বাংলা নিউজ > ময়দান > আইপিএল ২০২০ > MI vs DC: মুম্বইয়ের কাছে হোঁচট খেল দিল্লি, ৫ উইকেটে জিতে লিগের শীর্ষে রোহিতরা

লড়াইটা ছিল এবারের আইপিএলের সেরা ব্যাটিং বনাম সেরা বোলিংয়ের। সেই লড়াইয়ে শেষ হাসি হাসল মুম্বই ইন্ডিয়ান্স। দু'বল বাকি থাকতেই পাঁচ উইকেটে জিতে গেলেন রোহিত শর্মারা। সেই জয়ের সৌজন্যে লিগ টেবিলের শীর্ষে উঠে গেল মুম্বই। 

MI vs DC আপডেটস :

  •  
  • এই জয়ের ফলে লিগ টেবিলের শীর্ষে উঠে এল মুম্বই ইন্ডিয়ান্স। 
  • অন্যদিনের মতো রবিবার ভালো বল করতে পারেননি দিল্লির তারকারা। তবে সেটা অবশ্যই তাঁরা নিজেদের যে উচ্চতায় নিয়ে গিয়েছেন, সেজন্য মনে হবে। এবারের আইপিএলে সেরা ব্যাটিং দলের বিরুদ্ধে ভালো শুরু করেও ছন্দ ধরে রাখতে পারেননি তাঁরা। একইসঙ্গে মুম্বইয়ের দীর্ঘ ব্যাটিংয়ের জেরে শেষের দিকে পরপর উইকেট তুলে নিয়েও লাভ হল না দিল্লির। 
  • দু'বল বাকি থাকতেই ম্যাচে জিতে গেল মুম্বই ইন্ডিয়ান্স। পাঁচ উইকেটে হারাল দিল্লি ক্যাপিটালসকে।
  • শেষ ওভার করবেন মার্কাস স্টইনিস। দলকে কি জয় এনে দিতে পারবেন?
  • দুর্দান্ত ১৯ তম ওভার। মাত্র তিন রান দিলেন নর্টজে। শেষ ওভারে মুম্বইয়ের চাই সাত রান।
  • আইপিএলে টানা ২১ ম্যাচে উইকেট নিলেন কাগিসো রাবাডা।
  • কাগিসো রাবাডাকে ছক্কা মেরেছিলেন। তারপর আবারও বড় শট মারতে গিয়ে আউট হলেন ইশান কিষান। ১৭.৩ ওভারে মুম্বইয়ের স্কোর পাঁচ উইকেটে ১৫২ রান। অকারণ বড় শট মারলেও দৌড়ে এসে দারুণ ক্যাচ ধরলেন অক্ষর প্যাটেল।
  • তিন ওভারে মুম্বইয়ের চাই ১৮ রান।
  • জন্মদিন একেবারেই ভালো কাটল না হার্দিক পান্ডিয়ার। দ্বিতীয় বলেই স্কোরারদের একেবারে কোনও কষ্ট না দিয়ে প্যাভিলিয়েন ফিরলেন তিনি। মার্কাস স্টইনিসের বল হার্দিকের ব্যাটের কাণায় লেগে উইকেটের পিছনে যায়। কোনও ভুল করেননি অ্যালেক্স ক্যারি। তিন বলে ২ উইকেটে হারাল মুম্বই। ১৫.২ ওভারে মুম্বইয়ের স্কোর চার উইকেটে ১৩০ রান। এবার কি ম্যাচে ফিরতে পারবে মুম্বই?
  • শেষ হাসি হাসলেন কাগিসো রাবাডা। ১৫ তম ওভারের শেষ বল আউট হলেন সূর্যকুমার যাদব। করলেন ৩২ বলে ৫৩ রান। ১৫ ওভারে মুম্বইয়ের স্কোর তিন উইকেটে ১৩০। সেই ওভারে উঠল ১৪ রান।
  • প্রথম বলে চার। তৃতীয় বলে ছক্কা। এবার আইপিএলের সেরা বোলারকে ছক্কা মেরেই অর্ধশতরান পূরণ করলেন সূর্যকুমার যাদব। ৩০ বলে পূরণ করলেন অর্ধশতরান। ১৪.৩ ওভারে  মুম্বইয়ের স্কোর ২ উইকেটে ১২৮ রান।
  • ১০.২ ওভারে পয়েন্ট বল ঠেলেন সূর্যকুমার যাদব। এক রানের জন্য কল করেন ইশান কিষান। কিন্তু কোনওমতেই রান হত না। কিন্তু কার্যত ১৬ গজ পার করেছিলেন তিনি। ভাগ্যবশত রাহানের থ্রো স্ট্রাইকিং এন্ডে লাগে।  সেই সময় নিজের দিকে ক্রিজে পৌঁছে যান ইশান। কিন্তু রাহানের ভাগ্য একদম সহায়ক নয়। দুর্দান্ত চেষ্টা করেন। দৌড়ানোর সময নিজের কমজোরি হাতে থ্রো করেন।
  • বড় ধাক্কা মুম্বইয়ের। আউট হলেন কুইন্টন ডি'কক। ৩৬ বলে ৫৩ রান করেন তিনি। রবিচন্দ্রন অশ্বিনের বলে স্লগ-সুইপ মারতে গিয়ে ডিপে পৃথ্বী শ'র হাতে জমা পড়েন। ৯.৫ ওভারে মুম্বইয়ের স্কোর ২ উইকেটে ৭৭ রান।
  • অর্ধশতরান পূরণ করলেন কুইন্টন ডি'কক। দুরন্ত ইনিংস খেলেছেন। কার্যত একা হাতেই দলকে টানছেন। ৮.৪ ওভারে হর্ষল প্যাটেলের বলে চার মেরে ৫০ পূরণ করেন।
  • ৬ ওভারে এক উইকেটে ৪৪ রান মুম্বইয়ের। ষষ্ঠ ওভারে এল ১৩ রান। ২৪ বলে ৩৮ রানে অপরাজিত আছেন কুইন্টন ডি'কক। তাঁর সঙ্গে ক্রিজে আছেন সূর্যকুমার যাদব।
  • প্রথম উইকেট পড়ল মুম্বই ইন্ডিয়ান্সের। আউট হয়ে গেলেন রোহিত শর্মা। এতক্ষণের ঢিমেতালে ইনিংস থেকে বেরিয়ে মিড-উইকেটের উপর দিয়ে ছক্কা মারতে গিয়েছিলের রোহিত। কিন্তু একচুলও নড়তে হল না রাবাডাকে। ডিপ মিড-উইকেটে তাঁর হাতে জমা পড়ল বল। আবারও উইকেটের কলামে নিজের নাম তুললেন অক্ষর প্যাটেল। পাঁচ ওভারে মুম্বইয়ের স্কোর এক উইকেটে ৩১ রান। ১২ বলে মাত্র পাঁচ রান করেন রোহিত।
  • ৩.৩ ওভারে প্রথম বাউন্ডারি এল মুম্বইয়ের।  রবি অশ্বিনকে লং-অনের উপর দিয়ে ছক্কা মারলেন কুইন্টিন ডি'কক।
  • কেন দিল্লির বোলিংকে এবারের সেরা বলা হচ্ছে, তা আবারও প্রমাণ করলেন রাবাডা, নর্টজে এবং অক্ষররা। প্রথম তিন ওভারে কোনও বাউন্ডারি মারতে পারেননি মুম্বইয়ের ব্যাটসম্যানরা।
  • ভালো শুরু কাগিসো রাবাডার। প্রথম ওভারে মুম্বইয়ের স্কোর বিনা উইকেটে তিন।
  • রান তাড়া শুরু করল মুম্বই ইন্ডিয়ান্সের। বড় রেকর্ডের সামনে দাঁড়িয়ে আছেন রোহিত শর্মা।
  • শেষ ওভারে উঠল ১২ রান। তার সৌজন্যে ২০ ওভারে চার উইকেটে ১৬২ রান তুলল দিল্লি। শিখর ধাওয়ান ৫২ বলে ৬৯ রানে অপরাজিত থাকলেন।
  • ক্রিজে এলেন অ্যালেক্স ক্যারি।
  • শিখর ধাওয়ানের  সঙ্গে ভুল বোঝাবুঝিতে আউট হলেন মার্কাস স্টইনিস। লং-অনের দিকে মেরেছিলেন তিনি। সামান্য ফস্কান সূর্যকুমার যাদব। তিনি তাঁর হাতের বাইরে বল বেরোয়নি। দু'রান নিতে গিয়ে অনেকটা তলে গিয়েছিলেন স্টইনিস। রান আউট হলেন তিনি। তিন ওভার বাকি থাকতে দিল্লির বড় ধাক্কা। ১৬.৩ ওভারে দিল্লির স্কোর চার উইকেটে ১৩০ রান।
  • অর্ধশতরান পূরণ করলেন শিখর ধাওয়ান। ১৫.২ ওভারে ট্রেন্ট বোল্টের বলে এক রান নিয়ে ৫০ করেন তিনি। এবার প্রথম ৫০ রান করলেন শিখর। এটাই কি টার্নিং পয়েন্ট হবে?
  • খুব একটা ভালো বল ছিল না। শর্ট বলের উপযুক্ত পরিণতি দিতে গিয়ে বাউন্ডারিতে ট্রেন্ট বোল্টের হাতে ধরা পড়লেন শ্রেয়স আইয়ার। ১৪.৩ ওভারে দিল্লির স্কোর তিন উইকেটে ১০৯ রান। ৩৩ বলে ৪২ করলেন তিনি। ম্যাচের দ্বিতীয় উইকেটে ক্রুণাল পান্ডিয়ার।
  • ক্রমশ দিল্লিকে খেলায় ফেরাচ্ছেন শিখর ধাওয়ান ও শ্রেয়স আইয়ার। ১০ ওভারে তাদের স্কোর ২ উইকেটে ৮০ রান।  ১৮ বলে ২৯ রানে অপরাজিত শ্রেয়স আইয়ার। ২৪ বলে ২৯ করেছেন ধাও.য়ান। রবিবার একেবারেই ফর্মে নেই প্যাটিনসন। দশম ওভারে উঠল ১৩ রান।
  • আইপিএলে ১০০ ছক্কার নজির শিখর ধাওয়ানের।
  • ৬ ওভার শেষে দিল্লির স্কোর ২ উইকেটে ৪৬ রান। ষষ্ঠ ওভারে উঠল ১৪ রান। জেমস প্যাটিনসনের চতুর্থ বলে দুর্ধর্ষ ড্রাইভ মারলেন শ্রেয়স আইয়ার। চোখ জুড়িয়ে যাবে। পাঁচ বলে তিনি ১০ রান করেছেন। ১৩ বলে ১৫ রানে অপরাজিত ধাওয়ান।
  • প্রথম ইনিংসে বড় রান করতে পারলেন না অজিঙ্কা রাহানে। ১৫ বলে ১৫ রান করে ফিরলেন তিনি। ক্রুণাল পান্ডিয়ার বলে স্টাম্পের সামনে তাঁর পা জমে যায়। রিভিউও নেননি রাহানে। ৪.২ ওভারে দিল্লির স্কোর ২ উইকেটে ২৪ রান।
  • তিনে নামলেন অজিঙ্কা রাহানে।
  • তৃতীয় বলে আউট পৃথ্বী শ। আবারও উইকেট ছুড়ে দিয়ে এলেন তিনি। ড্রাইভের আশায় গিয়ে কভারে ক্রুণাল পান্ডিয়ার হাতে জমা পড়লেন। দিল্লির স্কোর ০.৩ ওভারে এই উইকেটে চার রান।
  • শুরু করলেন ট্রেন্ট বোল্ট। ব্যাট হাতে নেমেছেন পৃথ্বী শ এবং শিখর ধাওয়ান।
  • মুম্বই ইন্ডিয়ান্সের হয়ে ১৫০ তম ম্যাচ খেলতে নামছেন রোহিত শর্মা। মুম্বইয়ের হয়ে তাঁর থেকে বেশি ম্যাচ খেলেছেন একমাত্র কায়রন পোলার্ড (১৫৫)। রোহিতকে ম্যাচ শুরুর আগে একটি জার্সি দেন জাহির খান।
  • অপরিবর্তিত মুম্বই। প্রথম একাদশ - কুইন্টন ডি'কক, রোহিত শর্মা, সূর্যকুমার যাদব, ইশান কিষান, হার্দিক পান্ডিয়া. কায়রন পোলার্ড, ক্রুণাল পান্ডিয়া, জেমস প্যাটিনসন, রাহুল চাহার, ট্রেন্ট বোল্ট এবং জসপ্রীত বুমরাহ।
  • সবমিলিয়ে দিল্লিতে জোড়া পরিবর্তন হয়েছে। দলে ঢুকেছেন অ্যালেক্স ক্যারি। দিল্লির প্রথম একাদশ - পৃথ্বী শ, শিখর ধাওয়ান, অজিঙ্কা রাহানে, শ্রেয়স আইয়ার, অ্যালেক্স ক্যারি, মার্কাস স্টইনিস, অক্ষর প্যাটেল, হর্শল প্যাটেল, রবিচন্দ্রন অশ্বিন. কাগিসো রাবাডা এবং এনরিখ নর্টজে।
  • অবশেষে দলে ঢুকলেন অজিঙ্কা রাহানে। ঋষভ পন্থের পরিবর্তে দলে এসেছেন তিনি। এবারের আইপিএল সপ্তম ম্যাচে জায়গা পেলেন তিনি। তবে কোথায় খেলবেন, তা নিয়ে ধোঁয়াশা আছে। ওপেনিং জুটি ভাঙার সম্ভাবনা কার্যত নেই। তিনে ভালো ফর্মে আছেন শ্রেয়স আইয়ার। তাহলে কি পন্থের পরিবর্তে চারেই নামবেন রাহানে?
  • আপাতত ছ'ম্যাচে ১০ পয়েন্ট নিয়ে লিগ টেবিলের শীর্ষ আছেন শ্রেয়স আইয়াররা। সমসংখ্যক ম্যাচে দু'পয়েন্ট কম আছে রোহিত শর্মাদের ঝুলিতে। তবে রবিবার রোহিতরা জিতলে রানরেটের বিচারে লিগ টেবিলের শীর্ষে চলে যাবেন তাঁরা।
  • টসে জিতে প্রথমে ব্যাটিংয়ের সিদ্ধান্ত নিল দিল্লি ক্যাপিটালস।

বন্ধ করুন