বাংলা নিউজ > ময়দান > আইপিএল ২০২০ > IPL 2020: ঋদ্ধির কি ভারতের একদিন ও টি-টোয়েন্টি দলে খেলা উচিত? উত্তর দিলেন মনোজ
দিল্লি ক্যাপিটালসের বিরুদ্ধে ঋদ্ধি (ছবি সৌজন্য আইপিএল)
দিল্লি ক্যাপিটালসের বিরুদ্ধে ঋদ্ধি (ছবি সৌজন্য আইপিএল)

IPL 2020: ঋদ্ধির কি ভারতের একদিন ও টি-টোয়েন্টি দলে খেলা উচিত? উত্তর দিলেন মনোজ

  • সাধারণত শান্ত স্বভাবের ঋদ্ধিমান কিন্তু দলের জার্সি গায়ে মাঠে নামলে 'রুদ্রমূর্তি' ধারণ করেন।

শুভব্রত মুখার্জি

ভারতীয় জাতীয় ক্রিকেট দলের বিশেষত টেস্ট দলের অন্যতম গুরুত্বপূর্ণ সদস্য উইকেটরক্ষক ব্যাটসম্যান ঋদ্ধিমান সাহা। সতীর্থদের কাছে তিনি আদরের 'পাপালি'। সাধারণত শান্ত স্বভাবের ঋদ্ধিমান কিন্তু দলের জার্সি গায়ে মাঠে নামলে 'রুদ্রমূর্তি' ধারণ করেন। ব্যাট হাতে হোক বা গ্লাভস হাতে সবসময় নিজের সেরাটা নিংড়ে দেন তিনি। উইকেটের পিছনে গ্লাভস হাতে তাঁর দুরন্ত ক্যাচকে অনেকেই 'সুপারম্যানের' সঙ্গেও তুলনা করেছেন।

বর্তমানে আরব দেশে পাপালি সানরাইজার্স হায়দরাবাদ দলের হয়ে আইপিএলে খেলতে ব্যস্ত। এই আইপিএলে মাত্র দুটি ম্যাচেই সুযোগ পেয়েছেন ঋদ্ধিমান সাহা। প্রথম ম্যাচে ধীরগতিতে খেলে মাত্র ৩০ রান করে অপরাজিত থাকেন তিনি‌। ওই ইনিংসের পরে অবশ্য কয়েকটা ম্যাচে তাকে ডাগ আউটে বসিয়ে রাখে হায়দরাবাদ টিম ম্যানেজমেন্ট। মঙ্গলবারের ম্যাচে দিল্লির বিরুদ্ধে দলে ফের সুযোগ দেওয়া হয় তাঁকে। আর সুযোগের সদ্ব্যবহার করতে একটুও পিছপা হননি তিনি। ব্যাট হাতে রীতিমতো ঝড় তুলে দেন তিনি। দিল্লির বোলারদের বিরুদ্ধে একের পর এক বলকে অনায়াসে বাউন্ডারি পার করেন ঋদ্ধি। ওয়ার্নারের সাথে জুটিতে প্রথম উইকেটে ১০৬ রান তোলেন তিনি। তিনি যখন আউট হন তখন সানরাইজার্স স্কোর বোর্ডে রান ১৭০ আর ব্যক্তিগত ৮৭ রান করে প্যাভিলিয়নে ফিরে যান ঋদ্ধিমান। প্রসঙ্গত এর আগেও কেকেআরের বিরুদ্ধে পঞ্জাবের জার্সিতে আইপিএলের ফাইনালে এক অসাধারণ শতরান করেছিলেন পাপালি যদিও সেবার দলকে এনে দিতে পারেননি কাঙ্ক্ষিত জয়। তবে মঙ্গলবারের ম্যাচে দিল্লি ক্যাপিটালস দলকে ৮৮ রানে হারিয়ে বড় জয় তুলে নেয় তারা।

ঋদ্ধিমান সাহার এই পারফরম্যান্সে অত্যন্ত উচ্ছ্বসিত তার বাংলা রঞ্জি দলের সতীর্থ মনোজ তিওয়ারি। ম্যাচ শেষের পরেই ঋদ্ধিমানের এই ইনিংসটা নিয়ে টুইটারে নিজের উচ্ছ্বাস প্রকাশ করেন মনোজ। পাপালিকে ট্যাগ করে মনোজ লেখেন 'একদিনের ম্যাচ এবং আন্তর্জাতিক টি-টোয়েন্টির জন্য ঋদ্ধিমান সাহা - ইয়েস ইয়েস ইয়েস।'

বন্ধ করুন