ২৯ মার্চের বদলে ১৫ এপ্রিল অবধি মুলতুবি করে দেওয়া হয়েছে এই টি-২০ লিগ।

তবে পনেরো দিন বাদে যদি টুর্নামেন্ট শুরু হয়েও তা স্বল্পমেয়াদের হবে বলে এদিন জানান সৌরভ। তবে কতটা কাঁটছাঁট হবে, কটা ম্যাচ হবে সেই বিষয়ে এখনই কোনও আলোকপাত করতে পারেননি তিনি। এই মুহুর্তে সবার শরীর স্বাস্থ্য সুস্থ থাকাই প্রথম প্রায়োরিটি, সেটি সাফ করে দেন তিনি।

মহারাজ বলেন যে সরকারের নির্দেশের পর সমস্ত ঘরোয়া ম্যাচ বাতিল করা হয়েছে। ভারত-দক্ষিণ আফ্রিকা সিরিজও ক্যানসেল করা হয়েছে। তারা পরিস্থিতির ওপর নজর রাখছেন, বলে জানান তিনি। প্রসঙ্গত দিল্লিতে আইপিএল করতে দেওয়া হবে না, কেজরিওয়াল সরকারের এই ঘোষণার পরেই আইপিএল মুলতুবি করার সিদ্ধান্ত নিতে কার্যত বাধ্য হয় বিসিসিআই।

জানা যাচ্ছে, গভর্নিং কাউন্সিলের বৈঠকে বেশ কিছু বিকল্পের কথা আলোচনা করা হয়।ছয়-সাতটি বিকল্প প্রস্তাব ওঠে। এর মধ্যে একটা ছিল স্বল্পমেয়াদী আইপিএলের কথা। তবে এখনও কোনও চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়নি। সৌরভ বলেন যে এখনকার জন্য আইপিএল শুধু মুলতুবি আছে। প্রতি সপ্তাহে যেমন পরিস্থিতি থাকে, সেই হিসাবে সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে বলে তিনি জানান। বোর্ড আইপিএল আয়োজন করতে চাইলেও নিরাপত্তার বিষয়টি মাথায় রাখতে হচ্ছে, বলে এদিন জানান মহারাজ।

এখনও পর্যন্ত দুই জনের মৃত্যু সহ মোট ৮৪ জন করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন ভারতে। সারা বিশ্বে এই মহামারীতে আক্রান্ত দেড় লক্ষের ওপর, মারা গিয়েছেন ৫০০০। বিশ্বের অন্যান্য বড় ক্রীড়া টুর্নামেন্টের মতোই আইপিএলের ভবিষ্যত এই মুহুর্তে অনিশ্চিত।

কোনও ব্যাকআপ প্ল্যান আছে কিনা, সেই প্রসঙ্গে এখনই খোলসা করে কিছু বলতে চাননি সৌরভ। সাংবাদিকদের তিনি বলেন এক সপ্তাহ সময় দিন, দেখা যাক সারা বিশ্বের কী পরিস্থিতি হয় ততদিনে।

জানা যাচ্ছে কম সময় বেশি ম্যাচ করার জন্য সোম থেকে শুক্রবারও কিছু ক্ষেত্রে দুটি করে ম্যাচ আয়োজন করার কথা ভাবছে আইপিএল উদ্যোক্তারা। একই সঙ্গে বিকল্প শহরের তালিকাও ঠিক করা হচ্ছে, কারণ দিল্লি, বেঙ্গালুরু সহ অনেক বড় শহরের প্রশাসন আইপিএল ম্যাচ হতে দিতে নারাজ, সংক্রমণ ছড়ানোর ভয়ে।


বন্ধ করুন