বাংলা নিউজ > ময়দান > আইপিএল ২০২০ > KXIP vs KKR: 'বলটা বাউন্ডারিতে যাচ্ছিল, ভাবলাম ভুল করেছি', KKR-কে জিতিয়ে রহস্য ফাঁস নারিন
ম্যাচ জয়ের পর সুনীল নারিন (ছবি সৌজন্য আইপিএল)
ম্যাচ জয়ের পর সুনীল নারিন (ছবি সৌজন্য আইপিএল)

KXIP vs KKR: 'বলটা বাউন্ডারিতে যাচ্ছিল, ভাবলাম ভুল করেছি', KKR-কে জিতিয়ে রহস্য ফাঁস নারিন

দু'দলের মুখোমুখি লড়াইয়ে অনেকটা এগিয়ে কেকেআর। এখনও পর্যন্ত ১৮ বার জিতেছে নাইট ব্রিগেড। আটবার জিতেছে পঞ্জাব।

ম্যাচর পর কে এল রাহুলের কার্যত কেঁদে ফেলার মতো অবস্থা হয়েছিল। কোনওক্রমে নিজেকে ধরে রেখে বলেছিলেন, তাঁর কাছে কোনও উত্তর নেই যে কীভাবে কলকাতা নাইট রাইডার্সের বিরুদ্ধে হারল কিংস ইলেভন পঞ্জাব। সম্ভবত নাইটদের কাছেও উত্তর নেই। এই নিয়ে কার্যত জয়ের দোরগোড়ায় দাঁড়িয়ে থেকে তিনটি ম্যাচে হারলেন রাহুলরা। আর সুনীল নারিন ও প্রসিধ কৃষ্ণা চার-পাঁচ ওভারের দুর্ধর্ষ বোলিংয়ে হারা ম্যাচে 'বাজিগর' হলেন নাইটরা। শেষপর্যন্ত দু'রানে ম্যাচ জিতল কেকেআর।

KXIP vs KKR আপডেটস:

  • কিংস ইলেভন পঞ্জাবের বিরুদ্ধে জয়ের পর লিগ টেবিলে তৃতীয় স্থানে থাকল কলকাতা নাইট রাইডার্স। ছ'ম্যাচে নাইটদের পয়েন্ট আট। নেট রানরেট +০.০১৭।
  • 'বুঝেছিলাম, ম্যাচে ফিরতে হলে স্পেশাল কিছু করতে হবে', জিতে উঠে জানালেন কার্তিক
  •  চার ওভারে ২৯ রানে তিন উইকেট নেন প্রসিধ কৃ্ষ্ণা। নারিন শেষ ওভার দুরন্ত করলেও ১৯ তম নাইটদের দিকে খেলা ঘুরিয়েছিলেন।
  • দুর্ধর্ষ বোলিং করেছেন সুনীল নারিন। চার ওভারে ২৮ রান ২ উইকেট নিয়েছেন তিনি। ন'টি ডট বল করেছেন।
  •  দু'দলের মুখোমুখি লড়াইয়ে অনেকটা এগিয়ে কেকেআর। এখনও পর্যন্ত ১৮ বার জিতেছে নাইট ব্রিগেড। আটবার জিতেছে পঞ্জাব।
  • সুনীল নারিন : আমি দুটি বিকল্প ভাবছিলাম। অফস্টাম্পের বাইরে ফুল বল করব। দ্বিতীয়টা হল শরীরের কাছে রাখব। আমি অফস্টাম্পের বাইরে ফুল বল করেছিলাম। যখন বলটা বাউন্ডারির দিকে যাচ্ছিল, ভাবছিলাম যে আমি সম্ভবত ভুল করে ফেলেছি।
  • ম্যাচের সেরা হয়েছেন দীনেশ কার্তিক।
  • কার্যত জেতা ম্যাচে হার, কোন কোন দলকে জয় ‘উপহার’ দিয়েছে পঞ্জাব?
  • কোন ৫ কারণে আবারও কার্যত হারা ম্যাচে বাজিমাত করল KKR?
  • অন ফিল্ড আম্পায়ার চার দিয়েছেন। তবে ক্লোজ কল ছিল। ২ রানে জিতল কলকাতা। কয়েক মিলিমিটারের জন্য ম্যাচ সুপার ওভারে গেল না। দুর্ধর্ষ শেষ ওভার করলেন সুনীল নারিন।
  • ১৯.৫ ওভারে উইকেট নিলেন সুনীল নারিন। এক বলে পঞ্জাবের চাই সাত রান।
  • ২০ তম চতুর্থ বলে ডিআরএস নিয়েছে কলকাতা। প্রাথমিকভাবে দেখে আউট মনে হচ্ছে না। এক রান নিয়েছেন ম্যাক্সওয়েল। আম্পায়ারও আউট দেননি। ডিআরএসও লাভ হল না।
  • শেষ ওভারে বল করছেন সুনীল নারিন। ক্রিজে আছেন মনদীপ সিং এবং গ্লেন ম্যাক্সওয়েল।
  • ১৯ তম ওভারের শেষ বলে আউট কে এল রাহুল। বোল্ড হলেন তিনি। শেষ ওভারে পঞ্জাবের চাই ১৪।
  • ১৮.৪ ওভারে আউট হলেন সিমরান সিং। পঞ্জাবের স্কোর তিন উইকেটে ১৪৯। কলকাতা কিছুটা ম্যাচে ফিরলেও এখনও ম্যাচে এগিয়ে পঞ্জাব। একটা বড় শটেই ম্যাচ দখলে চলে আসবে।
  • রাসেলের অনুপস্থিতি বড় ফ্যাক্টর হয়ে দাঁড়াল কেকেআরের কাছে। ১৯ তম ওভার বল করছেন প্রসিধ কৃষ্ণা। ১২ বলে ২০ রান চাই পঞ্জাবের।
  • বড্ড দেরি করে ফেললেন সুনীল নারিন? ১৭.২ ওভারের নিকোলাস পুরানকে বোল্ড করলেন। ১০ বলে ১৬ করলেন পুরান। পঞ্জাবের স্কোর ২ উইকেটে ১৪৪।
  • মায়াঙ্ক আউট হওয়ার পরও অবিচল রাহুলরা। গত ম্যাচের ঝলক দেখাচ্ছেন নিকোলাস পুরান। ১৬ তম ওভারে উঠল ১৯ রান।
  • শেষপর্যন্ত কেকেআরের তরফে একটা ভদ্রস্থ ওভার হল। ১৫ তম ওভারে এক উইকেটে চার রান কেকেআরের।
  • অবশেষে প্রথম উইকেট পেল কলকাতা। আউট হলেন মায়াঙ্ক আগরওয়াল। লেগ-সাইডের ছোটো বাউন্ডারির দিকে চার মারতে গিয়েছিলেন। কিন্তু তা ডিপ মিড-উইকেটে শুভমন গিলের হাতে বল জমা পড়ে। ১৪.২ ওভারে পঞ্জাবের স্কোর এক উইকেটে ১১৫ রান। ৩৯ বলে ৫৬ রান করেন তিনি।
  • নাইট শিবিরে ধাক্কা, লোকেশ রাহুলের ক্যাচ মিস করে চোট পেলেন রাসেল
  • খুব সম্ভবত বল করবেন না আন্দ্রে রাসেল। ১৩ ওভারের শেষে ড্রেসিংরুমের দিকে তাকিয়ে পরিবর্তের কথা বলতে বললেন। পঞ্জাবের স্কোর বিনা উইকেটে ১০৬।
  • কামিন্সের ওভারে উইকেটের প্রয়োজন ছিল। তা হল না। উলটে অর্ধশতরান পূরণ করলেন রাহুল ও মায়াঙ্ক। কামিন্সকে চার মেরে অর্ধশতরান পূরণ করেন রাহুল। দু'বল পরেই সেই মাইলস্টোন পার করেন মায়াঙ্ক।
  • ডেথ ওভারে কে বল করলেন? আন্দ্রে রাসেল তাহলে? চতুর্থ ওভার এটা। ম্যাচে ফিরতে ১৩ তম ওভারে কেকেআরের উইকেট চাই।
  • ক্রমশ কেকেআরের হাত থেকে ম্যাচে বেরিয়ে যাচ্ছে। ১১ তম ওভারে উঠল ১০ রান। ১১ ওভারে রাহুলদের স্কোর বিনা উইকেটে ৮৬ রান। মায়াঙ্ক ২৮ বলে ৪৩ রান করেছেন।
  • আন্দ্রে রাসেলের চোট নিয়ে একেবারেই আশার আলো শোনালেন না কেকেআরের বোলিং কোচ কাইলস মিলস। জানালেন, এখনও ড্রেসিংরুমে আছেন রাসেল। পায়ে বরফ দিচ্ছেন। দেখে বেশ খারাপ মনে হচ্ছে। সেক্ষেত্রে তিনি ফিরলেও আদৌও কি বল করতে পারবেন রাসেল? কারণ ইতিমধ্যে ১০ ওভার হয়ে গিয়েছে।
  • দ্বিতীয় ওভারেই ক্যাচ মিসের ফল ভুগতে হচ্ছে কলকাতাকে। ৯ ওভার শেষে পঞ্জাবের স্কোর ৬৭ রান।
  • ষষ্ঠ ওভারে উঠল ১১ রান। ৬ ওভার শেষে পঞ্জাবের স্কোর বিনা উইকেট ৪৭ রান। শুরুতে সময় নিয়ে খেলছিলেন কে এল রাহুল ও মায়াঙ্ক আগরওয়াল। চতুর্থ ওভার থেকে হাত খুলেছেন তাঁরা। প্রসিধ কৃষ্ণার সেই ওভারে উঠেছিল ১৪ রান। পঞ্চম ওভারে ওঠে আট রান।
  • প্যাট কামিন্সকে পঞ্চম ওভার দিয়েছেন কার্তিক। তাহলে কি আন্দ্রে রাসেল ফিরে আসবেন? যদি না আসেন, তাহলে তা কেকেআরের কাছে বড় ধাক্কার হবে।
  • চার ওভারে পঞ্জাবের স্কোর বিনা উইকেটে ২৮ রান। চতুর্থ ওভারে উঠল ১৪ রান। এবার কাকে বল দেবেন কার্তিক? কামিন্সকে কি এখন দেবেন নাকি রাসেল যদি না থাকেন, সে কথা ভেবে ডেথ ওভারের জন্য কামিন্সকে তুলে রাখবেন কার্তিক?
  • ক্যাচ তো মিস করলেনই। বাউন্ডারি বাঁচাতে গিয়ে ইলেট্রনিক বোর্ডে ধাক্কা পেলেন। তারপর পায়ে চোট পেলেন আন্দ্রে রাসেল। যা কলকাতার কাছে বড়সড় ধাক্কা হতে পারে। এই ম্যাচে বল করতে না পারলে বড় ধাক্কা হবে। কারণ এখন ডেথ ওভারে তিনি বল করেন।
  • শুরুতেই জীবনদান পেলেন কে এল রাহুল। প্রসিধ কৃষ্ণার বলে এখেবারেই টাইম করতে পারেননি কে রাহুল। হাতে লেগে বল পড়ে গেল রাসেলের। এটা তাঁর ধরার মতো ক্যাচ ছিল।
  • ভালো শুরু প্যাট কামিন্সের। প্রথম ওভারে দিলেন তিন রান।
  • রান তাড়া শুরু পঞ্জাবের। ম্যাচ কি জিততে পারবে কলকাতা?
  • কার্তিকের শাপমুক্তি, গিলকে সঙ্গে নিয়ে দলকে লড়াইয়ে রাখলেন নাইট অধিনায়ক – পড়ুন এখানে
  • যেভাবে শুরু করেছিল কলকাতা, তার থেকে ঢের ভালো জায়গায় কলকাতা। সৌজন্য দীনেশ কার্তিক এবং শুভমন গিল।  অর্শদীপ সিং জানান, শুরুর দিকে কিছু বল থমকে যাচ্ছিল। কয়েকটি বল উঠে যাচ্ছিল। তবে শেষের দিকে ব্যাটিংয়ের জন্য ভালো হয়েছে বলে জানালেন অর্শদীপ।
  • শেষ ওভারেও উঠল মাত্র ৯ রান। তার সৌজন্য ছয় উইকেটে ১৬৪ রান তুলল কেকেআর। দীনেশ কার্তিক ২৯ বলে ৫৮ রান করলেন। শেষ বলে দু'রান নিতে গিয়ে আউট হলেন তিনি। কখনওই ২ রান ছিল না। তবে শেষ বল বলে চেষ্টা করেছিলেন।
  • ১৯ তম ওভারে উঠল মাত্র ৯ রান। কেকেআরের স্কোর পাঁচ উইকেটে ১৫৫ রান। ১৭০ রান কি উঠবে?
  • আউট আন্দ্রে রাসেল। তৃতীয় বলেই আউট হলেন তিনি। অফ-স্টাম্পের বাইরের দিকে যাওয়া বলে মারতে গিয়ে উইকেটের পিছনে ধরা পড়লেন। তার আগের বলেই ভাগ্যের জোর চার হয়েছিল। এবার কামাল করলেন অর্শদীপ সিং। ১৮.২ ওভারে কেকেআরের স্কোর পাঁচ উইকেটে ১৪৯ রান।
  • দুর্ধর্ষ বাউন্সারে আন্দ্রে রাসেলকে স্বাগত জানালেন মহম্মদ শামি। রীতিমতো চমকে যান রাসেল। এক রান হয়। ১৮ ওভারে কলকাতার স্কোর চার উইকেটে ১৪৬ রান।
  • অসাধারণ ইনিংস বলা যাবে না। কিন্তু দল শুরুতেই চাপে পড়ার পর কলকাতাকে টেনে বের করলেন শুভমন গিল। ৪৭ বলে করলেন ৫৭ রান। অন-সাইডের স্কোয়ারের দিকে বল ঠেলে ২ রান নেওয়ার চেষ্টা করেন শুভমন। কিন্তু ক্রিজের কিছুটা আগেই থেকে যান। এক রান হল কলকাতার। ১৭.৫ ওভারে কেকেআরের স্কোর চার উইকেটে ১৪৫।
  • এতদিন ফর্মে ছিলেন না। দলের বিপদে একেবারে সামনে থেকে এগিয়ে এলেন দীনেশ কার্তিক। ২২ বলে ৫০ রান পূরণ করলেন কলকাতা অধিনায়ক।
  • ১৭ তম ওভারে উঠল ১৭ রান। কলকাতার স্কোর তিন উইকেটে ১৩৩ রান। জোড়া চার এবং একটি ছক্কা মারলেন কার্তিক।
  • ১৬ তম ওভারে উঠল ১৪ রান। তিনটি চার রান মারলেন দীনেশ কার্তিক। কিছুটা খেলায় ফিরল কলকাতা। ১৬ ওভারে কলকাতার স্কোর তিন উইকেটে ১১৫ রান। শেষ তিন ওভারে উঠল ৪০ রান।
  • কঠিন পিচ ও দলের বিপদের মুখে অর্ধশতরান পূরণ করলেন শুভমন গিল। খুব একটা সহজ নয় ব্যাটিং করার জন্য। সেখানে চার মেরে ৪২ বলে ৫০ করলেন গিল।
  • অন্য দিনের থেকে শনিবার আবুধাবির পিচ বেশ আলাদা। অন্যদিনের মতো সবুজ আভা নেই। ফলে ১৫০-১৬০ রানও ভালো স্কোর হতে পারে। এখান থেকে যদি কিছুটা হাত খুলতে পারেন কলকাতার ব্যাটসম্যানরা, সেটা অসম্ভব নয়। একইসঙ্গে রাসেল আসবেন এরপর। ফলে ১৫০-১৬০ রান তুলতে পারে কেকেআর।
  • ১৩ ওভারে কলকাতার স্কোর তিন উইকেটে ৭৫ রান। ক্রিজে আছেন শুভমন গিল (৩৬ বলে ৩৭) এবং দীনেশ কার্তিক (পাঁচ বলে চার রান)।
  • কিছুটা পার্টনারশিপ গড়ে উঠছিল। তখনই আউট হয়ে গেলেন ইয়ন মর্গ্যান। রবি বিষ্ণোইয়ের বলে ভালোমতো টাইম করতে পারেননি ইংরেজ অধিনায়ক। কী বল ধরতে পারলেও আগেই শট মেরে বসেন। ফলে কভারের উপর দিয়ে যাওয়ার পরবর্তী লং-অনে গ্লেন ম্যাক্সওয়েলের হাতে জমা পড়েন মর্গ্যান। ১০.৪ ওভারে কেকেআরের স্কোর তিন উইকেটে ৬৩ রান। মর্গ্যান করলেন ২৩ বলে ২৪ রান।
  • ন'ওভার শেষে কলকাতার স্কোর ২ উইকেটে ৪৯ রান। সপ্তম ওভার কলকাতার জন্য ভালো গিয়েছিল কিছুটা। সেই ওভারে উঠেছিল ১৩ রান। অষ্টম ওভারে ওঠে সাত রান। রবি বিষ্ণোইয়ের প্রথম ওভারে কিছুটা সমস্যায় পড়েছেন মর্গ্যান। শেষপর্যন্ত সেই ওভারে চার রান উঠেছে। ১৮ বলে শুভমন অপরাজিত ১৫ রানে। মর্গ্যান করেছেন ২২ বলে ২৪ রান।
  • জঘন্য শুরু কলকাতার। পঞ্জাব ভালো বল করলেও বাজে শট নির্বাচনের খেসারত দিয়েছিলেন রাহুল ত্রিপাঠী। নীতিশ রানার তো ব্রেন ফেড হয়েছিল। ৬ ওভারে কেকেআরের স্কোর ২ উইকেটে ২৬। চলতি আইপিএলেদ্বিতীয় সর্বনিম্ন পাওয়ার প্লে স্কোর।
  • মহম্মদ শামির বলে চার মেরে আইপিএলে ১,০০০ রান পূরণ করলেন মর্গ্যান।
  • পাঁচ ওভারে কলকাতার স্কোর ২ উইকেটে ১৯ রান।
  • চতুর্থ ওভারে কেকেআরের স্কোর ২ উইকেটে ১৫ রান। গিল করেছেন আট বলে আট রান। মর্গ্যান ২ বলে ০ রান করেছেন।
  • চার নম্বরে নামলেন ইয়ন মর্গ্যান।
  • আবুধাবির মাঠে কলকাতা নাইট রাইডার্সের 'কমেডি অফ এররস'। ৩.৩ ওভারে গিল শর্ট ফাইন লেগের দিকে বল ঠেলেন। সোজা শামির হাতে বল যায়। গিল একেবারেই রান নিতে ইচ্ছুক ছিলেন না। পরিষ্কার না বলেছলেন গিল। কিন্তু নীতিশ রানা নিজের ছন্দে দৌড়াতে শুরু করেন। তার ফলে একইদিকে চলে যান গিল ও রানা। শামি ভুল দিকে থ্রো করলেও রান আউট করার জন্য অনেক সময় ছিল। তা সহজেই করেন।
  • দুরন্ত দ্বিতীয় ওভার করলেন শামি। একমাত্র প্রথম বলে স্বচ্ছন্দে ছিলেন গিল। নীতিশ রানাকে প্রথম দু'বলেই রীতিমতো বিব্রত করে ছাড়লেন। শেষ বলে ভাগ্যের জোর বেঁচে যান রানা। তিন ওভারে কলকাতার স্কোর এক উইকেটে ১৩ রান।
  • একেবারেই ছন্দে ছিলেন না শুরু থেকে। বেশ নড়বড়ে লাগছিল। নিজের নবম বলে মহম্মদ শামিকে চার মেরে প্রথম রান করেন। কিন্তু পরের বলেই শামির গুড লেংথের বলে ছিটকে গেল রাহুলের লেগ স্টাম্প। বাজে শট রাহুলের। কোনও খেই পেলেন না শামির ভিতরের দিকে ঢুকে আসা বলের। ২.৪ ওভারে কলকাতার স্কোর এক উইকেটে ১২ রান। রাহুল করলেন ১০ বলে চার রান।
  • দ্বিতীয় ওভারে এক রানও উঠল না। রাহুলকে বেশ নড়বড়ে লাগছে। বাঁ-হাতি বোলারের কোণে অফস্টাম্পের বাইরে দিয়ে যে বল বেরোচ্ছে, তাতে বেশ সমস্যায় পড়লেন রাহুল। তৃতীয় বলে ব্যাটের কাণায় লেগেছিল। তবে বেঁচে গিয়েছেন। ২ ওভারে কলকাতার স্কোর বিনা উইকেটে সাত রান।
  • বিপজ্জনকভাবে খেলছেন রাহুল। দ্বিতীয় ওভারের প্রথম বলে গুড লেংথের বলে সামান্য বাইরের দিকে মুভমেন্ট। ড্রাইভ করতে গিয়ে মিস করলেন ত্রিপাঠী। দ্বিতীয় বলে উইকেট-কিপারের সামান্য আগে পড়ল ত্রিপাঠীর ক্যাচ।
  • প্রথম ওভার শেষে কলকাতার স্কোর বিনা উইকেটে সাত রান। চতুর্থ বলে চার মারেন শুভমন। লেগ সাইডের দিকে বল ছিল। সহজেই বাউন্ডারিতে বল পাঠান। শুভমন করেছেন পাঁচ বলে ছ'রান। রাহুল এক বল খেললেও কোনও রান করতে পারেননি।
  • শুরু হল কলকাতা নাইট রাইডার্স ও কিংস ইলেভন পঞ্জাবের ম্যাচ। ব্যাট হাতে শুরু করেছেন রাহুল ত্রিপাঠী এবং শুভমন গিল। বল করছেন মহম্মদ শামি।
  • টস জিতলেন কার্তিক, ইঙ্গিত দিয়েও গেইলকে মাঠে নামাল না পঞ্জাব
  • কিংস ইলেভন পঞ্জাবের প্রথম একাদশ : পঞ্জাবের দলের এখনও ব্রাত্য ক্রিস গেইল। দলে শুধুমাত্র একটি পরিবর্তন হয়েছে। শেলডন কটরেলের পরিবর্তে এসেছেন ক্রিস জর্ডন। কটরেলেরও হালকা চোট আছে। পঞ্জাবের প্রথম একাদশ - কে এল রাহুল, মায়াঙ্ক আগরওয়াল, মনদীপ সিং, নিকোলাস পুরান, সিমরান সিং, গ্লেন ম্যাক্সওয়েল, মুজিবুর রহমান, ক্রিস জর্ডন, রবি বিষ্ণোই, মহম্মদ শামি এবং অর্শদীপ সিং।
  • কলকাতা নাইট রাইডার্সের প্রথম একাদশ : দলে একটি পরিবর্তন করল কলকাতা। হালকা চোটের জন্য বাদ পড়লেন শিবম মাভি। দলে এলেন প্রসিধ কৃষ্ণা। কলকাতা নাইট রাইডার্সের প্রথম একাদশ - রাহুল ত্রিপাঠী, শুভমন গিল, নীতিশ রানা, সুনীল নারিন, ইয়ন মর্গ্যান, আন্দ্রে রাসেল, দীনেশ কার্তিক, প্যাট কামিন্স, কমলেশ নাগারকোটি, বরুণ চক্রবর্তী এবং প্রসিধ কৃষ্ণা।
  • দু'দলের মুখোমুখি লড়াইয়ে অনেকটা এগিয়ে কেকেআর। এখনও পর্যন্ত ১৭ বার জিতেছে নাইট ব্রিগেড। তার মধ্যে আছে ২০১৪ সালের আইপিএল ফাইনালও। আটবার জিতেছে পঞ্জাব।
  • ‘সেঞ্চুরি’র দোরগোড়ায় নাইট পেসার, রেকর্ডের সামনে রাসেল-মর্গ্যান --- পড়ুন এখানে
  • আবুধাবিতে টসে জিতে প্রথমে ব্যাটিংয়ের সিদ্ধান্ত নিল কলকাতা নাইট রাইডার্স।

বন্ধ করুন