বাংলা নিউজ > ময়দান > আইপিএল ২০২০ > KKR vs CSK: নারিনের উপর থেকে চাপ কমাতেই রাহুলকে ওপেনে পাঠানো হয়, দাবি কার্তিকের
রাহুল ত্রিপাঠী ও সুনীল নারিন। ছবি-আইপিএল।
রাহুল ত্রিপাঠী ও সুনীল নারিন। ছবি-আইপিএল।

KKR vs CSK: নারিনের উপর থেকে চাপ কমাতেই রাহুলকে ওপেনে পাঠানো হয়, দাবি কার্তিকের

  • সুযোগ কাজে লাগিয়ে ম্যাচের নায়ক ত্রিপাঠী।

মরশুম শুরুর আগে সুনীল নারিন ও শুভমন গিলের নতুন ওপেনিং জুটি নিয়ে আশাবাদী ছিল কলকাতা নাইট রাইডার্স। তবে আইপিএলের প্রথম চার ম্যাচে ব্যাট হাতে পুরোপুরি ব্যার্থ নারিন। অন্যদিকে রাহুল ত্রিপাঠী একজন বিশেষজ্ঞ ওপেনার হওয়া সত্ত্বেও লোয়ার অর্ডারে ব্যাট করতে নেমে প্রথম সুযোগেই রান পেয়ে যান। ফলে চেন্নাই সুপার কিংসের বিরুদ্ধে নিজেদের পঞ্চম ম্যাচে নারিনকে ওপেন করতে পাঠায়নি নাইট রাইডার্স। তাঁর পরিবর্তে গিলের সঙ্গে কেকেআর ইনিংসের গোড়াপত্তন করেন ত্রিপাঠী।

নারিন যে বল হাতেও তেমন চমকপ্রদ পারফর্ম্যান্স করছিলেন, তেমনটা কখনই নয়। তাই তাঁর চেন্নাই ম্যাচ থেকে বাদ পড়ার সম্ভাবনা তৈরি হয়েছিল। তা সত্ত্বেও কেকেআর টিম ম্যানেজমেন্ট আস্থা রাখে ক্যারিবিয়ান অল-রাউন্ডারের উপর।

(আইপিএলের লাইভ আপডেট ও লাইভ স্কোর জানতে ক্লিক করুন এখানে।)

নারিন চেন্নাই ম্যাচে ৯ বলে ১৭ রান করেন, যা দলের বাকিদের তুলনায় ভালো বলা চলে। তবে ত্রিপাঠী সুযোগ যথাযথ কাজে লাগান। পছন্দের ওপেনিংয়ে ফিরেই ৮১ রানের ঝকঝকে ইনিংস খেলেন তিনি। বল করতে এসে নারিন ৪ ওভারে ৩১ রানের বিনিময়ে ১টি উইকেট দখল করেন।

ম্যাচের শেষে পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে নাইট অধিনায়ক দীনেশ কার্তিক নারিন প্রসঙ্গে জানান যে, ক্যাবিরিয়ান তারকার উপর থেকে চাপ কমাতেই তাঁকে মিডল অর্ডারে ব্যাট করতে পাঠানো হয়েছে।

কার্তিকের কথায়, 'দলে কিছু প্রধান ক্রিকেটার রয়েছে। সুনীল নারিন তাদের মধ্যে একজন। আমরা যেটুকু করতে পারি, সেটা হল ওর পাশে থাকা। একজন ক্রিকেটার হিসেবে ওর জন্য আমি সত্যিই গর্বিত। আমাদের মনে হয়েছে নারিনের উপর থেকে চাপ কমানো উচিত। তাই রাহুলকে ওপেনে পাঠানো হয়।'

বন্ধ করুন