বাংলা নিউজ > ময়দান > আইপিএল ২০২০ > RR vs CSK: মরু শহরে আর্চার ঝড়, শেষ ওভারের প্রথম ২ বলে করলেন ২৭ রান!

বল হাতে এখনও সুযোগ আসেনি। তার আগে ব্যাট হাতে চেন্নাই সুপার কিংসের বিরুদ্ধে মরু শহরে ঝড় তুললেন জোফ্রা আর্চার। রাজস্থান রয়্যালস ইনিংসের শেষ ওভারে প্রথম দু'বলে ২৭ রান তুললেন ইংল্যান্ডের ফাস্ট বোলার। শেষ পর্যন্ত ২০ তম ওভারে ৩০ রান তুলল রাজস্থান।

RR vs CSK-এর ম্যাচের লাইভ আপডেট দেখুন

মঙ্গলবার শারজায় শুরুতেই যশস্বী জয়সওয়ালকে হারালেও তারপর থেকে চেন্নাইয়ের বোলারদের পুরোপুরি শাসন করেন সঞ্জু স্যামসন ও স্টিভ স্মিথ। মাত্র ৩২ বলে ৭৪ রান করেন সঞ্জু। সেই বিধ্বংসী ইনিংসে ১০ বার বাউন্ডারির বাইরে বল ফেলেছেন। তার মধ্যে চার ছিল মাত্র একটি। সঞ্জুকে যোগ্যসঙ্গত দেন রাজস্থান অধিনায়ক। কনকাশনের কারণে প্রথম ম্যাচে খেলতে পারবেন কিনা, তা নিয়ে ধোঁয়াশা তৈরি হয়েছিল। কিন্তু শারজায় নেমে প্রমাণ করেন, সবকিছু ঠিক আছে। ৪৭ বলে ৬৯ রানের ঝকঝকে ইনিংস খেলেন স্মিথ।

তবে ১১.৪ ওভারে সঞ্জু আউট হওয়ার পরই একের পর এক উইকেট হারাতে থাকে রাজস্থান। ১৯ ওভার শেষে তাদের স্কোর দাঁড়ায় সাত উইকেটে ১৮৬। ক্রিজে ছিলেন আর্চার এবং টম কারান। বল করতে আসেন লুঙ্গি এনগিডি। তারপরেই শারজায় ওঠে আর্চার ঝড়। তাঁর সৌজন্যে শেষ ওভারে ৩০ রান তোলে রাজস্থান। তার জেরে রাজস্থানের ইনিংস শেষ হয়ে সাত উইকেটে ২১৬ রানে।

কীভাবে ২০ তম ওভারের প্রথম ২ বলে ২৭ রান হল? 

প্রথম বল : দুর্ধর্ষ শট। লং-অফের উপর দিয়ে ছয় মারেন আর্চার।

দ্বিতীয় বল : আরও বড় ছক্কা। এনগিডির শর্ট বলে পুল মারেন আর্চার। স্কোয়ার লেগের উপর দিয়ে বল কার্যত ভারতেই পাঠিয়ে দেন।

তৃতীয় বল (বৈধ নয়) : ছক্কার হ্যাটট্রিক। লং-অনের উপর দিয়ে এনগিডিকে বাউন্ডারির বাইরে ফেলে দেন আর্চার। প্রথম তিন বলের পরিস্থিতি কতটা খারাপ হতে পারে? তার প্রমাণ মেলে।  নো-বল করেন এনগিডি। ফ্রি-হিট রাজস্থানের। অর্থাৎ মোট সাত রান যোগ হল।

তৃতীয় বল (বৈধ নয়) : ফের লং-অফের উপর দিয়ে ছয় মারলেন আর্চার। এবারও ক্রিজের বাইরে পা এনগিডি। দক্ষিণ আফ্রিকার বোলারের জন্য শেষ ওভার আরও বিভীষিকা হয়ে উঠছে। অর্থাৎ মোট সাত রান যোগ হল।

তৃতীয় বল (বৈধ নয়) : ওয়াইড। পরের বলও ফ্রি-হিট থাকবে। এক রান। অর্থাৎ প্রথম দু'বলে ২৭ রান যোগ হল।

তৃতীয় বল : কোনও রান নয়। বৈধ বল। অবশেষে গাঁট পেরোলেন এনগিডি।

বন্ধ করুন